php glass

ফাইনালে ওঠার পরও নির্ভার নয় চট্টগ্রাম আবাহনী

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সংবাদ সম্মেলন। ছবি: সোহেল সরওয়ার

walton

ভারতের ডুরান্ড কাপ চ্যাম্পিয়ন শ্রী গোকুলাম কেরালা এফসি’র বিপক্ষে বাঁচা-মরার সেমিফাইনালে দুই দুইবার পিছিয়ে পড়েও ভেঙে পড়েনি চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড। শেষ বাঁশি বাজার আগে সমতায় ফেরার পর উল্টো অতিরিক্ত সময়ে গোল করে ৩-২ ব্যবধানের জয় নিয়ে শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপের ফাইনালের টিকেট কাটে জামাল ভূঁইয়ারা।

২৯ মিনিটে চট্টগ্রামের এম এ আজিজ স্টেডিয়ামের কানায় কানায় ভরা দর্শকের চিৎকার নিমিষে চুপ করে দিয়ে কেরালাকে এগিয়ে দেন হেনরি কিসেক্কা। দ্বিতীয়ার্ধের প্রথম মিনিটেই চট্টগ্রাম আবাহনীকে সমতায় ফেরান চার্লস দিদিয়ের। ৮০ মিনিটে পুনরায় কেরালাকে এগিয়ে দেন তাদের অধিনায়ক মার্কাস জোসেফ। ৯০ মিনিটে আবারও স্বাগতিকদের স্বস্তির সমতায় ফেরান দিদিয়ের। এরপর অতিরিক্ত সময়ে গড়ায় ম্যাচ। ১০৫ মিনিটে ঘরের সমর্থকদের উদযাপনের রাত উপহার দেন মিডফিল্ডার চিনেদু ম্যাথিউ। বাকি সময় এই ব্যবধান ধরে রেখে ফাইনাল নিশ্চিত করে কোচ মারুফুল হকের দল।

এমন এক কঠিন ম্যাচ জিতে ফাইনালে যেতে পারায় স্বাভাবিকভাবে আনন্দিত কোচ মারুফুল হক। ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে তিনি এলেন জোড়া গোল করে ম্যাচ সেরা চার্লস দিদিয়েরকে নিয়ে। কামব্যাকের গল্প লিখে দলকে ফাইনালে তোলার কৃতিত্বটা কোচ মারুফ দিলেন শিষ্যদের। তিনি বলেন, ‘প্রথমে আমি কৃতজ্ঞতা জানাই মহান আল্লাহ তায়ালার কাছে। আমাদের প্রাথমিক লক্ষ্য যেটা ছিল, আমরা শিরোপা পুনরুদ্ধার করবো এবং সেখানে আমাদের ফার্স্ট ফোকাস ছিল সেমিফাইনাল এবং তাতে আমরা জয়ী হয়েছি। এখানে যদি ধন্যবাদ জানাতে হয় তাহলে আমার খেলোয়াড়দের ধন্যবাদ দেবো। আমাদের উন্নয়নের গ্রাফটা প্রতি ম্যাচে ১০ শতাংশ করে উন্নত হচ্ছে।’

আরও পড়ুন>> নাটকীয় ম্যাচে কেরালাকে হারিয়ে ফাইনালে চট্টগ্রাম আবাহনী

তবে ফাইনালে ওঠার পরও নির্ভার নন চট্টগ্রাম আবাহনী কোচ। কারণ এখনো শিরোপা হাতে ধরা দেয়নি তাদের। যার কারণে আপাতত পা মাটিতেই রাখছেন কোচ মারুফ। তিনি বলেন ‘আমি এখনো নির্ভার নয়। কারণ আমাকে ফাইনাল খেলতে হবে। ট্রফি পুনরুদ্ধার করতে হবে। যেটা আমাদের প্রধান লক্ষ্য।’

পুরো ম্যাচে দুর্দান্ত খেললেও অতিরিক্ত সময়ের দ্বিতীয়ার্ধে খোঁড়াতে খোঁড়াতে মাঠ ছাড়েন অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া। বাংলাদেশ অধিনায়ক মেজর কোনো চোট পেয়েছেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে কোচ মারুফ বলেন, ‘জামালের একটু ইনজুরি ছিল। তবে তা সিরিয়াস কিছু না। ওর বৃদ্ধাঙ্গুলে হালকা একটু ব্যথা পেয়েছে।’

অন্যদিকে ফাইনালে খেলার স্বপ্ন বিসর্জন দিলেও পুরো টুর্নামেন্ট অসাধারণ ফুটবল উপহার দিয়েছে গোকুলাম কেরালা। ‘বি’ গ্রুপে দুই জয় ও এক ড্রয়ে রানার্স আপ হয়ে শেষ চারে ওঠেছিল তারা। সেমিতে খেলেছিলও দুর্দান্ত। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পেরে ফাইনালে ওঠা হলো না তাদের। তবে এমন একটি টুর্নামেন্টে অংশ নিতে পেরে বেশ খুশি কেরালা কোচ ফার্নান্দো আন্দ্রেস সান্তিয়াগো। তিনি বলেন, ‘খুব চমৎকার টুর্নামেন্ট এটি। আমরা এখানে খেলতে পেরে আনন্দিত।’

হারলেও অবশ্য প্রতিপক্ষ চট্টগ্রাম আবাহনীর শক্তিমত্তা স্বীকার করে নিতে পিছ পা হননি কেরালার স্প্যানিশ কোচ। তিনি বলেন, ‘চট্টগ্রাম আবাহনী খুব শক্তিশালী দল। তারা ভালো খেলেছে আজ। জয় নিয়ে ফাইনালে ওঠেছে। আমি খুশি আমার খেলোয়াড়দের নিয়ে। তারা নিজেদের প্রমাণ করতে পেরেছে।’

বন্দর নগরের ক্লাব চট্টগ্রাম আবাহনী ফাইনালে কাকে পাচ্ছে তা নির্ধারিত হবে মঙ্গলবার (২৯ অক্টোবর)। দ্বিতীয় সেমিতে মুখোমুখি হবে কলকাতার মোহনবাগান ও মালেয়শিয়ার তেরেঙ্গানু। শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচ হবে বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) সন্ধ্যা ৬টায় চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে।

বাংলাদেশ সময়: ০১৩০ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৯, ২০১৯
এইচএডি/

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ফুটবল
কোম্পানীগঞ্জে ধানক্ষেত থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার
সিগন্যাল না দেখার অজুহাত তূর্ণার সহকারী চালকের
কুবিতে ভর্তির সাক্ষাৎকার শুরু ২৪ নভেম্বর
গোল্ডেন ফুট অ্যাওয়ার্ড জিতলেন মদ্রিচ
শীত আসছে ড্রাই শ্যাম্পুর রেসিপিটা মনে আছে তো!


১০ বছরে ২ হাজার রেল দুর্ঘটনা, মৃত্যু ২৬৩ জনের   
নির্বাচনের আগে পরপর ২ বার সাইবার হামলায় লেবার পার্টি
১৬ জন নিহত হওয়ার ঘটনায় অপমৃত্যু মামলা
সঙ্গীর জন্য ২ পেঙ্গুইনের মারামারি
মহানবী (সা.)-এর প্রিয় ফল জয়তুন