php glass

শতাব্দীর সেরা আহাম্মক!

অফবিট ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

১৫ ফুট লম্বা ও ৭শ’ কেজি ওজনের এই কুমিরটি মাছ ধরে তার ৫৫তম জন্মদিন পালন করছে।

walton

ঢাকা: কুমিরের জন্য পেতে রাখা ফাঁদে ঢুকে ‘শতাব্দীর আহাম্মক’ খেতাব পেলেন চার অস্ট্রেলিয়ান। নর্দার্ন কুইন্সল্যান্ডের পোর্ট ডগলাসের কাছে মাত্র সপ্তাহ দুই আগেই এক বৃদ্ধাকে গিলে খেয়েছিলো এক কুমির। এরকমই এক ফাঁদ পেতে ধরার পর আস্ত মানুষই পাওয়া যায় প্রায় ১৪ ফুট লম্বা ওই কুমিরের পেটে।

কিন্তু ওই কুমিরটাকে ধরার পরও আরো অনেক কুমিরের বিচরণ দেখা যাচ্ছিলো সেখানকার নদী ও সাগরের জলে। নোনা জলের এসব হিংস্র কুমির প্রায় ২২ ফুট পর্যন্ত লম্বা হয়ে থাকে। ওজন হয় ১ টনেরও বেশী। বছরে গড়ে ২ জন করে মানুষ খায় এরা। ১৯৭০ সালে সংরক্ষিত প্রাণী ঘোষণার পর এ প্রজাতিরকুমিরের খাঁচায়। কুমিরের সংখ্যা এখন অনেক বেড়েছে।

স্থানীয় কর্তৃপক্ষ তাই ফাঁদ পেতে রাখে কুমিরগুলোকে ধরতে। সোমবার (২৩ অক্টোবর) ওরকমই এক পেতে রাখা ফাঁদ ঘিরে কিছু সময় সাঁতরায় ওই চার অস্ট্রেলিয়ান। এক পর্যায়ে পেতে রাখা ফাঁদের ভেতরই ঢুকে পড়ে। ছবির জন্য পোঁজ দেয়।

তাদের এমন হঠকারী সাঁতারের ছবি ফেসবুক ও ট্যুইটারে ছড়িয়ে পড়লে শতাব্দীর আহাম্মদ খেতাব জোটে কপালে। কেউ কেউ বলতে শুরু করেন, তাদের আহাম্মকি আগের সব ধরনের আহাম্মকির নজির ছাড়িয়ে গেছে।

স্থানীয় শহর ডগলাস শায়ার এর মেয়র জুলিয়া লিউ বলেন, তাদের আহাম্মকিতে আমি স্তব্ধ। তারা বিপদজনক আচরণ করেছে। তারা বছরের সেরা বা শতাব্দীর সেরা আহাম্মকের খেতাব জিতলেও অবাক হবো না।

কুইন্সল্যান্ডের পরিবেশ মন্ত্রী স্টিভেন মাইলস এক টুইটার বার্তায় বলেন, আমরা কুমিরের জন্য ওই ফাঁদ পেতেছিলাম। সেটাতে সাঁতরানো আহাম্মকি ও অবৈধ। এসব ফাঁদে প্রবেশ করলে ১৫ হাজার অস্ট্রেলিয়ান ডলার (১১,৭০০ মার্কিন ডলার) জরিমানার বিধান রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৩০ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৪, ২০১৭
জেডএম/  

ফেনী ইউনিভার্সিটিতে সাহিত্যে বিষয়ক কর্মশালা
‘ভারতের প্রধান বিচারপতিকে মোদীর চিঠি লেখার খবর মিথ্যা’
মিরপুরে বাসের ধাক্কায় নারীর মৃত্যু
দেশের সব নাগরিককে স্বাস্থ্য বীমার আওতায় আনা হবে
ফিলিস্তিনিদের আকুতি কী কানে যাচ্ছে মেসি-সুয়ারেসদের?


পশ্চিমাঞ্চল রেলের টেন্ডার নিয়ে সংঘর্ষে আহত রাসেলের মৃত্যু 
যাত্রাবাড়ীতে বাস কাড়লো শিশুর প্রাণ
ট্রেন দুর্ঘটনার দশ কারণ খতিয়ে দেখছে তদন্ত কমিটি
প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের ফিড মিল লাইসেন্স অনলাইনে
লতা মঙ্গেশকরের শারীরিক অবস্থার উন্নতি