php glass

কোটা আন্দোলনের ৩ নেতার ৫৭ ধারার মামলার তদন্ত স্থগিত

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সুপ্রিম কোর্ট

walton

ঢাকা: কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলন করা শিক্ষার্থীদের সংগঠন বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের তিন যুগ্ম আহ্বায়কের বিরুদ্ধে তথ্যপ্রযুক্তি আইনে করা মামলার তদন্ত কার্যক্রম স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট।

পৃথক ৩টি রিট আবেদনের শুনানি নিয়ে রোববার (২৫ আগস্ট) বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি মো. বদরুজ্জামানের হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এ আদেশ দেন।

তিন নেতা হলেন- যুগ্ম আহ্বায়ক মো. রাশেদ খাঁন, মো. শাখাওয়াত হোসেন রাতুল এবং লুৎফুননাহার লুমা।

আদালতে রিট আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার জ্যোতির্ময় বড়ুয়া। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিপুল বাগমার।

পরে জ্যোতির্ময় বড়ুয়া বলেন, সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় এবং নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের সময় গত বছর তথ্যপ্রযুক্তি আইনে এসব মামলা হয়। পরে ওই আইন বাতিল করে নতুন আইন করা হয়। তাই এসব মামলায় চলা তদন্তের বৈধতা নিয়ে হাইকোর্টে রিট করা হয়। শুনানি শেষে আদালত তদন্ত কার্যক্রমের ওপর স্থগিতাদেশ দিয়ে রুল জারি করেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৫ ঘণ্টা, আগস্ট ২৫, ২০১৯
ইএস/জেডএস

উত্তরা ইপিজেডের কারখানার গুদামে আগুন
সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এগিয়ে মমতার দল
ব্রাইটনের কাছে হেরে আবারও জয় বঞ্চিত আর্সেনাল
‘শ্যূটিং প্রতিযোগিতার প্রসার দীর্ঘদিনেও করতে পারিনি’
১০ বছরে পদার্পণ করলো ফেনী রিপোর্টার্স ইউনিটি


মেহেরপুরে হেরোইনসহ ২ মাদকবিক্রেতা আটক
শাবিপ্রবিতে আত্মহত্যা প্রতিরোধ বিষয়ক সেমিনার
রাজ্যপালের সঙ্গে বাংলাদেশের সহকারী হাইকমিশনারের সাক্ষাৎ
মেহেরপুরে গাঁজাসহ মাদকবিক্রেতা আটক
‘গণতন্ত্রের সংগ্রামে ‘মওলানা ভাসানী’ প্রাসঙ্গিক হয়ে উঠছেন’