ঢাকা, শুক্রবার, ২০ ফাল্গুন ১৪২৭, ০৫ মার্চ ২০২১, ২০ রজব ১৪৪২

রাজনীতি

গোপালগঞ্জের মানুষের কোনো অভাব থাকবে না: শেখ সেলিম

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৩৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৩, ২০২১
গোপালগঞ্জের মানুষের কোনো অভাব থাকবে না: শেখ সেলিম ছবি: বাংলানিউজ

গোপালগঞ্জ: আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম এমপি বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যার পর গোপালগঞ্জের মানুষের সঙ্গে বিমাতাসুলভ আচরণ করা হয়েছিল। তাই ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর এ জেলার উন্নয়নে একটা মাস্টার প্লান তৈরি করি।

সেই প্লান অনুযায়ী গোপালগঞ্জের উন্নয়নমূলক কাজ করা হয়েছে। এ জেলায় এমন কোনো রাস্তা বা ব্রিজ নেই যা নির্মাণ করা হয়নি। এখন গোপালগঞ্জের মানুষের কোনো অভাব থাকবে না।  

শনিবার (২৩ জানুয়ারি) দুপুরে গোপালগঞ্জের মধুমতি নদীর উপর ব্রিজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে ভিডিও কনফারেন্সের (ভার্চ্যুয়াল) মাধ্যমে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, প্রায় ১০০ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিতব্য এ ব্রিজটির জন্য গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা ও নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার অন্তত ২০ গ্রামের মানুষের মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরি হবে। এসব গ্রামের মানুষের যাতায়াত ও অর্থনৈতিক উন্নতি হবে। ব্যবসা-বাণিজ্য সম্প্রসারিত হবে।

শেখ সেলিম আরও বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষণা দিয়েছিলেন, আমাদের দেশে কোনো গৃহহীন থাকবে না। শনিবার প্রধানমন্ত্রী গৃহহীনদের মধ্যে জমিসহ ঘর বিতরণ করেছেন।  

প্রত্যেকটা মানুষকে বঙ্গবন্ধুর মতো ত্যাগের আদর্শ নিয়ে বাঁচতে হবে উল্লেখ করে শেখ সেলিম বলেন, বাংলাদেশে আর কোনো গরীব মানুষ থাকবে না। ২০৪০ সালের মধ্যে আমরা উন্নত দেশ হবো।

গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ লুৎফার রহমান বাচ্চুর সভাপতিত্বে চরঘাঘা এলাকায় এ ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যের মধ্যে নির্মাণাধীন ব্রিজ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক (পিডি) মঞ্জুরুল আলম সিদ্দিকী, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শেখ রুহুল আমীন, গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌর মেয়র কাজী লিয়াকত আলী লেকু, সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম মিটু, স্থানীয় সরকার প্রকৗশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) নির্বাহী প্রকৌশলী এহসানুল হক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রাশেদুল রহমান খান, শহর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম নজরুল ইসলাম, জালালাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান এম সুপারুল আলম প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

এলজিইডি ‘পল্লী সড়কে গুরুত্বপূর্ণ সেতু নির্মাণ প্রকল্প’ এর আওতায় ৯৭ কোটি ৩০ লাখ টাকা ব্যয়ে গোপালগঞ্জ সদর উপজেলাধীন গোপীনাথপুর-ঘাঘাধলাইতলা সড়কের মধুমতি নদীর উপর ৭৮৮ দশমিক ৯০ মিটার দীর্ঘ পিএসসি গার্ডার ব্রিজ নির্মাণ করছে।
   
বাংলাদেশ সময়: ১৮৩২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৩, ২০২১
এসআরএস 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa