৭ম শ্রেণীর ছাত্রীকে বিয়ে দেওয়ায় জরিমানা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: সংগৃহীত

walton

পিরোজপুর: পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে সপ্তম শ্রেণীর এক মাদ্রাসাছাত্রীকে বিয়ে দেওয়ার  অভিযোগে বর ও কনে পক্ষকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। 

সোমবার (১৪ অক্টোবর) বিকেলে  উপজেলার কালাইয়া গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটেছে। জানা গেছে, একই গ্রামের আবদুর রশিদ মোল্লার ছেলে মো. জাহিদুল ইসলাম মোল্লার (১৮) এর সঙ্গে ওই মাদ্রাসা ছাত্রীর বাল্য বিয়ের আয়োজন চলছিল।

স্থানীয়রা জানান, ওই দিন  সকাল থেকেই চলছিল বিয়ের রান্নাবান্নাসহ সব আয়োজন শেষ। বর আসার জন্য কনে পক্ষ অপেক্ষা করছেন। এমন সময় বরের পরিবর্তে ওই বাড়িতে এসে হাজির হন থানা পুলিশ। থানা পুলিশ বিয়েতে বাধা দিলে বর ও কনে পক্ষ বিয়ে বন্ধ করে দেওয়ার অভিনয় করে চলে যান। পরে ওই দিন বিকেল ৪টার দিকে বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। এ খবর পেয়ে সেখানে গিয়ে হাজির হন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হোসাইন মো. আল মোজাহিদ।

স্থানীয়  ইউপি সদস্য জামাল হোসেন বাংলানিউজকে জানান, সেদিন বিকেলে ওই বাড়িতে বিয়ে চলাকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গিয়ে বর ও কনে পক্ষকে আটক করে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ১০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেন।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হোসাইন মো. আল মোজাহিদ বাংলানিউজকে তথ্য নিশ্চিত করে জানান, বিয়ের অনুষ্ঠানের খবর শুনে সেখানে গিয়ে রব ও কনে পক্ষকে আটক করে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাদের ১০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেই।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪৪, অক্টোবর ১৪, ২০১৯
এমএমইউ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: পিরোজপুর বাল্যবিয়ে
লাম্পি স্কিন রোগে ২০ গরুর মৃত্যু, দিশেহারা খামারিরা
আগরতলায় ঘূর্ণিঝড়ে ব্যাপক ক্ষতি
আম্পানে ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধ দ্রুত মেরামত করা হবে
অপ্রয়োজনে ঘোরাঘুরি না করতে তথ্যমন্ত্রীর অনুরোধ
নিয়ম মেনে সীমিত অফিস ১৫ জুন পর্যন্ত, অন্য নিষেধাজ্ঞা বহাল


দুর্যোগে নিরাপদ দূরত্বে অবস্থান করা বিএনপির রাজনীতি
ঢাকা ছাড়লেন ১৭০ ভারতীয় নাগরিক
কুষ্টিয়ায় ৭২ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত, ফসলের ক্ষতি
১২টি করোনা টেস্টিং বুথ বসানোর উদ্যোগ মেয়র নাছিরের
আড়াইহাজারে দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ একজন নিহত