নির্বাচন নিয়ে কিছুই জানেন না সাকিব!

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সাকিব আল হাসান

ঢাকা: গেল ২৯ মে একনেক সভাশেষে পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল সংবাদ মাধ্যমের সামনে বলেছিলেন, বাংলাদেশের ক্রিকেটের দুই আইকন মাশরাফি বিন মুর্তজা ও সাকিব আল হাসান আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন।

তার এ বক্তব্যের পরই দেশের সংবাদমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আলোচনার ঝড় ওঠে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অনেকেই বিষয়টিকে সাধুবাদ জানিয়েছেন। অনেকেই করেছেন তীব্র সমালোচনা।

যদিও মুস্তফা কামাল পরে তার কথা ফিরিয়ে নেন। কিন্তু ততক্ষণে যা হবার হয়ে গেছে! দেশের মানুষ ধারণা করছেন জনপ্রতিনিধি হওয়ার আশা কিছুটা হলেও এ দুই ক্রিকেটারের আছে।
নাজমুল হাসান পাপনহয়তো আছে। কিন্তু থাকলেও তাদের কারোর আশার প্রতিফলন এখনই ঘটা সম্ভব নয়। মাশরাফিতো সেই কবেই বলেছেন, যা হওয়ার ২০১৯ সালের পরে হবে।

আর সাকিব নাকি এ বিষয়ে কিছুই জানেন না। তাই এ বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমের সামনে মুখ খোলার প্রয়োজনই মনে করেননি তিনি।

তবে বুধবার (৬ জুন) বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন সাকিবের নির্বাচন প্রসঙ্গে কথা বলেছেন। তার মতে যদি তিনি (সাকিব) সংসদ নির্বাচন করেনও সেটা এখনই নয়। আগামী তিন চার বছর পরে। আপাতত তিনি খেলায় মনোযোগ দিচ্ছেন।

আমি তাকে জিজ্ঞেস করেছিলাম রাজনীতির ব্যাপার নিয়ে। সে আমাকে বলেছে, এ ব্যাপারে কিছুই জানি না। তার জন্য এটা কঠিন, কারণ সে আরো অন্তত তিন-চার বছর খেলবে জাতীয় দলে। সেদিক থেকে তার সম্ভাবনা কম, যোগ করেন বিসিবি সভাপতি।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩১ ঘণ্টা, ৬ জুন ২০১৮
এইচএল/এমজেএফ

সব দলের অংশগ্রহণে গণতন্ত্র সুসংহত হবে
আথিয়ার ক্যারিয়ারের দায়িত্ব সালমানের!
নির্বাচনী প্রচারণামূলক পোস্টার-বিলবোর্ডমুক্ত খুলনা
হবিগঞ্জে বাসচাপায় স্কুলছাত্র নিহত
কিউই ক্রিকেটারকে রমিজ রাজার এ কেমন প্রশ্ন
অবৈধ ভিওআইপি: টেলিটকের ৭৭৫৯০ সিম বন্ধ করেছে বিটিআরসি
এনএফজেড টেরি টেক্সটাইলকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা 
মহাজোটের সঙ্গে আলোচনা চলছে: মাহী
খুবির ভর্তি পরীক্ষার ‘বি’ ইউনিটের ফল প্রকাশ
নয়াপল্টনের সংঘর্ষে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থার নির্দেশ