‘বন্দুকযুদ্ধে’ নয়ন বন্ড নিহত, যা বললেন মিন্নি 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আয়েশা সিদ্দীকা মিন্নি। ছবি: বাংলানিউজ

walton

বরগুনা: স্বামীর হত্যাকাণ্ডের পর মূল হোতা নয়ন বন্ড গ্রেফতার না হওয়ায় তার ও পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন ছিলেন আয়েশা সিদ্দীকা মিন্নি।

পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নয়ন বন্ড নিহত হয়েছেন। এ খবর শুনে তিনি বলেন, স্বামী হত্যার পর থেকেই নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন ছিলেন তারা। তবে এখন অনেকটা শঙ্কা কেটেছে। মিন্নির দাবি, স্বামী হত্যার ঘটনায় যারা জড়িত, তাদের প্রত্যেকের যেনো বিচার হয়। 

মঙ্গলবার (২ জুলাই) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বরগুনা পৌরসভার পুলিশ লাইনের ২ নম্বর ওয়ার্ডের তার বাবার বাসায় এভাবেই বলছিলেন নিহত রিফাত শরীফের স্ত্রী আয়েশা সিদ্দীকা মিন্নি। 

তিনি বলেন, প্রকাশ্যে দিবালোকে চোখের সামনে আমার স্বামীকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এর চেয়ে কষ্টের আর কী হতে পারে। চিৎকার করে সাহায্য চেয়েছি, কেউ এগিয়ে আসেনি। 

তিনি বলেন, বন্দুকযুদ্ধে খুনি নয়ন বন্ড মারা গেছে। আমি চাই আমার স্বামী হত্যায় যারা জড়িত তাদের প্রত্যেকের বিচার হোক। সবার ফাঁসি চাই আমি। 

‘আমি নিজের এবং আমার পরিবারের সদস্যদের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছিলাম। আজ নয়ন মারা যাওয়ায় আমি নিজেকে হালকা মনে করছি।’ 

এর আগে মঙ্গলবার ভোর ৪টার দিকে বরগুনা সদর উপজেলার ৬ নম্বর বুড়িরচর ইউনিয়নের পুরাকাটা ফেরিঘাট এলাকায় বন্দুকযুদ্ধে নয়ন বন্ড নিহত হয়।

নয়ন বরগুনা পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম কলেজ রোড এলাকার মৃত মো. আবুবক্কর সিদ্দিকের ছেলে। তার বিরুদ্ধে খুন, চাঁদাবাজি, ছিনতাইসহ নানা অভিযোগ রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১১২৫ ঘণ্টা, জুলাই ০২, ২০১৯
আরএ/এমএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: বরগুনা রিফাত হত্যা
Nagad
বরিশালে ফ্লাইট চালু হচ্ছে রোববার
করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে অমিতাভ বচ্চন
বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থায় নিয়োগ পেলেন বাংলাদেশের সেঁজুতি
নাটোরে ইউএনওসহ আরও ১৩ জনের করোনা শনাক্ত
করোনা: রাজশাহীতে সুস্থতার হার তুলনামূলক কম


লোহাগাড়ায় ৬ হাজার ইয়াবাসহ গ্রেফতার চার
বিমানের দুবাই-আবুধাবিগামী যাত্রীদের ভ্রমণে সতর্কবার্তা
মা ও শিশু হাসপাতালে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর প্রদান
ক্রেতা সেজে অভিযান, স্যানিটাইজার কারখানা সিলগালা
পরিবারের ৭ সদস্যসহ করোনা আক্রান্ত চবি উপাচার্য