php glass

মাঠে আর্জেন্টিনা-জার্মানির কৌশল

1372 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: সংগৃহীত

walton
২৮ বছর পর আর্জেন্টিনা এবং ২৪ বছর পর জার্মানি শিরোপা পুনরুদ্ধারে রোববার রিও ডি জেনিরোর মারাকানায় মুখোমুখি হচ্ছে।

ঢাকা: ২৮ বছর পর আর্জেন্টিনা এবং ২৪ বছর পর জার্মানি শিরোপা পুনরুদ্ধারে রোববার রিও ডি জেনিরোর মারাকানায় মুখোমুখি হচ্ছে।

দীর্ঘদিনের শিরোপা খরা কাটাতে দুই দলই মরিয়া। জার্মানিকে হারিয়ে মেসি চান ম্যারাডোনার পর দেশকে শিরোপা এনে দিতে।

অন্যদিকে, ফিলিপ লামের আশা বার বার অল্পের জন্য মিস হওয়া ট্রফিটার নাগাল পেতে।

উত্তেজনার পারদ ঠাসা এ ম্যাচকে ঘিরে ‍আর্জেন্টাইন কোচ আলেসান্দ্রো সাবেলা ও জার্মান কোচ জোয়াকিম লো ভাণ্ডারে জমা রেখেছেন একাধিক তাস। প্রয়োজনমতো মোক্ষম তাস চেলে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে নিতে জমা রেখেছেন আরও নানা তুঁকতাক।

সাবেলা ও লোর মনের কৌশল জানার উপায় নেই। তবে কি হতে পারে আর্জেন্টিনা-জার্মানি ম্যাচের বাহ্যিক কৌশল তা জেনে নেওয়া যাক:

লাইন আপ:
দুই কোচই দল সাজাবেন ৪-৩-৩ ফরমেশনে। এতে করে দুই দলের চিরায়ত কাউন্টার অ্যাটাকের সমান সুযোগ থাকছে।

তবে চোটের কারণে ‍মারিয়া এ ম্যাচ শেষ পর্যন্ত নামতে না পারলে ওই ফরমেশনেই মেসির জন্য যথেষ্ট জায়গা রাখা হবে। যেন তিনি সহজেই মাঝমাঠ থেকে আক্রমণ পর্যন্ত সমান সামাল দিতে পারেন।

তবে এদিন ক্লোসার বদলে শুরুতেই মাঠে নামানো হতে পারে মারিও গোটজে বা আন্দ্রে স্যুরোলকে।

কাউন্ডার অ্যাটাক:
চিয়ায়ত বৈশিষ্ট্য অনুযায়ী লো আজও সুযোগ মতো কাউন্টার অ্যাটাকের পক্ষে। তবে মাঝমাঠে সামি খেদিরা ও টনি ক্রুজের উপস্থিতিও বহাল থাকবে।

অপরদিকে, আর্জেন্টিনাকে দেখা যেতে পারে নান্দনিক ছোট ছোটে পাসে বলের দখল রেখে মূহুর্মূহু আক্রমণ শাণাতে।

মেসিকে সহায়তাকারী:
মারিয়ার খেলার তেমন সম্ভাবনা না থাক‍ায় মেসিকে বলে সহায়তা করতে সাবেলা কাকে রাখবেন সেটিও অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।

মারিয়ার বিকল্প ‍না হলেও মাঝ মাঠ দখল রাখতে ও মেসিকে যথেষ্ট স্বাধীনতা দিয়ে বলের যোগান দিতে দেখা যেতে পারে লাভেজ্জি বা পেরেসকে।

মেসিকে থামাতে জার্মান কৌশল:
কয়েকজন দিয়ে বাঁধার প্রাচীর তুলেও মেসিকে থামাতে পারছে না কেউ। প্রায় প্রতিটি ম্যাচে অপ্রতিরোধ্য মেসিকে থামাতে কি অস্ত্র তাক করবেন লো তা নিয়েও চলছে জোর কল্পনা।

এক্ষেত্রে জার্মানদের ভরসার নাম মিডফিল্ডের সামি খেদিরা ও বাস্তিন সোয়াইনস্টাইগার। তারা মেসিকে কতটা খোলসবন্দী করে রাখতে পারেন তার ওপরই জার্মানদের ভাগ্য ‍অনেকটা নির্ভরশীল।

একই ধারার আক্রমণ:
দুই দলের আক্রমণ ধার একই রকম হলেও দেখার বিষয় একই ফরমেশন থেকে কোন দলটা কতটা সুবিধা নিতে পারে। তবে খেদিরা, সোয়াইনস্টাইগার ও ক্রুজ মাঝমাঠে থাকায় বেশি সুবিধা পেতে পারে জার্মানি।

গোলকিপার:
ম্যানুয়েল ন্যুয়ার জার্মানদের গোলবার আগলে থাকবেন বলে কঠিন পরীক্ষায় পড়তে হতে পারে মেসি-হিগুয়েনদের।

অপরদিকে, দুই দুইটি পেনাল্টি ফিরিয়ে দিয়ে আর্জেন্টিনাকে ফাইনালে নিয়ে আসার নায়ক সার্জিও রোমেরো আর্জেন্টাইন গোলবার সামলাবেন আত্মবিশ্বাস নিয়ে।

ডিফেন্স:
মেসি-হিগুয়েনদের রুখে দিতে ডিফেন্সে পরীক্ষিত সৈন্যদের রাখবেন লো। এক্ষেত্রে জার্মান অধিনায়ক ফিলিপ লামের সঙ্গে দুর্গ রক্ষায় থাকতে পারেন ম্যাটস হামেলস ও মার্সেল জ্যানসেনরা।

অপরদিকে, সাবেলার রক্ষণদুর্গ পাহারার মূল ভূমিকায় শুরু থেকেই রোহো, দেমিচিলিস, জাবেলেতারা থাকছেন।  তবে একটু ওপরে থাকবেন দলের অন্যতম নেতা মাশচেরানো।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৪৫ ঘণ্টা, জুলাই ১৩, ২০১৪

নাগরিকত্ব বিল প্রত্যাহার চান অরুন্ধতীসহ বিশিষ্টজনরা
তারকাদের ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট উদ্বোধন করলেন তথ্য সচিব
‘অজয় রায় আমাদের জন্য লাইট হাউস’
বিপিএলের পারিশ্রমিক নিয়ে মুখ খুললেন মুশফিক
উল্লাপাড়ায় ট্রাকচাপায় স্কুলছাত্রের মৃত্যু


মাদককে দেশ ছাড়া করবো: আইজিপি
চট্টগ্রামের এক মামলায় শামসুজ্জামান দুদুর জামিন
জাতীয় দলে ভালো খেলতে ‘স্বাধীনতা’ প্রয়োজন: ইমরুল
বিটিসিএলের সব স্কুলের প্রাথমিক শাখা হবে ডিজিটাল
আমদানি-রপ্তানির মাধ্যমে অর্থ পাচার হয় ৮০ শতাংশ