php glass

আলোকসজ্জাই বলে দিচ্ছে উৎসবের কথা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বাহারি নকশা আর রংয়ের আলোকসজ্জায় সজ্জিত করা হয়েছে গোটা বরিশাল নগরের উত্তরাঞ্চল। ছবি: বাংলানিউজ

walton

বরিশাল: বাহারি নকশা আর রংয়ের আলোকসজ্জায় সজ্জিত করা হয়েছে গোটা বরিশাল নগরের উত্তরাঞ্চল। যা দেখে যে কারোরই মনে হবে উৎসব চলছে।

শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে মণ্ডপগুলোর পাশাপাশি এর আশপাশের এলাকা ও সড়ক ঘিরে রং, বে-রংয়ের বাতি, তোরণ, নকশি দিয়ে সজ্জিত করা হয়েছে। 

যার আলোর ঝলকানিতে আলোকিত হয়ে যায় গোটা এলাকা। সন্ধ্যা ঘনিয়ে আসতে না আসতে বাহারি রংয়ের আলোকসজ্জা দেখার জন্য মণ্ডপগুলোতে ভক্তদের পাশাপাশি সাধারণ নগরবাসীও ভিড় করছেন।

শুক্রবার (৪ অক্টোবর) শারদীয় দুর্গা উৎসবের ষষ্ঠীপূজা। এ পূজার মধ্য দিয়ে মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছে। সকাল থেকেই চণ্ডিপাঠে মুখরিত ছিল বরিশালের মণ্ডপ অঙ্গন। আর চন্দনের সুবাস স্নিগ্ধ করে তুলে পরিবেশ।

মূলত সন্ধ্যায় ষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে সর্বজনীন শারদীয় দুর্গা উৎসব পুরোমাত্রায় শুরু হয়েছে। এর আগে বৃহস্পতিবার (৩ অক্টোবর) সন্ধ্যায় বেলতলায় বেল বরণ পূজার মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছিল। সে হিসেবে মঙ্গলবার (৮ অক্টোবর) হবে দশমী। আর দশমী পর্যন্ত এ উৎসবকে কেন্দ্র করে ঢাক-ঢোল আর উলুরধ্বনিতে মুখরিত থাকবে পূজা মণ্ডপগুলো।

পূজামণ্ডপের জন্য নগরের সদর রোডের কাটপট্টি মোড় থেকে শুরু করে হাসপাতাল রোড, বিএম কলেজ এলাকা, নাজিরেরপুল, নতুন বাজার পোল, ভাটিখানা পুরান বাকলা, কালী বাড়ি রোড, কাটপট্টি, চকবাজার ও ফলপট্টি এলাকাজুড়ে বাহারি রংয়ের বাতিতে আলোকিত করা হয়েছে গোটা এলাকা।

নগরের পূজামণ্ডপসহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, সন্ধ্যার পরে ভক্তদের পাশাপাশি দর্শনার্থীদের ভিড় বাড়ে পূজামণ্ডপগুলোতে। মণ্ডপগুলোতে ধর্মীয় রীতি-নীতি মেনে পূজা-আর্চনায় মগ্ন থাকছেন পূজারীরা। নগরের বিভিন্ন ওয়ার্ডের মণ্ডপে বাহারি রংয়ের নকশা করা হয়েছে। যার মধ্যে মণ্ডপভেদে লাইটিংয়ের কাজের পাশাপাশি গেট-তোরণ নির্মাণে রয়েছে ভিন্নতা। 

প্রতিবছরের মত এবারও ধর্ম, বর্ণ মিলে পূজা উদযাপন করবেন এবং নির্বিঘ্নেই সম্পন্ন হবে বলে মনে করছেন দর্শনার্থী ও পূজারীরা। বাহারি নকশা আর রংয়ের আলোকসজ্জায় সজ্জিত করা হয়েছে গোটা বরিশাল নগরের উত্তরাঞ্চল। ছবি: বাংলানিউজমহানগর পূজামণ্ডপ ফলপট্টির পুরোহিত বেনীমাধব চক্রবর্তী বলেন, এবার দেবী আসবেন ঘোড়ায় চেপে এবং যাবেনও ঘোড়ায়। এতে ফলাফল শুভ হবে না। হানাহানি ঘটবে মর্ত্যে।

বরিশাল মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সুরঞ্জিৎ দত্ত লিটু জানান, দুর্গাপূজাকে কেন্দ্র করে বরিশালের সাজসজ্জার কাজটা এমনভাবে করা হয়েছে, যাতে প্রতিবারের থেকে অনেকটাই ভিন্নতা রয়েছে। সনাতন ধর্মাবলম্বীদের উৎসব সার্বজনীন এবং আনন্দ, উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে ভালোভাবে শেষ হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

এদিকে, শারদীয় দুর্গা উৎসব উপলক্ষে জেলা ও নগরের মন্দিরগুলো সাজানো হয়েছে নবরূপে। উৎসব নির্বিঘ্ন ও শান্তিপূর্ণ করতে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। 

বরিশাল নগরের ৪১টি মিলিয়ে জেলার ১০ উপজেলায় ৬১৩টি মণ্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আর গোটা বরিশাল বিভাগে ১ হাজার ৬১৩টি মণ্ডপে অনুষ্ঠিত হচ্ছে শারদীয় দুর্গোৎসব। এরমধ্যে আগৈলঝাড়া উপজেলায় সর্বাধিক ১৫৪টি মণ্ডপে পূজা হচ্ছে।  

বাংলাদেশ সময়: ২০১৩ ঘণ্টা, অক্টোবর ০৪, ২০১৯
এমএস/আরবি/

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: বরিশাল দুর্গাপূজা
নিউ সিটিজেনশিপ অ্যামেন্ডমেন্ট বিলের প্রতিবাদে বিক্ষোভ
ফ্রান্স প্রবাসীদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহ্বান
খুলনায় আ’লীগের তৃণমূল নেতাকর্মীদের প্রযুক্তির প্রশিক্ষণ
সিলেটে লবণ বিক্রেতাকে জরিমানা
লবণের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির চেষ্টা, হবিগঞ্জে আটক ৪


‘খালেদা জিয়াকে চিকিৎসার অধিকার থেকে বঞ্চিত করছে সরকার’
আবাসন খাতে সর্বোচ্চ করদাতা র‌্যাংগস প্রপার্টিজ লিমিটেড
‌সিলেটের বাজারে লব‌ণ সংকটের গুজব
মিরপুরে ছুরিকাঘাতে ২ শিক্ষার্থী আহত
লিবিয়ায় বিমান হামলায় এক বাংলাদেশি নিহত, আহত ১৫