একই পরিবারের ৪ জনকে হত্যা, গণপিটুনিতে নিহত ঘাতক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

নিহতদের মরদেহ

walton

কুমিল্লা: কুমিল্লার দেবীদ্বারে একই পরিবারের তিনজনকে জবাই করে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় আহত আরও দু’জনের মধ্যে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরও একজনের মৃত্যু হয়। এছাড়া স্থানীয় জনগণের গণপিটুনিতে নিহত হয়েছেন ঘাতক মোখলেছও।



বুধবার (১০ জুলাই) সকালে উপজেলার রাধানগরে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- একই গ্রামের শাহ আলমের স্ত্রী আনোয়ারা বেগম, তার ছেলে হানিফ ও একই বাড়ির নূরুল ইসলামের স্ত্রী নাজমা বেগম। 

এ বিষয়ে কুমিল্লা স্পেশাল ব্রাঞ্চের (ডিএসবি) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজিম উল আহসান বাংলানিউজকে বলেন, সকালে রিকশাচালক মোখলেছ (৩৫) রিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হন। পথিমধ্যে একজন অটোরিকশা চালকের সঙ্গে কথা কাটাকাটি করে বাড়িতে ফিরে আসেন। এসে স্ত্রীর সঙ্গে ঝগড়া করে একটি দা নিয়ে বের হয়ে যান। 

পরে রাস্তায় দু’জন নারী ও একজন শিশুকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করেন। এতে আরও দু’জন আহত হন। এসময় স্থানীয়রা তাকে আটক করে গণপিটুনি দিলে মারা যান মোখলেছ। পরে আহত দু’জনের মধ্যে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরেক নারীর মৃত্যু হয়।

ঘাতক মোখলেছ একজন মানসিক রোগী ছিলেন বলে স্থানীয় সূত্রে জানা যায়।

বাংলাদেশ সময়: ১২৩০ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০১৯/আপডেট: ১৪২০ ঘণ্টা
এসএ/এএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: কুমিল্লা
ত্রিপুরায় মাদকসহ দুই পাচারকারী আটক
মনোসংযোগ বাড়াবে ভ্রামরী প্রাণায়াম
বইমেলায় বাবলু ভঞ্জ চৌধুরীর ‘শালিকবুড়ো ও ফড়িং’ 
ট্রলার ডুবির ঘটনায় সেন্টমার্টিন থেকে আরও ২ মরদেহ উদ্ধার
প্রকাশ্যে আসছে পৃথ্বীরাজের শেষ গান


রামগতিতে ধর্ষণ মামলার ৩ আসামি গ্রেফতার
‘কাঠ ঠোকরা’ গর্ভনর চাইলেন ইব্রাহিম খালেদ
তিন আসনের উপনির্বাচনে জাপার প্রার্থী ঘোষণা
পরীক্ষা কেন্দ্রে ছাত্রের মাথা ফাটালেন শিক্ষক
সংগঠনের নাম পরিবর্তন করলেন কোটা আন্দোলনকারীরা