ঢাকা, রবিবার, ৫ আশ্বিন ১৪২৭, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০১ সফর ১৪৪২

জাতীয়

ট্রাফিক বিভাগে হুমকি, লালমনিরহাট রেলভবনে নিরাপত্তা জোরদার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২২০৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৭, ২০১৯
ট্রাফিক বিভাগে হুমকি, লালমনিরহাট রেলভবনে নিরাপত্তা জোরদার

লালমনিরহাট: রেলওয়ের লালমনিরহাট বিভাগীয় ট্রাফিক বিভাগকে হুমকি দেওয়ায় রেলভবনের নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। 

রোববার (১৭ নভেম্বর) বিকেলে  বিভাগীয় ট্রাফিক সুপারিনটেনডেন্ট (ডিটিএস) স্নেহাশীষ দাশগুপ্ত বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

ডিটিএস স্নেহাশীষ দাশগুপ্ত বাংলানিউজকে বলেন, ১২ নভেম্বর ঢাকাগামী ‘রংপুর এক্সপ্রেস’ ট্রেনের পরিচালকের দায়িত্বে ছিলেন গার্ড আরিফুল ইসলাম রাজু।

কিন্তু ওই ট্রেনে রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের পরিদর্শনে তার অনুপস্থিতি পান। এ কারণে ওইদিন দায়িত্ব অবহেলার দায়ে পরিচালক আরিফুলকে বরখাস্ত করেন রেলওয়ের ট্রাফিক বিভাগ। ইতোপূর্বেও এমনভাবে দায়িত্ব অবহেলার অভিযোগে তাকে ৫/৬ বার সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছিল।  

বরখাস্ত করায় ক্ষিপ্ত হয়ে আরিফুল ইসলাম রেলওয়ের ফেসবুক পেজ ‘গার্ডস্ হেডকোয়ার’ পেজে লালমনিরহাট বিভাগীয় রেলওয়ের ট্রাফিক বিভাগকে অশ্লিল ভাষায় গালমন্দ করে দেখে নেওয়ার হুমকি দেন। একই বার্তায় আরিফুল ইসলাম রাজু নাম দাবি করা ওই আইডি থেকে বলেন, ‘চাকরির মায়া আমার নাই, আপনাদের আছে। চাকরি রিজাইন দিয়ে চাঁদাবাজি করব। বেতন পাইতাম ৫৭ হাজার, চাঁদা তুলবো ৫ লাখ। কারো মাফ নাই, যে যতো বেশি দুর্নীতি করবে, তারে ততো বেশি চাঁদা দিতে হবে। সামনের মাসের বেতন তোলার পরে কাউন্ট ডাউন স্টার্ট ’।

হুমকি দেওয়া এমন স্ট্যাটাসে রোববার (১৭ নভেম্বর) সকাল থেকে লালমনিরহাট রেলভবনে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনী, রেলওয়ে থানা পুলিশ ও সদর থানা পুলিশও মোতায়েন করা হয়েছে। সবমিলে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে বলে জানান ডিটিএস স্নেহাশীষ দাশগুপ্ত।  
লালমনিরহাট সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) এরশাদুল আলম বাংলানিউজকে বলেন, রেলভবন নিরাপত্তার বিষয়ে লিখিতভাবে কিছু জানায়নি। কিন্তু তারা নিরাপত্তা বাড়াতে বলায় সকাল থেকে রেলওয়ে ভবন ও তার আশপাশে ফোর্স মোতায়েন রয়েছে। তারা লিখিত জানালে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৭, ২০১৯
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa