php glass

বাজে হারে মৌসুম শেষ করল রিয়াল মাদ্রিদ

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

গোল হজমের পর হতাশ রিয়াল তারকা বেনজেমা ও মদরিচ-সংগৃহীত

walton

প্রবাদে আছে, ‘শেষ ভাল যার, সব ভাল তার।’ কিন্তু শেষটাও রাঙানো হলো না রিয়াল মাদ্রিদের। পুরো মৌসুমে নিজেদের ছায়া হয়ে থাকা লস ব্লাঙ্কোসরা ২০১৮-১৯ মৌসুম শেষ করেছে হার দিয়ে। ঘরের মাঠ সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে জিনেদিন জিদানের দল ২-০ গোলে হেরেছে রিয়াল বেটিসের বিপক্ষে। 

জানুয়ারিতে বেটিসের মাঠ থেকে ২-১ ব্যবধানের জয় নিয়ে ফেরে রিয়াল। কিন্তু এবার ঘরের মাঠেই ধুঁকতে হলো বেনজেমা-মদরিচদের। 

শুরু থেকে রিয়ালকে চেপে ধরে খেলতে থাকে বেটিস। রিয়ালের দুর্বল আক্রমণগুলো ঠেকাতে বেগ পেতে হয়নি তাদের। ২৫ মিনিটে ভিনিসিয়াস জুনিয়রের পাস থেকে লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নেন মার্সেলো। 

এর তিন মিনিট পরই রিয়ালের রক্ষণভাগে ভয় ধরিয়ে দেন সাবেক বার্সেলোনার বেটিস সেন্টার ব্যাক মার্ক বার্ত্রা। সেই শট দারুণভাবে ক্রসবারের উপরে পাঠিয়ে দেন কেইলর নাভাস। ৩৫ মিনিটে আর্জেন্টাইন তারকা জিওভানি লো সেলসো সুযোগ পান বেটিসকে এগিয়ে দেওয়ার। এবার রিয়ালের ত্রানকর্তা নাভাস। 

কিন্তু কোস্টারিকান গোলরক্ষক শেষ রক্ষা করতে পারেননি। বিরতির পর বিপর্যস্ত রিয়াল গোল হজম করে বসে ৬১ মিনিটে। সতীর্থ আন্দ্রেস গুয়ার্দাদোর পাস থেকে ক্ষিপ্র গতির শটে রিয়ালের জালে বল জড়িয়ে দেন স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড লোরেন মোরন। পিছিয়ে পড়ে জিজুর শিষ্যরা ঘুরে দাঁড়াতে চেষ্টা করে। 

কিন্তু শুরু থেকে দুর্বল ফুটবল খেলতে থাকা রিয়ালকে কোন সুযোগই দেয়নি বেটিসের রক্ষণভাগ। ৬৮ মিনিটে নাভাসের দক্ষতায় আবার পরিত্রাণ পায় তারা। লো সেলসোর শট দারুণভাবে রুখে দেন তিনি। গোল শোধে মরিয়া রিয়াল ৭১ মিনিটে ভালভার্দেকে তুলে ইস্কোকে নামালেও সমতায় ফিরতে পারেনি। উল্টো ৭৫ মিনিটে বেটিসের ব্যবধান দ্বিগুণ করে দেন স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড হেসে। 

শেষদিকে মার্কো আসানসিওকে নামিয়ে আক্রমণের ধার বাড়ায় রিয়াল। কিন্তু ততক্ষণে ম্যাচ মুঠো ফসকে বেরিয়ে গেছে তাদের। প্রতিশোধ তুলে মাঠ ছাড়ে বেটিস। 
জিদানের একাদশে যথারীতি ছিলেন না গ্যারেথ বেল। ওয়েলস উইঙ্গারের সান্তিয়াগো বার্নাব্যু অধ্যায় যে ইতি ঘটতে চলেছে তা আগেই ইঙ্গিত দিয়েছিলেন ফরাসি কোচ। অবশ্য একাদশে সুযোগ পেয়ে নিজেকে আবার প্রমাণ করেছেন নাভাস। কোস্টারিকান তারকাও বার্নাব্যু ছাড়তে পারেন, এমন গুঞ্জন উঠেছে ইউরোপ ফুটবল দুনিয়ায়।

লা লিগায় রিয়ালের এটি টানা দ্বিতীয় পরাজয়। অবশেষে মৌসুমটা খালি হাতেই শেষ করতে হলো রেকর্ড গত তিন আসরের চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ীদের। ৩৮ ম্যাচ ৬৮ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তৃতীয় স্থানে থেকে ২০১৮-১৯ মৌসুম শেষ করেছে রিয়াল। মৌসুমে তারা জয় পেয়েছে ২১ ম্যাচে। পরাজয় ১২ ম্যাচ, ফল হয়নি ৫ ম্যাচ। 

রিয়ালের চেয়ে ৮ পয়েন্ট বেশি নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে থেকে মৌসুম শেষ করেছে নগর প্রতিদ্বন্দ্বী অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। চারে থাকা ভ্যালেন্সিয়ার পয়েন্ট ৬১। আগেই শিরোপা নিশ্চিত করে ফেলা বার্সেলোনার পয়েন্ট ৮৬। কাতালানরা মৌসুমের শেষ ম্যাচ খেলবে শনিবার (১৯ মে) এইবারের বিপক্ষে। 

বাংলাদেশ সময়: ১৮৩৫ ঘন্টা, মে ১৯, ২০১৯ 
ইউবি/এমকেএম

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ফুটবল
বিলুপ্তির পথে ‘আটিয়া কলা’
‘ক্যারিবীয়দের শর্ট বল মোকাবিলা করতে প্রস্তুত বাংলাদেশ’
ব্রিজ না থাকায় দুর্ভোগে ১০ গ্রামের ৫ হাজার মানুষ 
মাউন্ট কানামো চূড়ায় চার তরুণ
রাতের চরফ্যাশন যেন নৈসর্গিক সৌন্দর্য!


রোববার মধ্যরাতে পঞ্চম ধাপের উপজেলা ভোটের প্রচার শেষ
সুয়ারেজ-কাভানিদের গোলে ইকুয়েডরকে বিধ্বস্ত করলো উরুগুয়ে
বাইরের কথায় নয়, নিজেদের পর্যবেক্ষণে জোর মাশরাফির
রোমানের হাত ধরে বিশ্ব আর্চারিতে প্রথম পদক বাংলাদেশের
প্রেমের টানে ঘর ছেড়ে পুলিশি হেফাজতে তরুণী