php glass

জালিয়াতির মাধ্যমে টাকা উত্তোলন, ৬ বিদেশি গ্রেফতার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

জালিয়াতির অভিযোগে আটক তিন বিদেশি। ছবি: সংগৃহীত

walton

ঢাকা: অটোমেটেড টেলার মেশিনের (এটিএম) বুথ থেকে টাকা উত্তোলনে জন্য বিশেষ এক ধরনের কার্ড ব্যবহার করা হতো। ওই কার্ডের মাধ্যমে যেকোনো পরিমাণ টাকা তুলতে কোনো পিন নম্বর প্রয়োজন হয় না। এছাড়া, কার্ডটি বুথে প্রবেশ করানোর সঙ্গে সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সিস্টেম নেটওয়ার্ক বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। ফলে ব্যাংক কর্তৃপক্ষও বিষয়টি বুঝে ওঠার আগেই উধাও হয়ে যেত বিপুল পরিমাণ টাকা।

বিভিন্ন দেশের এটিএম বুথ থেকে অভিনব কার্ডের মাধ্যমে অর্থ হাতিয়ে নেওয়া এ চক্রের ৬ জনকে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। আটকরা  ইউক্রেনের নাগরিক বলে জানিয়েছে পুলিশ।

বিভিন্ন দেশে সফল এই হ্যাকার গ্রুপের সাত সদস্য গত বৃহস্পতিবার (৩০ মে) বাংলাদেশে আসেন। শনিবার (০১ জুন) রাজধানীর খিলগাঁও এলাকায় ডাচ-বাংলা ব্যাংক লিমিটেডের একটি বুথ থেকে টাকা তোলার সময় হাতেনাতে একজনকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তার দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, পান্থপথের একটি আবাসিক হোটেল থেকে আরো পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

গ্রেফতাররা হলেন, ভ্যালেনটাইন (পাসপোর্ট নম্বর ইওয়াই ০৫১৫৬২), ওলেগ (পাসপোর্ট নম্বর ইএক্স ০৮৯৯৬৩), ড্যানিশ (পাসপোর্ট নম্বর এফএল ০১৯৮৩৪) নাজেরি (পাসপোর্ট নম্বর এফটি ৫০০৫০১), সার্গি (পাসপোর্ট নম্বর এফএইচ ৪২৪৩৯৪) ও ভোলোবিহাইন (পাসপোর্ট এফটি ৩৭৯৯৮৩)।

ডিবি পুলিশ জানায়, চক্রের দুই সদস্য মুখে মাস্ক ও মাথায় ক্যাপ ব্যবহার করে খিলগাঁওয়ের ওই এটিএম বুথে ঢুকেন। বুথে বেশি সময় নেওয়ার কারণে নিরাপত্তারক্ষী আশপাশের লোকজন ডেকে জড়ো করেন। বিষয়টি টের পেয়ে দুই বিদেশি নাগরিক পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে উপস্থিত জনতা একজনকে হাতেনাতে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পান্থপথের একটি হোটেল থেকে বাকিদের গ্রেফতার করা হয়।

এ সময় তাদের কাছ থেকে প্রায় ৫০টি কার্ড ও মুখোশ, মাস্ক, মোবাইল ফোন সেট ও আইপ্যাড উদ্ধার করা হয়েছে।

ডিবির অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (এডিসি) শাহিদুর রহমান রিপন বাংলানিউজকে বলেন, চক্রটি প্রথমে বাড্ডা এলাকার ডাচ বাংলা ব্যাংকের ফাস্ট ট্র্যাক থেকে ২ লাখ টাকা তোলে নিয়ে যায়। বিষয়টি টের পেয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ আমাদের জানায় এবং অভিযোগের পর পরই তদন্তে নামে ডিবি।

‘ইতোপূর্বে বিভিন্ন সময় এটিএম বুথ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেওয়া চক্রটি কার্ড ক্লোন করে টাকা চুরি করত। তবে এ চক্রটি অভিনব কায়দায় মেশিনে কার্ড দিয়ে কোনো পিন নম্বর ছাড়াই টাকা উত্তোলন করে।’

চক্রের সাতজনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, সোমবার (০৩ জুন) গ্রেফতার ছয়জনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। আদালত তাদের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।

‘একজন এখনও পলাতক রয়েছেন, তিনি যেন দেশ ছেড়ে পালাতে না পারে সেজন্য ইমিগ্রেশনে তথ্য দেওয়া হয়েছে। আশা করছি শিগগির পলাতক ওই সদস্যকে গ্রেফতার করা সম্ভব হবে,’ বলেন তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২১ ঘণ্টা, জুন ০৩, ২০১৯
পিএম/এমএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: জালিয়াতি
রাজধানীতে দু’টি বোমা নিষ্ক্রিয় করলো পুলিশ
ভোলাহাটে মহানন্দা নদীর ডানতীর রক্ষা বাঁধে ভাঙন
কোহলি-রোহিতদের কোচ হচ্ছেন জয়াবর্ধনে!
হাওরে নিখোঁজ কলেজছাত্রের মরদেহ উদ্ধার
ইভিএমে ভোটদান শেখাতে শিক্ষার্থীদের সহায়তা নিতে চায় ইসি


৬ মাসে চট্টগ্রাম বিআরটিএতে চার হাজার মামলা
রাজধানীতে বাসের ধাক্কায় নিহত ২
ছোটপর্দায় আজকের খেলা
ইবিতে নতুন ৩ সহকারী প্রক্টর নিয়োগ
টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গাসহ নিহত ২