বাংলাদেশ নাম্বার ওয়ান হবে: আইসিসি চেয়ারম্যান

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আইসিসি’র চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর ক্রিকেট বোর্ডের সংবর্ধনা। ছবি: বাংলানিউজ

বিশ্ব ক্রিকেটে বাংলাদেশ এখন এক পরাশক্তির নাম। ১৯৯৭ সালে আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জয়ের মধ্য দিয়ে শুরু হয় বাংলাদেশ ক্রিকেটের নতুন এক অধ্যায়। এরপর নানা বাধা পেরিয়ে ক্রিকেট বিশ্বে বাংলাদেশের নাম ছড়িয়ে পড়েছে ব্যাপক হারে। এখন  ভারত, পাকিন্তান, অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ডের মতো দলগুলোকে ভাবতে হয় বাংলাদেশের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে। দিনে দিনে আরোও পরিণত হচ্ছে বাংলাদেশের ক্রিকেট।

তবে এক জায়গাতে পিছিয়ে আছে লাল সবুজের দলটি। আর তা হলো ধারাবাহিকতা। বাংলাদেশের পারফমেন্সের সঙ্গে যখন ‘ধারাবাহিক’ শব্দটি যুক্ত হবে সেদিন যে বাংলাদেশ বিশ্বের সেরা দল হবে তাতে কোনো সন্দেহ নেই। বাংলাদেশে সফররত আইসিসি’র চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর তাই মনে করেন।
 
বৃহস্পতিবার (০৭ ফেব্রুয়ারি) রাতে রাজধানীর একটি হোটেলে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের দেওয়া সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আইসিসি চেয়ারম্যান এসব কথা বলেন।
 
শশাঙ্ক মনোহর বলেন, ‘বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুলের নেতৃত্বে বাংলাদেশের ক্রিকেট সঠিক পথেই এগোচ্ছে। পুরো বিশ্ব এটা জানে। ভারত, পাকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া ইংল্যান্ডকে হারিয়ে তারা সেটা প্রমাণও করেছে। শুধুমাত্র ধারাবাহিকতার অভাব। আর একবার যদি বাংলাদেশ ধারাবাহিক হতে পারে তবে বাংলাদেশই হবে বিশ্বের সেরা দল।’
 
এর আগে দুইবার বাংলাদেশে এসেছিলেন শশাঙ্ক মনোহর।  ২০১০ সালে যখন বাংলাদেশে বিশ্বকাপ আয়োজনের কথা চলছিল তখন। এরপর ২০১১ সালে বিশ্বকাপের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান দেখতে। তখন তিনি ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রধানের দায়িত্বে ছিলেন।
 
৮ বছর পর আবার বাংলাদেশে এসে মনোহর বলেন, ‘শেষবার ২০১১ সালে বাংলাদেশে এসেছিলাম। দীর্ঘ সময় পর বাংলাদেশে এসে আমি অবাক হয়েছি। এই ৮ বছরে ঢাকার অনেক উন্নতি হয়েছে যা চোখে পড়ার মতো।’
 
এ সময় মনোহর অলিম্পিকে ক্রিকেটের অর্ন্তভুক্তি নিয়েও কথা বলেন। তিনি জানান ‘নানা সমস্যার কারণে অলিম্পিকে ক্রিকেট অন্তভুক্ত করা যাচ্ছে না। অলিম্পিক আয়োজিত হয় ১৫ দিনের জন্য। এই অল্প দিনের মধ্যে ক্রিকেটের মতো বৈশ্বিক খেলার আয়োজন করা কি সম্ভব আপনারাই বলুন? তাছাড়া অলিম্পিক শুধু ক্রিকেট খেলুড়ে দেশের মধ্যে আয়োজিত হয় না। কমপক্ষে চারটি ক্রিকেট স্টেডিয়াম তো লাগবেই। এটাও একটা বড় সমস্যা।’
 
এসময় আইসিসি চেয়ারম্যান আরও  জানান, ‘ক্রিকেটকে সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দিতে ইউরোপ, আমেরিকা অঞ্চলে দেশ নিয়ে কাজ করছে আইসিসি। যাতে করে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটটাকে বেশি করে ছড়িয়ে দেওয়া। আর টেস্ট ক্রিকেট বাঁচিয়ে রাখতে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু করা জরুরি যাতে করে টেস্ট ক্রিকেটকে আরও আকর্ষণীয় করা যায়। আমরা এ বিষয় নিয়ে বোর্ড ডিরেক্টরদের সাথে আলোচনা করবো।’
 
শুক্রবার (০৮ ফেব্রুয়ারি) বিপিএলের ফাইনাল দেখে ৯ ফেব্রুয়ারি (শনিবার) ঢাকা ছাড়বেন আইসিসি চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর।
 
বাংলাদেশ সময়: ০১৩০ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০১৯
 আরএআর/আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ক্রিকেট খেলা
চ্যাম্পিয়ন্স লিগে অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদ ও ম্যানসিটির জয়
শ্রদ্ধাভরে ভাষাশহীদদের স্মরণ করছে জাতি
অগ্নিনির্বাপণ-উদ্ধারকাজে বিমান বাহিনী
জাবিতে ভাষাশহীদদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি
জব্বারের রক্তে উত্তাল ময়মনসিংহ


ফেব্রুয়ারি এলেই কদর বাড়ে সালাম নগরের!
প্রাপ্য সম্মান চায় ভাষাশহীদ জব্বারের পরিবার
চকবাজারের ভয়াবহ আগুন কেড়ে নিলো ৫১ প্রাণ
আগুন বেশি ছড়িয়েছে কারখানার দাহ্য পদার্থের কারণে 
সিলেটে শহীদ বেদিতে লাখো জনতার শ্রদ্ধা