হাসপাতালে মারা গেছেন আবাহনীর সেই বিদেশি ফরোয়ার্ড

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

থুয়াম ফ্রাঙ্ক

walton

থুয়াম ফ্রাঙ্ক। দেশের ফুটবলের খোঁজ খবর যারা রাখেন তাদের কাছে নামটি বেশ পরিচিত। ২০১১ সালে কোটি টাকা পুরস্কারের সুপার কাপে তার নৈপুণ্যে শিরোপা জিতেছিল আবাহনী। ফাইনালে মোহামেডানের বিপক্ষে দুই গোলে পিছিয়ে পড়া আকাশী-নীল ব্রিগ্রেডদের হয়ে জোড়া গোল করে ম্যাচ টাইব্রেকারে নিয়ে যান তিনি। শ্বাসরুদ্ধকর সেই ম্যাচ অবশেষে জিতে শিরোপা উৎসব করে আবাহনী। 

কিন্তু ক্যারিয়ারে সুনামের সঙ্গে দুর্নামও কুড়িয়েছেন এই ঘানাইয়ান ফরোয়ার্ড। গত জানুয়ারিতে সাড়ে ৭ হাজার ইয়াবাসহ নিজ দেশের আরেক ফুটবলারের সঙ্গে চট্টগ্রামের বাকলিয়া থানা পুলিশের কাছে গ্রেপ্তার হন ফ্রাঙ্ক। 

কারা কর্তৃপক্ষের অধীনে থাকা অবস্থায় শুক্রবার (০১ মে) সকালে করোনার উপসর্গ নিয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন আবাহনীর সাবেক এই ফরোয়ার্ড। ফ্রাঙ্কের মৃত্যুর কারণ হিসেবে কারা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ‘সেপটিক শক’। 

গ্রেপ্তার হওয়ার পর মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় ০৪ জানুয়ারি থেকে কারাগারে ছিলেন তিনি। তবে ২৯ মার্চ থেকে শুষ্ক কাশি ও জ্বর থাকায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অবশ্য ফ্রাঙ্কের মৃত্যু করোনা ভাইরাসে হয়নি, এমনটাই দাবি জেল সুপারের। তিনি বলেন, ‘ফ্রাঙ্কের করোনা পরীক্ষার ফল নেগেটিভ এসেছে। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় তার।’ 

ফ্রাঙ্ক আবাহনী ছাড়াও বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে ফেনী সকার ও ব্রাদার্স ইউনিয়নের হয়েও খেলেছেন। দেশের ফুটবলে তাকে সর্বশেষ দেখা যায় ২০১৭/১৮ মৌসুম, ব্রাদার্সের জার্সিতে। 

বাংলাদেশ সময়: ২১৪০ ঘণ্টা, মে ০২, ২০২০
ইউবি 

মাদারীপুরে দুই গৃহবধুর মরদেহ উদ্ধার
রাতের আঁধারে বাড়ি বাড়ি খাবার নিয়ে সাংবাদিক ইদ্রিস
বগুড়ায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে যুবককে পিটিয়ে হত্যা
একা প্লেনে করে মায়ের কাছে ফিরলো পাঁচ বছরের বিহান
২০০ এতিম শিশুদের নিয়ে ঈদ উদযাপন


নজরুলজয়ন্তীতে ছায়ানটের নিবেদন
মঈনুল আহসান সাবেরের জন্ম
ইতিহাসের এই দিনে

মঈনুল আহসান সাবেরের জন্ম

চট্টগ্রামে ঈদের দিন করোনায় আক্রান্ত ১৭৯ জন
গান-আড্ডায় করোনা রোগীদের ঈদ উদযাপন ফিল্ড হাসপাতালে
প্লেন চালুর শুরুতেই ধাক্কা ভারতে, একের পর এক ফ্লাইট বাতিল