php glass

বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে বুড়িগঙ্গায় নৌকাবাইচ 

ফিচার রিপোর্টার | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বুড়িগঙ্গায় নৌকাবাইচ

walton

ঢাকা: নদীমাতৃক বাংলাদেশের ইতিহাস, ঐতিহ্য, সংস্কৃতি, আনন্দ আয়োজন, উৎসব ও খেলাধুলা সবকিছুতেই নদী ও নৌকার সরব আনাগোনা। হাজার বছরের ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির সংস্করণ বাংলাদেশের নৌকা বাইচ। এক সময় এ দেশে যোগাযোগ ছিল নদী কেন্দ্রিক আর বাহন ছিল নৌকা।

এখানে নৌ শিল্পকে কেন্দ্র করে গড়ে ওঠে বিভিন্ন শিল্পকেন্দ্র। এসব শিল্পে যুগ যুগ ধরে তৈরি হয় দক্ষ ও অভিজ্ঞ কারিগর। এভাবে একসময় বিভিন্ন নৌযানের মধ্যে প্রতিযোগিতা শুরু হয়।

নদীর দেশের এই ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী উপলক্ষে বুড়িগঙ্গা নদীতে আয়োজিত হয় ঐতিহ্যবাহী নৌকাবাইচ প্রতিযোগিতা। শুক্রবার (১১ অক্টোবর) বিকাল ৩টায় বুড়িগঙ্গা নদীর বুকে এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

নৌকাবাইচের এই প্রতিযোগিতায় এ বছর ১২টি দল অংশগ্রহণ করেছে। মধু মাঝী, সবুজ মাঝী, হাতনীর রাজ, সোনার বাংলা, একতা এক্সপ্রেস, তরী, সোনার তরী, বাংলার ঐতিহ্য, মাসুদ রানা, জয় বাংলা এবং ফরিঙ্গা এক্সপ্রেস নৌকা বাইচের দলের মাল্লাদের বৈঠার তালের ছন্দ প্রতিযোগিতার মাত্রা আরও বাড়িয়ে দিয়েছে।

বুড়িগঙ্গা নদীতে অনুষ্ঠিত নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা দেখতে নদীর উভয় পাড়ে জড়ো হয় লাখো মানুষ। নারীপুরুষ, শিশুকিশোর, নবীন-প্রবীণসহ সকল দর্শকের মুখে ছিল আনন্দের হাসি। রানীগঞ্জ খোলামোরা খেয়াঘাট থেকে কামরাঙ্গীরচর মুসলিমবাগ ঠোটা খেয়াঘাট পর্যন্ত এ নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতাটি অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিযোগিতার প্রথম, দ্বিতীয় এবং তৃতীয় বিজয়ীদলের হাতে পুরস্কার তুলে দেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি ঢাকা-২ আসনের সংসদ সদস্য ও সাবেক খাদ্যমন্ত্রী অ্যাড. মো. কামরুল ইসলাম। আরও উপস্থিত ছিলেন উৎসবের আয়োজক ও ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৫৭নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর হাজী মোহাম্মদ সাইদুল মাদবর। 

প্রতিযোগিতায় প্রথম স্থান অধিকারী শেখ আ. খালেক মধু মাঝী- সবুজ মাঝীর দল একটি ১৫০ সিসির মটর সাইকেল পুরস্কার পেয়েছেন। দ্বিতীয় বিজয়ী শেখ মাইজউদ্দিনের দল হাতনীর রাজা পেয়েছেন একটি ১২৫ সিসির মটর সাইকেল এবং তৃতীয় বিজয়ী শেখ মাইজউদ্দিনের দল সোনার বাংলা পেয়েছে একটি ১০০ সিসি মটর সাইকেল। চতুর্থ পুরস্কার হিসেবে একতা এক্সপ্রেস দল পেয়েছে একটি ফ্রিজ। এছাড়া বাইচে অংশগ্রহণকারী ৮টি দল সান্ত্বনা পুরস্কার হিসেবে পেয়েছেন একটি করে এলইডি টিভি।

উৎসবের বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, ঢাকা মহানগর পুলিশের লালবাগ বিভাগের উপ পুলিশ কমিশনার মুনতাসিরুল ইসলাম এবং নৌকা বাইচ উৎসবের সহযোগী সংগঠন নদী নিরাপত্তার সামাজিক সংগঠন নোঙর সভাপতি সুমন শামস।

বুড়িগঙ্গা নদীর দখল-দূষণ রোধ করতে স্থানীয় জনগণকে আরও বেশী সচেতন এবং সম্পৃক্ত করতে এখন থেকে প্রতি বছর বুড়িগঙ্গা নদীতে নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতার আয়োজন অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন অনুষ্ঠানের আয়োজক কমিটি।

বাংলাদেশ সময়: ০৭১৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ১২, ২০১৯
এইচএমএস/জেআইএম

আর্মেনিয়ার জালে ইতালির ৯ গোল
ওকলাহোমায় বন্দুকধারীর হামলা, নিহত ৩
রূপসা রেলসেতুর নির্মাণকাজ ৬৩ শতাংশ সমাপ্ত
ঝুঁকি নিয়েই বাঁশের সাঁকো পারাপার!
১১ কর্মকর্তার নিয়োগ ঘিরে বিলাসী ব্যয়প্রস্তাব ওয়াসার!


সিয়াচেনে তুষারধসে ৪ সেনা সদস্যসহ নিহত ৬
ছোটপর্দায় আজকের খেলা
মাদ্রাজি ওলচাষে লাভবান কৃষক
‘দেশে লবণের সংকট নেই, দাম বৃদ্ধির বিষয়টি গুজব’
সৈয়দপুরে ভেজালবিরোধী অভিযানে ৪২ হাজার টাকা জরিমানা