php glass

অভিষেক উইকেট পেলেন তাসকিন

421 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টফোর.কম

walton
নিজের চতুর্থ ওভারে ম্যাক্সওয়েলকে ব্যক্তিগত ৫ রানে বোল্ড আউট করে অভিষেকে উইকেট তুলে নিলেন তাসকিন আহমেদ।

মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়াম থেকে: নিজের চতুর্থ ওভারে ম্যাক্সওয়েলকে ব্যক্তিগত ৫ রানে বোল্ড আউট করে অভিষেকে উইকেট তুলে নিলেন তাসকিন আহমেদ।

দ্বিতীয় ইনিংসের শুরু থেকেই বাংলাদেশি বোলারদের ওপর চড়াও হন দুই অসি ওপেনার অ্যারন ফিঞ্চ ও ডেভিড ওয়ার্নার। ওয়ার্নার বঞ্চিত হলেও অর্ধশতক করেছেন ফিঞ্চ।

১৬.২ ওভার শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৩ উইকেটে ১৪৭ রান।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করে অসিদের ১৫৪ রানের টার্গেট দেয় টাইগাররা।

প্রথম ৪ ওভারে দুই ওপেনার আনামুল ও তামিমকে হারিয়ে কিছুটা ধাক্কা খায় স্বাগতিকরা। তবে তিন ও চার নম্বরে ব্যাট করতে নেমে দলীয় স্কোর সম্মানজনক স্থানে নিয়ে নিয়ে যান সাকিব ও মুশফিক।

অসিদের বিপক্ষে প্রথম ও টি-টোয়েন্টিতে চতুর্থ অর্ধশতক হাঁকানো সাকিব আল হাসান করেছেন সর্বোচ্চ ৬৬ রান।

এছাড়া ৩ রানের জন্য অর্ধশতক বঞ্চিত অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম করেছেন দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪৭ রান। নাসির করেছেন ১৪ রান।

২০ ওভার শেষে বাংলাদেশ দলের সংগ্রহ ৫ উইকেটে ১৫৫ রান। অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে সর্বোচ্চ ২ উইকেট নিয়েছেন কউল্টার নাইল। বোলিঞ্জার, ওয়াটসন ও স্টার্ক নিয়েছেন একটি করে উইকেট।

এর আগে টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। শুরুতে অধিনায়কের সিদ্ধান্তের সঠিক জবাব দিতে ব্যর্থ হন দুই ওপেনার। তবে তৃতীয় নম্বরে ব্যাট করতে নেমে সাকিব যখন অসি বোলারদের উপর চড়াও হন সঙ্গী হন মুশফিকও।

পাওয়ার প্লে’র ৬ ওভারে বাংলাদেশ ২ উইকেট হারিয়ে ৩২ রান সংগ্রহ করে।

দলীয় ৪ রানে স্লিপে ক্যাচ আউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন আনামুল হক। এরপর দলীয় ১২ রানে ফেরেন তামিম। সাকিব ও মুশফিকের ১১২ রানের জুটি যখন ভাঙে তখন দলীয় স্কোর ১২৪। এছাড়া বাংলাদেশ দলের আউট হওয়া অপর ব্যাটসম্যান সাকিব, দলীয় স্কোর ১৩৩।

বাংলাদেশ ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যকার মঙ্গলবারের ম্যাচের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশের পক্ষে ৪৩তম টি-টোয়েন্টি খেলোয়াড় হিসেবে অভিষেক হচ্ছে তাসকিন আহমেদের।

বাংলাদেশ দলে তিনটি পরিবর্তন আনা হয়েছে। দলে ঢুকেছেন বাঁহাতি স্পিনার সোহাগ গাজী, বাঁহাতি ব্যাটসম্যান মমিনুল হক ও মাশরাফির জায়গায় অভিষেক হওয়া ডানহাতি সিমার তাসকিন আহমেদ।

সুপার টেনে ভারত, পাকিস্তান এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে সবগুলো ম্যাচেই বাংলাদেশ ও অস্ট্রেলিয়া হেরেছিল।

অসি এবং টাইগাররা এর আগে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে দু’বার মুখোমুখি হয়েছিল। দু’টিতেই হেরেছিল টাইগাররা। ২০০৭ সালে কেপটাউনে ৯ উইকেটে  এবং ২০১০ সালে বারবাডোজে ২৭ রানে অসিদের বিপক্ষে হারে।

বাংলাদেশ স্কোয়াড: মুশফিকুর রহিম, আব্দুর রাজ্জাক, আল আমিন হোসেন, আনামুল হক, মাহমুদুল্লাহ, মমিনুল হক, নাসির হোসেন, সাকিব আল হাসান, সোহাগ গাজী, তামিম ইকবাল ও তাসকিন আহমেদ।

অস্ট্রেলিয়া স্কোয়াড: জর্জ বেইলি, ডগ বোলিঞ্জার, কোল্টার, ক্রিশ্চিয়ান, ফিঞ্চ, হাডিন, ম্যাক্সওয়েল, মিচেল স্টার্ক, ওয়ার্নার, ওয়াটসন ও হোয়াইট।

 

** ওয়ার্নারকে ফেরালেন আল আমিন
** বোলারদের ওপর চড়াও দুই অসি ওপেনার

 

বাংলাদেশ সময়: ১৫০৩ ঘণ্টা,  এপ্রিল ০১, ২০১৪/আপডেট: ১৮২৮ ঘণ্টা

গুজবে বিভ্রান্ত না হতে বিসিসি মেয়রের আহ্বান
চমেক হাসপাতালের আগুন নিয়ন্ত্রণে
বর্ষাহীন কলকাতায় ক্যালেন্ডারেই আষাঢ়-শ্রাবণ
উঠছে সাগরে মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা, কর্মচঞ্চল জেলেপাড়া 
এডিবির অর্থেই ঢাকা-সিলেট চারলেন, বাদ চীনা কোম্পানি


 চাঁদপুরে আখের বাম্পার ফলনে কৃষকের মুখে হাসি
ভোলা-লক্ষ্মীপুর রুটে ২ ফেরি বিকল, যানজট-ভোগান্তি চরমে
নেশা করতে নিষেধ করায় স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা
এবার ‘ছেলেধরা’ সন্দেহে বগুড়ায় ৪ যুবককে গণপিটুনি
ময়মনসিংহে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় পুলিশ কর্মকর্তা নিহত