এ বছরই ত্রিপুরা দিয়ে আসছে বিদ্যুৎ

972 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton
ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের পালাটানা বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে বাংলাদেশে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে নতুন বছরেই। বাংলাদেশের ক্রমবর্ধমান বিদ্যুতের চাহিদা পূরণ করার লক্ষ্যে কুমিল্লা দিয়ে বাংলাদেশে এ বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে বলে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ লিমিটেড (পিজিসিবি) সূত্রে জানা গেছে।

ঢাকা: ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের পালাটানা বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে বাংলাদেশে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে নতুন বছরেই। বাংলাদেশের ক্রমবর্ধমান বিদ্যুতের চাহিদা পূরণ করার লক্ষ্যে কুমিল্লা দিয়ে বাংলাদেশে এ বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে বলে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ লিমিটেড (পিজিসিবি) সূত্রে জানা গেছে।

পিজিসিবি সূত্র জানায়, ‘ত্রিপুরা(ভারত)-কুমিল্লা(দক্ষিণ) উপকেন্দ্র গ্রিড আন্তঃসংযোগ প্রকল্প’-এর আওতায় ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে। এতে মোট ব্যয় ধরা হয়েছে প্রায় ১৯০ কোটি টাক। এর মধ্যে জিওবি’র টাকা প্রায় ১৭৩ কোটি এবং সংস্থার নিজস্ব অর্থায়ন ১৭ কোটি টাকা। প্রকল্পটি চলতি বছরের ডিসেম্বর নাগাদ বাস্তবায়ন করবে পিজিসিবি। এর ফলে এ বছরের মধ্যেই ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আসবে বাংলাদেশে।

বৃহস্পতিবার (১ জানুয়ারি) পরিকল্পনা কমিশনে প্রকল্প মূল্যায়ন কমিটির (পিইসি) সভায় অনুমোদনের জন্য প্রকল্পটি ওঠানো হয়েছে। সভা এর অনুমোদন দিয়েছে। এর পরে চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য প্রকল্পটি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) বৈঠকে যাবে।

নানা কারণে প্রকল্পটি হাতে নেওয়া হচ্ছে বলে পিজিসিবি সূত্রে জানা গেছে। সূত্র জানায়, দেশের অন্যান্য অংশের মতো পূর্বাঞ্চলেও বিদ্যুতের চাহিদা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। এই ক্রমবর্ধনমান চাহিদা পূরণের জন্যই ভারত থেকে দ্রুততম সময়ের মধ্যে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করা হবে।

পিজিসিবি আরো জানায়, বিদ্যুৎ খাতে যৌথ সহযোগিতার জন্য বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পালাটানা থেকে বাংলাদেশের পূর্বাঞ্চলে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করার লক্ষ্যে সীমানার উভয় পাশে সিস্টেমের কারিগরি প্রয়োজনীয়তা যাচাইয়ের জন্য যৌথ কারিগরি কমিটি(জেটিসি)গঠন করা হয়েছে।

ভারতও বিদ্যুৎ সঞ্চালনের বিষয়ে একমত পোষণ করেছে বলে জানায় পিজিসিবি।

ভারত থেকে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আমদানি করার লক্ষ্যে কিছু অবকাঠামোর কাজও করা হবে। ত্রিপুরা থেকে কুমিল্লা উপকেন্দ্র পর্যন্ত ২৭ কিলোমিটার ৪০০ কেভি দ্বৈত সার্কিট সঞ্চালন লাইন নির্মাণ করা হবে। এছাড়া কুমিল্লা উত্তর থেকে দক্ষিণ পর্যন্ত ১৬ কিলোমিটার ১৩২ কেভি দ্বৈত সার্কিট সঞ্চালন লাইন নির্মাণ করা হবে। এছাড়া, বিদ্যমান কুমিল্লা দক্ষিণ উপকেন্দ্র আরো সম্প্রসারণ করা হবে।

পিজিসিবি সূত্র জানায়, ২০১৪-১৫ অর্থবছরে প্রকল্পটি এডিপিতে অন্তর্ভূক্ত নেই। তবে প্রকল্পটি প্রক্রিয়াকরণের জন্য পরিকল্পনামন্ত্রী আহম মুস্তফা কামালের সম্মতি নেওয়া হয়েছে।

