মন্ত্রিত্ব হারানোর বিষয়ে মুখ খুললেন সুদীপ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ত্রিপুরার সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী সুদীপ রায় বর্মণ। ছবি: বাংলানিউজ

walton

আগরতলা (ত্রিপুরা): মন্ত্রিত্ব হারানোর পর প্রথমে কিছু বলতে চাননি সুদীপ রায় বর্মণ। তবে সংবাদমাধ্যমের অনুরোধে শেষ পর্যন্ত মুখ খুললেন সদ্য সাবেক হওয়া ত্রিপুরার স্বাস্থ্যমন্ত্রী। 

শনিবার (০১ জুন) দুপুরে রাজ্যের রাজধানী আগরতলার রবীন্দ্রপল্লীর সরকারি বাসভবনে সুদীপ রায় বর্মণ সাংবাদিকদের বলেন, সংবাদমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানতে পারলাম, আমাকে মন্ত্রিসভা থেকে সরানো হয়েছে। সরকারিভাবে কেউ কিছু জানায়নি। 

তিনি বলেন, প্রায় ১৪ মাস ধরে সরকারের মন্ত্রী হিসেবে কাজ করেছি। সবসময় চেষ্টা করেছি, সাধারণ মানুষের কল্যাণে, বিশেষ করে রাজ্যের স্বাস্থ্যসেবার মান কীভাবে উন্নত করা যায়, এ নিয়ে। এ জন্য নিজের স্বাস্থ্যের কথা না ভেবেই দিনরাত কাজ করে গেছি। এরপরও হয়তো মুখ্যমন্ত্রীর মনে হয়েছে, তিনি যে মানের কাজ চেয়েছিলেন, তা পূরণ হয়নি। তাই, তিনি (আমার) বিভিন্ন দফতরের মন্ত্রীর পদ নিয়ে গেছেন। কারণ, মন্ত্রিসভায় মুখ্যমন্ত্রীর ইচ্ছাই শেষ কথা। মুখ্যমন্ত্রী এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ও নিজের হাতে স্বাস্থ্যসহ অন্য দফতরগুলো রেখেছেন। তিনিই হয়তো এ দফতরগুলোর বেশি উন্নতি করতে পারবেন। 

সুদীপ রায় বর্মণ ত্রিপুরার স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ দফতর ছাড়াও পানি, জনস্বাস্থ্য ও কারিগরি দফতর, বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও পরিবেশ দফতরের মন্ত্রী ছিলেন।

পরবর্তী পদক্ষেপ হিসেবে কী পরিকল্পনা নিচ্ছেন? এর উত্তরে সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ও মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের সঙ্গে দলের নীতি মেনে বিধায়ক হিসেবে দেশের উন্নয়নে কাজ করবো। এরপর কী হবে, তা সময় বলবে।

ভারতের ১৭তম লোকসভা নির্বাচনের প্রচারণায় গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব বলেছিলেন, দলের মধ্যে কিছু লোক রয়েছে, যারা দলবিরোধী কাজ করে ক্ষতি করছেন। তাদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেবে বিজেপি। আগামী দুই মাসের মধ্যে জনগণ তা জানতে পারবে। 

এ কারণে প্রশ্ন উঠছে, তবে কি মুখ্যমন্ত্রী যে পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলে ছিলেন, সে মোতাবেক সুদীপ রায় বর্মণকে মন্ত্রিসভা থেকে সরিয়ে দেওয়া হলো?

এর উত্তরে সুদীপ বলেন, আমি দলবিরোধী কাজ করলে প্রথমে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হতো, কিন্তু সেটা করা হয়নি। সবচেয়ে বড় কথা, আমি কখনো দলবিরোধী কাজ করিনি।

তবে কি ষড়যন্ত্রের শিকার? এর উত্তরে তিনি ফের বলেন, মন্ত্রিসভায় মুখ্যমন্ত্রীর সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত। এছাড়া, আমি এখনো দলের সদস্য। দল আমাকে যে দায়িত্ব দেবে, তা যথাযথভাবে পালন করবো।

আরও পড়ুন
** মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বিরোধে মন্ত্রিত্ব হারালেন সুদীপ রায়

বাংলাদেশ সময়: ২০১৪ ঘণ্টা, জুন ০১, ২০১৯
এসসিএন/একে

Nagad
বান্দরবানের রাজগুরু বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ আর নেই
রাজধানীর পথে-ঘাটে ভেজাল সুরক্ষা পণ্যের কারবার
বনানী কবরস্থানে সাহারা খাতুনের মরদেহ
নীলফামারীতে তিস্তার পানি বিপৎসীমার ৩৫ সেন্টিমিটার উপরে
ছোটপর্দায় আজকের খেলা


করোনা সম্পর্কিত নতুন রোগ বাংলাদেশেও
বরিশাল বিভাগে করোনা শনাক্ত ৩৯৪৪ জনের, মৃত্যু ৮২
শিরোপার সুবাস পাচ্ছে রিয়াল মাদ্রিদ
করোনায় বগুড়া পল্লী উন্নয়ন একাডেমির মহাপরিচালকের মৃত্যু
করোনা: চট্টগ্রামে নতুন আক্রান্ত ১৯২ জন