php glass

চামড়া মাটিতে পুঁতে ফেলেছেন কোরবানিদাতারা!

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজ

walton

নীলফামারী: গোটা নীলফামারীতে কোরবানির পশুর চামড়া কেনার লোক মেলেনি। ফলে সারাদিন অপেক্ষার পর বাধ্য হয়েই চামড়া মাটিতে পুঁতে ফেলেছেন কোরবানিদাতারা। জেলা শহর ছাড়াও সৈয়দপুর, ডোমার, ডিমলা, জলঢাকা ও কিশোরগঞ্জ উপজেলাতেও একই চিত্র দেখা গেছে।

ঈদের নামাজ শেষে একক ও ভাগে গরু কোরবানি দেওয়া হয়। কেউ কেউ খাসিও কোরবানি দেন। আগে কোরবানির সঙ্গে চামড়া ক্রেতারা আসতেন, অনেক সময় অগ্রিম টাকাও দিতেন। কিন্ত এবারে চিত্র একেবারে ভিন্ন। সারাদিনেও কোনো চামড়া কেনার লোক মেলেনি। ফলে বাধ্য হয়ে অনেকেই মাটিতে গর্ত করে পুঁতে ফেলেছেন গরু ও খাসির চামড়া।

নীলফামারীর কিশোরগঞ্জ উপজেলার বাসিন্দা আলম হোসেন (৬০) বাংলানিউজকে বলেন, প্রতিবছর মাদ্রাসা, এতিমখানা, গরিব মানুষের মধ্যে চামড়া বিক্রির টাকা বিতরণ করা হতো। কিন্ত এবার সেই সাহায্য দেওয়া সম্ভব হবে না। 
 
জেলার সৈয়দপুরের কামারপুকুর ইউনিয়নের হাসান বাংলানিউজকে বলেন, আমার ৫০ হাজার টাকা দামের গরুর চামড়া নিয়ে বিক্রির জন্য সৈয়দপুর আড়তে যাই। সেখানে চামড়ার দাম বলা হয় মাত্র ৮০ টাকা! আরও বলা হয়- ‘দিলে দেন, না হলে বাড়ি নিয়ে যান।’ বাধ্য হয়ে রাগে-ক্ষোভে চামড়াটি বাড়িতে ফিরিয়ে নিয়ে এসে মাটিতে গর্ত খুঁড়ে পুঁতে ফেলি।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৫ ঘণ্টা, আগস্ট ১২, ২০১৯
এসআরএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: নীলফামারী
ksrm
কলাবাগান ক্রীড়াচক্র থেকে পিস্তল-ইয়াবা উদ্ধার, আটক ৫
শামসুজ্জামান দুদুকে গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ
রাবির হল ‘চলে’ ছাত্রলীগের কথায়, সিট বরাদ্দে ‘প্যাকেজ’!
শ্রমিক ছাঁটাই ও নির্যাতন বন্ধের দাবি
ইসলামে জুয়া-বাজি সম্পূর্ণ হারাম


সাতক্ষীরায় মাদ্রাসাছাত্র নিখোঁজ
ইবি ছাত্রলীগ সম্পাদককে ধাওয়া দিয়ে ক্যাম্পাসছাড়া
স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করায় ডোমারে বখাটের কারাদণ্ড
‘মোনঘর’ প্রতিষ্ঠান একটি বাতিঘর: দীপংকর
বিখ্যাত শিল্পীদের চিত্রকর্ম নিয়ে প্রদর্শনী