প্রকল্প প্রসঙ্গে পরিকল্পনামন্ত্রী বাংলানিউজকে বলেন, দেশের অন্যান্য অংশের মতো পূর্বাঞ্চলেও বিদ্যুতের চাহিদা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। ভারত থেকে আমদানি করা বিদ্যুৎ দৈনন্দিন কাজে ব্যবহার করা হবে। এর ফলে দেশে উৎপাদিত বিদ্যুৎ আমাদের শিল্প কারখানায় সরবরাহ করা হবে। আমরা এখনও আমাদের চাহিদা অনুযায়ী বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে পারি না। আমাদের দেশে জাপান শিল্প কারখানা তৈরি করতে চায়। কিন্তু প্রয়োজনীয় বিদ্যুতের অভাব রয়েছে। তবে সরকার অনেকাংশে বিদ্যুতের চাহিদা পূরণ করতে সক্ষম হয়েছে।

প্রকল্পের ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট প্রপোজালে(ডিপিপি) কিছু গুরুত্বপূর্ণ ব্যয় উল্লেখ করা হয়েছে। প্রতি কিলোমিটার ৪০০ কেভি দ্বৈত সার্কিট সঞ্চালন লাইন নির্মাণ বাবদ ব্যয় ধরা হয়েছে ২ কোটি ৬৩ লাখ টাকা। প্রতি কিলোমিটার ১৩২ কেভি দ্বৈত সার্কিট সঞ্চালন লাইন নির্মাণ বাবদ ব্যয় ধরা হয়েছে ৯১ লাখ টাকা।

কুমিল্লা উত্তর থেকে ত্রিপুরা বর্ডার পর্যন্ত ৪০০ কেভি ট্রান্সমিশন লাইন নির্মাণের মালামাল এবং স্থাপন বাবদ ব্যয় ধরা হয়েছে ৬৮ কোটি ৩৬ লাখ টাকা। কুমিল্লা উত্তর থেকে দক্ষিণ পর্যন্ত ১৬ কিলোমিটার ১৩২ কেভি দ্বৈত সার্কিট সঞ্চালন লাইন নির্মাণের মালামাল ও স্থাপন ব্যয় ধরা হয়েছে ১৪ কোটি ৫৬ লাখ। 

প্রস্তাবিত প্রকল্পে চারটি জিপ ক্রয় বাবদ ব্যয় ধরা হয়েছে এক কোটি ২৩ লাখ টাকা। প্রস্তাবিত প্রকল্পে ৩০ থেকে ৪০ শতাংশ হারে সিডি ভ্যাট বাবদ রাখা হয়েছে ৩৪ কোটি টাকা। নানা কারণে প্রকল্পের আওতায় ক্ষতিপূরণ বাবদ ডিপিপিতে প্রায় দেড় কোটি টাকা উল্লেখ করা হয়েছে।

** ভারত থেকে আরো ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ আসছে

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ০১, ২০১৫

Nagad
বরিশাল বিভাগে করোনা শনাক্ত ৩৯৪৪ জনের, মৃত্যু ৮২
শিরোপার সুবাস পাচ্ছে রিয়াল মাদ্রিদ
করোনায় বগুড়া পল্লী উন্নয়ন একাডেমির মহাপরিচালকের মৃত্যু
করোনা: চট্টগ্রামে নতুন আক্রান্ত ১৯২ জন
সংকটে প্রকাশনা শিল্প, করোনায় ক্ষতি ৪শ’ কোটি


লালমনিরহাটে চাষ হচ্ছে ড্রাগন ফল
এরশাদ ট্রাস্টের চেয়ারম্যানের ইন্তেকাল
দেবে গেছে ২০০% বাড়তি ব্যয়ে নির্মিত রেলপথের কুশন ব্যালাস্ট
ঢেলে সাজানো হবে জাতীয় জাদুঘর
যশোরে রাসেল হত্যা মামলায় আরও দুই আসামি গ্রেফতার