‘ফখরুলের বক্তব্য একজন ব্যর্থ রাজনীতিকের অসংলগ্ন সংলাপ’

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

যৌথসভায় বক্তব্য রাখছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। ছবি: বাংলানিউজ

walton

ঢাকা: বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্য একজন ব্যর্থ রাজনীতিকের অসংলগ্ন সংলাপ বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

আন্দোলন এবং নির্বাচনে ব্যর্থ হওয়ার পর বিএনপি এখন বিদেশিদের কাছে নালিশ করা ছাড়া আর কোনো অবলম্বন নেই বলেও মন্তব্য করেন কাদের।

তিনি বলেন, বিএনপি আন্দোলনে ব্যর্থ হয়েছে। নির্বাচনেও চরমভাবে ব্যর্থ হয়েছে। এখন বিদেশিদের কাছে নালিশ করা ছাড়া তাদের আর কি অবলম্বন আছে। বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্য একজন ব্যর্থ রাজনীতিকের অসংলগ্ন সংলাপ।

শনিবার (০৫ জানুয়ারি) সকালে আওয়ামী লীগের সম্পাদকমল্ডলী এবং সহযোগী সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে অনুষ্ঠিত যৌথসভার শুরুতে দেওয়া সূচনা বক্তব্যের সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে এ মন্তব্য করেন ওবায়দুল কাদের।

বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এ যৌথসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, বিগত ১০ বছরে বিএনপি কোনো আন্দোলন করতে পারেনি। সেখানে তারা ব্যর্থ হয়েছে। বিএনপি নির্বাচনে অংশ নিয়েছিলো, এজন্য ধন্যবাদ জানাই। আন্দোলনে ব্যর্থ হওয়ার পর নির্বাচনেও চরমভাবে ব্যর্থ হয়েছে। নালিশ করা বিএনপির পুরনো অভ্যাস। তারা দেশবাসীর কাছে নালিশ করেছে, কোনো সাড়া পায়নি। এখন বিদেশিদের কাছে নালিশ করছে।

আওয়ামী লীগের এ যৌথসভার শুরুতে দলের সদ্য প্রয়াত সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানানো এবং শোক প্রকাশ করা হয়। এ সময় দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

সৈয়দ আশরাফের স্মৃতিচারণ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম ছিলেন একজন সৎ, পরিচ্ছন্ন, সফল রাজনীতিক। তিনি তার সততা, যোগ্যতা, দক্ষতা ও মেধা দিয়ে তা প্রমাণ করেছেন। এর মধ্য দিয়ে তিনি আওয়ামী লীগের বাইরেও অন্য রাজনৈতিক দল ও শ্রেণী-পেশার সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে স্থান করে নিয়েছিলেন। 

এ সময় সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের মরদেহ শহীদ মিনারে নেওয়া সংক্রান্ত সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে ওবায়দুল কাদের বলেন, তিনি দীর্ঘদিন দুরারোগ্য রোগে ভুগছিলেন। তার শারীরিক অবস্থা খুবই খারাপ ছিলো। দেশে আসার পর তার মরদেহ জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় নেওয়া হবে। এছাড়া কিশোরগঞ্জ ও ময়মনসিংহে নেওয়া হবে। এরপর আরও অন্য জায়গায় নেওয়া হবে। সেভাবেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

গত ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিপুল ভোটের ব্যাবধানে আওয়ামী লীগ নিরঙ্কুশ বিজয় লাভ করে। এই বিজয় উদযাপনের জন্য আগামী ১৯ জানুয়ারি ঢাকায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহাসমাবেশ করবে আওয়ামী লীগ। মহাসমাবেশের প্রস্তুতি নিতেই এ যৌথসভা অনুষ্ঠিত হয়। 

যৌথসভায় আওয়ামী লীগের সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য, ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহযোগী সংগঠনগুলোর সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকসহ ঢাকার আসনগুলো থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। 

বাংলাদেশ সময়: ১৩১৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৫, ২০১৯ 
এসকে/জেডএস

করোনা আক্রান্তের খবর শুনে পালালেন গৃহবধূ, বাড়ি লকডাউন
মৌলভীবাজারের পাশের হার বিভাগ থেকে এগিয়ে
বিআরটিএ’র ব্যয় বিশ্লেষণ কমিটি পুনর্গঠনের দাবি সিসিএস'র
চিলমারীতে ব্রহ্মপুত্র নদে ডুবে নিখোঁজ শিশুর মরদেহ উদ্ধার
চালু হচ্ছে সৈয়দপুর বিমানবন্দরও


দু’মাস পর ব্যস্ত নগরী রাঙামাটি
বরিশাল বোর্ডে অকৃতকার্য ২২ হাজার পরীক্ষার্থী
নওগাঁয় ট্রাক্টরের ধাক্কায় শিশুর মৃত্যু 
শেবাচিমে করোনা উপসর্গ নিয়ে আরও ২ জনের মৃত্যু
চাঁদপুরে করোনা উপসর্গ নিয়ে ৬ ঘণ্টায় ৩ জনের মৃত্যু