ঢাকা, শুক্রবার, ৭ কার্তিক ১৪২৭, ২৩ অক্টোবর ২০২০, ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

জাতীয়

নালিতাবাড়ীতে পুকুর থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪২৪ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২০
নালিতাবাড়ীতে পুকুর থেকে যুবকের মরদেহ উদ্ধার মিজানের মরদেহ, ছবি: বাংলানিউজ

শেরপুর: শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে নিখোঁজ হওয়ার দু’দিন পর মো. মিজানুর রহমান (১৮) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি নালিতাবাড়ী উপজেলার খলাভাঙ্গা এলাকার ঈসমাইল হোসেনের ছেলে।

শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টার দিকে উপজেলার মরিচপুরান ইউনিয়নের খলাভাঙ্গা মকবুল হোসেন নিম্নমাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পুকুর থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।  

স্থানীয় লোকজন ও পুলিশ জানায়, গত বুধবার দিনগত রাত সাড়ে ৯টার দিকে মিজান তার তিন বন্ধু স্থানীয় আব্দুল গফুরের ছেলে রাসেল মিয়া, ফুলমামুদের ছেলে জাহাঙ্গীর আলম ও আব্দুল মোতালেবের ছেলে রাসেলের সঙ্গে ওই বিদ্যালয়ের বারান্দায় বসে আড্ডা দিচ্ছিলেন। এরপর থেকে মিজানকে আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। অনেক খোঁজাখুঁজির পর শুক্রবার সকালে পুকুরে তার মরদেহ ভেসে ওঠে। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শেরপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।  

এদিকে, নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বশির আহমেদ বাংলানিউজকে জানান, পরে মিজানের ওই তিন বন্ধু জানান যে ওই রাতে মিজান বিভিন্ন ঘুমের ওষুধ সেবন করে নেশা করেছিলেন। তাদের তথ্য অনুযায়ী পুলিশ ওই বিদ্যালয়ে গেলে বারান্দায় ট্রিপটিনসহ কয়েকটি ঘুমের ওষুধের খালি পাতা ও ফেক্সোফেনাডিন ১০০ মিলির একটি খালি বোতল উদ্ধার করেছে। মরদেহে কোনো আঘাতের চিহৃ পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে, অতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ সেবন করে নেশাগ্রস্ত অবস্থায় প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে পুকুরপাড়ে গিয়ে পানিতে পড়ে তার মৃত্যু হয়েছে। তবে এছাড়া তার মৃত্যুর অন্য কোনো কারণ রয়েছে কি না খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পেলে তার মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য জানা যাবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪২২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২০
এসআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa