ঢাকা, শনিবার, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪২

জাতীয়

দুঃখ প্রকাশ করে বিজ্ঞপ্তি প্রত্যাহার করলেন জনস্বাস্থ্য পরিচালক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১২৪ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৯, ২০২০
দুঃখ প্রকাশ করে বিজ্ঞপ্তি প্রত্যাহার করলেন জনস্বাস্থ্য পরিচালক ডা. মুহাম্মদ আবদুর রহিম

ঢাকা: জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটে কর্মরত নারীদের হিজাব এবং পুরুষদের টাকনুর ওপরে পোশাক পরার যে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছিল, তা প্রত্যাহার করা হয়েছে।  

দুঃখ প্রকাশ করে বিজ্ঞপ্তিটি প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক ডা. মুহাম্মদ আবদুর রহিম।

 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, আমি এ নির্দেশনাটি সবার জন্য দিইনি। শুধু মুসলিম নারী-পুরুষের জন্য দিয়েছিলাম।

তিনি বলেন, ধর্ম একটা ব্যক্তিগত বিষয়, এটা চাপিয়ে দেওয়া নয়। এটা তার জ্ঞানগর্ভে একটু নাড়া দেওয়া। মুসলমানরা জানেন, টাকনুর নিচে কাপড় পড়লে কী হয়। এটা তো আমি ফেসবুকে দেই নাই, এটা আমি দিয়েছি আমার ইন্সটিটিউটে আমার স্টাফরা যাতে কবীরা গুনাহ থেকে বাঁচে। গত কয়েকদিন ধরে ধর্ষণের ঘটনা বিভিন্ন প্রচারমাধ্যমে দেখে আমি খুবই বিস্মিত। ধর্ষণে কবীরা গুনাহ হয়। আমি চিন্তা করলাম, আমাদের জন্য কত সহজ যে আমরা কবীরা গুনাহ এড়িয়ে যেতে পারি। টাকনুর নিচে পুরুষ কাপড় পরবে, আর মহিলারা টাকনুর নিচে কাপড় পড়বে।

শোকজের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, আমি মন্ত্রণালয়কে ভেবেচিন্তে জবাব দেব। মন্ত্রণালয়ের চিঠিটা তো আমাকে ভেবেচিন্তে লিখতে হবে। আমাকে ডিজি স্যার বলেছেন, তুমি যে চিঠি দিয়েছো তা বাতিল করো- তখনই আমি তা বাতিল করি। আমি এজন্য গোটা জাতির কাছে দুঃখিত ও আন্তরিকভাবে ক্ষমা প্রার্থনা করছি, ভবিষ্যতে এরকম ভুল আর হবে না-এই প্রতিজ্ঞাও করেছি।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২১ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৯, ২০২০
নিউজ ডেস্ক

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa