সুযোগ পেলে টাইগারদের কোচ হতে চান সুজন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সুযোগ পেলে টাইগারদের কোচ হতে চান সুজন

walton

চট্টগ্রাম: বাংলাদেশ দলের বোলিং কোচের দায়িত্ব নিয়ে চলতি বছরের ২০ আগস্ট ঢাকায় এসেছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার খেলোয়াড় চার্লস ল্যাঙ্গেভেল্ট। এরই মধ্যে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড, বিসিবিতে পাঠিয়েছেন ইস্তফাপত্র। বিসিবিও তাকে অব্যাহতি দিয়েছে।

এমন অবেলায় বোলিং কোচের বিদায়ে ক্রিকেট পাড়ায় চলছে গুঞ্জন। কে হবেন বাংলাদেশের পরবর্তী বোলিং কোচ? এ নিয়ে কথা বললেন খুলনা টাইগার্সের টিম ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ সুজন।

বুধবার (১৮ ডিসেম্বর) সকালে এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে খুলনার অনুশীলনে খালেদ মাহমুদ সুজন বাংলাদেশ দলের বোলিং কোচ হতে আগ্রহ প্রকাশ করেন।

বোলিং কোচের পদ শূন্য, সেখানে দায়িত্ব দিলে গ্রহণ করবেন কিনা এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, ‘সুযোগ পেলে সবাই কাজ করতে আগ্রহী।  এর আগেও দু'বার বাংলাদেশের হেড কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছি।যদিও সেগুলো দীর্ঘ মেয়াদি ছিল না। নির্দিষ্ট একটি সময়ের জন্য। যখন রেজাল্ট খারাপ হয় বা বাদ পড়ে যাই তখন খারাপ লাগে। এর আগেও বলেছি দীর্ঘ মেয়াদি হলে ভালো হয়। তাছাড়া এক এক জন কোচের ভাবনা-চিন্তা এক এক রকম। ওই ভাবনা-চিন্তা গুলো নিয়ে কাজ করতে গেলে একটু সময় লাগে। তাছাড়া আমাদের গ্রহণযোগ্যতা ছেলেদের কাছে কতটুকু তা জানতে হবে।’

বিসিবির সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেছেন, লোকাল কোচরা টেকনিক্যালি অভিজ্ঞ নন। এ ব্যাপারে একমত কিনা জানতে চাইলে সুজন বলেন, ‘উনি কেন একথা বলেছেন তা আমি জানি না। ক্রিকেট একটি টেকনিক্যাল খেলা। একটি কাভার ড্রাইভ বা স্কয়ার ড্রাইভ যখন মারবে তখন একই টেকনিক ব্যবহার করতে হবে। এটা হতে পারে উনি বুঝাতে চেয়েছেন কাগজে কলমে আমরা একটু পিছিয়ে আছে সেটা। আমরা টেকনিক্যালি পিছিয়ে নেই। আমরা শুধু সুযোগ পাচ্ছি না। একজন কোচকে তো একটা সিরিজ দিয়ে যাচাই করা যাবে না।’

এ সময় তিনি খুলনা টাইগার্সের পারফর্মেন্স সম্পর্কে বলেন, ‘কাগজে-কলমে খুলনা অনেক ভালো একটা দল। আমার দলে বেশ কয়েকজন ম্যাচ উইনার রয়েছে। হয়তো বড় কোনো না নাম নেই। মুশফিকের একটা ব্রিলিয়ান্ট নক ছিল। উইকেটটা ভালো ছিল এটা একটা বড় ব্যাপার (আগের ম্যাচের ব্যাপারে)। আমাদের আস্থা ছিল আমরা যদি ভালো ক্রিকেট খেলি তাহলে জিততে পারব। কাগজে-কলমে আমরা তেমন শক্তিশালী নই।’

এদিকে বুধবার (১৮ ডিসেম্বর) চট্টগ্রামের জহুর আহমদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে দিনের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে রংপুর রেঞ্জার্স এবং কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স। টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন রংপুর অধিনায়ক মোহাম্মদ নবী। নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৮১ রান করে রংপুর।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৪৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৮, ২০১৯
এমএস/এমআরপি/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ক্রিকেট
বেনাপোলে প্রায় আড়াই মাস আটকা ১৯ ভারতীয় ট্রাকচালক
মোরা ত্রাণ চাই না, বেড়ি চাই
রবীন্দ্র সরোবর যেন সবুজের গালিচা
ফলন ভালো হলেও বিক্রি নিয়ে দুশ্চিন্তায় পাহাড়ের কৃষক
করোনায় মারা গেলেন প্রথম কোনো ফুটবলার


শ্বাসকষ্ট নিয়ে চবি শিক্ষকের মৃত্যু
প্রথম ইউরোপীয় দেশ হিসেবে ‘করোনামুক্ত’ মন্টেনিগ্রো
উল্লাপাড়ায় ঘুড়ি কেনাবেচা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত এক
ইডিইউতে হারমনি অব আর্টস আজ ও কাল
বিশ্ব তামাকমুক্ত দিবস রোববার