খুলনায় কোয়ারেন্টিনে ১৭২৬, আইসোলেশনে ৫

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

প্রতীকী ছবি

walton

খুলনা: খুলনায় এখন পর্যন্ত বিদেশফেরত ১ হাজার ৭২৬ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে।

এছাড়া করোনা আক্রান্ত সন্দেহে ৫ জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ (খুমেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। অন্যদিকে কোয়ারেন্টিনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে ১১৯ জনকে। 

শুক্রবার (২৭ মার্চ) সকাল ১০টায় খুলনা সিভিল সার্জনের দপ্তর থেকে এ তথ্য জানানো হয়।

কোয়ারেন্টিনে যাদের রাখা হয়েছে তারা সম্প্রতি ভারত, সৌদি আরব, সিঙ্গাপুর, ইতালি, কোরিয়াসহ বিভিন্ন দেশ থেকে ফিরেছেন।

সিভিল সার্জন ডা. সুজাত আহমেদ জানান, বিদেশফেরত ব্যক্তিদের নিজ নিজ বাড়িতে থাকতে কঠোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। চিকিৎসক দিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখা গেছে, তারা করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত নন। তারপরও অন্তত ১৪ দিন তাদের বাড়ির বাইরে যেতে নিষেধ করা হয়েছে।

‘এছাড়াও যাদের শরীরে জ্বর, সর্দি-কাশি রয়েছে তাদেরকে আক্রান্ত সন্দেহে খুমেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে।’

হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা প্রবাসীদের মধ্যে রয়েছেন খুলনার দাকোপে ৯৫ জন, বটিয়াঘাটায় ৮৬ জন, রূপসায় ১০৬ জন, তেরখাদায় ৩২ জন, দিঘলিয়ায় ৫২ জন, ফুলতলায় ৬১ জন, ডুমুরিয়ায় ৭৮ জন, পাইকগাছায় ১২২ জন, কয়রায় ২০৬ জন, খুলনা মহানগরীর ৮৮৮ জন।

অন্যদিকে ছাড়পত্র পেয়েছেন দাকোপের ১৫ জন, বটিয়াঘাটায় ১১ জন, রূপসায় ১১ জন, পাইকগাছায় ৩২ জন, কয়রায় ৩৫ জন, দিঘলিয়ার ৬ জন, তেরখাদার ৪ জন ও খুলনা মহানগরীর ৫ জন।

বাংলাদেশ সময়: ১১২৯ ঘণ্টা, মার্চ ২৭, ২০২০
এমআরএম/এইচজে

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: করোনা ভাইরাস
প্লেন খুলে দেওয়ার তাগিদ দিচ্ছে যুক্তরাজ্য: মোমেন
কোয়ারেন্টিন শেষে সিরাজগঞ্জে ৫০২ জনকে ছাড়পত্র
বাবা বলতেন, শরীরের সঙ্গে লেগে থাকা টাইট পোশাক না পরতে
পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত খেলাধুলা স্থগিত
গুজব রটানো হলে আইনগত ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন: সিভিল সার্জন


করোনা যুদ্ধে হাসপাতালে ১ মিলিয়ন ইউরো দান করলেন জাভি
মধুপুরে ওষুধের কাটন থেকে নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার
‘সাধারণ রোগীর চিকিৎসা না দিলে লাইসেন্স বাতিল’
ট্রাক-অটোরিকশার সংঘর্ষে দুই গার্মেন্টসকর্মী নিহত
সৈয়দপুরে কিং ব্র্যান্ড সিমেন্টের ত্রাণ বিতরণ