যেখানে এমবাপ্পে-নেইমারদের চেয়ে অনেক পিছিয়ে মেসি

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: সংগৃহীত

walton

ফুটবলভক্তদের অধিকাংশের মতে মেসিই বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়, তর্ক সাপেক্ষে সর্বকালের সেরা। বর্তমান যুগেও তার সমকক্ষ কেউ নেই। কিন্তু যদি ট্রান্সফার মার্কেটের প্রশ্ন আসে তাহলে হিসাবটা আলাদা। সেখানে মেসি অনেকটাই পিছিয়ে।

বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসের কারণে বন্ধ হয়ে গেছে ইউরোপের সবধরনের ফুটবল টুর্নামেন্ট। এই সুযোগে আলোচনায় চলে এসেছে ট্রান্সফার মার্কেট। আসন্ন গ্রীষ্মে যাদের নিয়ে দলগুলোর মধ্যে কাড়াকাড়ি পড়তে পারে তাদের নিয়ে এরইমধ্যে আলোচনা শুরু হয়ে গেছে।

ট্রান্সফার মার্কেটের বাজারে মেসির নাম আসার সম্ভাবনা যদিও কম, কিন্তু বার্সার সঙ্গে তার নতুন চুক্তি হওয়ার আগ পর্যন্ত কিছুই নিশ্চিত নয়। কিন্তু 'ট্রান্সফার মার্কেট'র তালিকা অনুযায়ী,  বর্তমান বাজারমূল্য অনুসারে মেসির স্থান আটে।

১০. আতোঁয়া গ্রিজম্যান (বার্সেলোনা): ১২০ মিলিয়ন ইউরো

গত মৌসুমে অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদ থেকে এই দামেই ফরাসি ফরোয়ার্ডকে কিনেছিল বার্সা। তার দামের কোনো হেরফের হয়নি।

০৯. জাদোন সানচো (বরুশিয়া ডর্টমুন্ড): ১২০ মিলিয়ন ইউরো

বর্তমান বিশ্বের অন্যতম প্রতিভাবান ফুটবলার এই ডর্টমুন্ড উইঙ্গার। ম্যানচেস্টার সিটি ছেড়ে জার্মান ক্লাবের সঙ্গে দুটি অসাধারণ মৌসুম কাটিয়েছেন তিনি। ইংলিশ তারকাকে বেচে মোটা অঙ্কের টাকাই কামাবে ডর্টমুন্ড।

০৮. লিওনেল মেসি (বার্সেলোনা): ১৪০ মিলিয়ন ইউরো

এখনও বার্সা অধিনায়কের রিলিজ ক্লজ ৭০০ মিলিয়ন ইউরো। তবে আসন্ন গ্রীষ্মে তিনি 'ফ্রি' হতে যাচ্ছেন। তখন তার বাজারমূল্য হতে পারে ১৪০ মিলিয়ন ইউরো। যদিও আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ডের ক্যাম্প ন্যু ছাড়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।

০৭. কেভিন দে ব্রুইন (ম্যানচেস্টার সিটি): ১৫০ মিলিয়ন ইউরো

ম্যানচেস্টার সিটিতে পেপ গার্দিওলার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অস্ত্র। ইংলিশ জায়ান্টরা যদি চ্যাম্পিয়নস লিগের নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তি না পায়, তাহলে ডাচ তারকার আগামী গ্রীষ্মে নতুন কোনো ক্লাবে পাড়ি জমানোর সম্ভাবনা প্রবল।

০৬. হ্যারি কেন (টটেনহাম): ১৫০ মিলিয়ন ইউরো

গত পাঁচ বছরের মধ্যে বিশ্বের অন্যতম ভয়ঙ্কর ও কার্যকর স্ট্রাইকার এই টটেনহামের ইংলিশ তারকা। তাকে নিয়ে এরইমধ্যে শীর্ষ সব ইলিংশ আর স্প্যানিশ ক্লাবের মধ্যে তুমুল আগ্রহ লক্ষ্য করা গেছে।

০৫. মোহামেদ সালাহ (লিভারপুল): ১৫০ মিলিয়ন ইউরো

লিভারপুলের মিশরীয় ফরোয়ার্ডের বাজারমূল্যও হ্যারি কেনের সমান। তবে লিভারপুল চ্যাম্পিয়নস লিগ থেকে আগেভাগে বিদায় নেওয়ায় তার মূল্য কমতেও পারে।

০৪. সাদিও মানে (লিভারপুল): ১৫০ মিলিয়ন ইউরো

লিভারপুলে কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপের অধীনে দুর্দান্ত ফর্মে আছেন সাদিও মানে। এবার মৌসুম শেষের অনেক আগেই ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শিরোপার ঘ্রাণ পাচ্ছে 'অল রেডস'রা। ফলে তার মূল্য আরও বাড়তে পারে।

০৩. নেইমার জুনিয়র (পিএসজি): ১৬০ মিলিয়ন ইউরো

শীর্ষ তিনে জায়গা পেলেও নেইমারের মূল্য অনেকটাই কমে গেছে। ২০১৭ সালে তাকে কিনতে ২২২ মিলিয়ন ইউরো খরচ করেছিল বার্সা। আর বর্তমানে তার বাজারমূল্য ১৬০ মিলিয়ন ইউরো। যদিও বার্সা, রিয়ালের মতো ক্লাব তাকে পেতে আরও বেশি অর্থ খরচ করতে পারে।

০২. রহীম স্টার্লিং (ম্যানচেস্টার সিটি): ১৬০ মিলিয়ন ইউরো

ইংলিশ উইঙ্গারের বাজারমূল্য নেইমারের সমান। তবে তার মূল্য এত বেশি হলেও ফর্ম বিবেচনায় ঠিকই আছে। তাছাড়া দুই বছর ইউরোপীয় নিষেধাজ্ঞার কারণে ম্যানচেস্টার সিটিও হয়তো আর তাকে ধরে রাখতে পারবে না।

০১. কিলিয়ান এমবাপ্পে (পিএসজি): ২০০ মিলিয়ন ইউরো

বাকি সবাইকে বড় ব্যবধানে পেছনে ফেলে তালিকার শীর্ষে আছেন ফ্রান্সের 'গোল্ডেন বয়'। মাত্র ২১ বছর বয়সেই তিনি বিশ্বকাপ জিতেছেন এবং ফরাসি লিগ ওয়ানের সবচেয়ে বড় তারকাও এখন তিনি। তাকে পেতে তাই গ্রীষ্মে মোটা অঙ্কের অর্থই খসাতে হবে দলগুলোকে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৩৫ ঘণ্টা, মার্চ ১৯, ২০২০
এমএইচএম

টুঙ্গিপাড়ায় ২ করোনা রোগী শনাক্ত, ৬ বাড়ি লকডাউন
তিতাসে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত
করোনাকালীন কর্মস্থলে অনুপস্থিত: ফেঁসে যাচ্ছেন ১১ কর্মকর্তা
স্বাস্থ্যকর্মীদের থাকার জন্য হোটেল ছেড়ে দিলেন সোনু সুদ
চাল আত্মসাতের অভিযোগে ইউপি সদস্যসহ ২ জনের কারাদণ্ড


লক্ষ্মীপুরে অর্ধেক দামে পণ্য বিক্রি করছে যুবলীগ
৭৭ বছরে চলে গেলেন সাবেক প্রোটিয়া স্পিনার জ্যাকি
করোনা চিকিৎসায় প্রস্তুত ৬ বেসরকারি হাসপাতাল
পটুয়াখালী‌তে প্রথম ক‌রোনা আক্রান্ত যুবকের মৃত্যু
মহরম হোসাইনের ওপর হামলায় নিন্দা বিএফইউজে’র