php glass

ঈদের আগেই ঢাকা-পঞ্চগড় বিরতিহীন ট্রেন

সোহাগ হায়দার, ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ট্রেনের ফাইল ফটো

walton

পঞ্চগড়: ‘ঝক-ঝক-ঝক ট্রেন চলেছে, রাত দুপুরে অই। ট্রেন চলেছে, ট্রেন চলেছে ট্রেনের বাড়ি কই?’— কবি শামসুর রাহমানের কবিতার মতোই দীর্ঘ প্রতীক্ষা এবং আন্দোলনের পর গত বছরের নভেম্বরে স্বপ্ন পূরণের মধ্যদিয়ে পঞ্চগড় জেলাবাসীর ট্রেনের বাড়ি খোঁজা শেষ হয়েছে, পেয়েছে পঞ্চগড় টু ঢাকা সরাসরি দু’টি আন্তঃনগর ট্রেনে। 

এবার তারই ধারাবাহিকতায় চলতি বছরের ঈদুল ফিতরের আগে আগামী ২৫ মে (শনিবার) পাচ্ছে নন-স্টপ (বিরতিহীন) আরেকটি ট্রেন। 

নতুন এ ট্রেনটি চালু হলে উত্তরবঙ্গবাসীর পাশাপাশি বাংলাবান্ধা দিয়ে ভারত গমনেচ্ছুরাও উপকৃত হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নন-স্টপ (বিরতিহীন) এই নতুন ট্রেনটির নামকরণ ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ করেছেন বলে রেলপথমন্ত্রী এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে জানিয়েছেন।

রেলমন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়, গত এপ্রিল মাসে প্রধানমন্ত্রী রাজশাহী থেকে ঢাকাগামী বিরতিহীন ট্রেনের উদ্বোধন করেছেন। এবার আসন্ন ঈদের আগেই ঢাকা টু পঞ্চগড় নতুন ট্রেন সার্ভিস চালু হবে। ঢাকা থেকে রেলপথে পঞ্চগড়ের দূরত্ব ৬৩৯ কিলোমিটার। এটিও প্রায় বিরতিহীন ভাবে ঢাকা থেকে দিনাজপুর গিয়ে থামবে, এরপর পার্বতীপুর-ঠাকুরগাঁওয়ে থামবে। তিন স্টেশন পেরিয়ে পঞ্চগড় পৌঁছাবে।

২৫ মে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে নতুন এ ট্রেনের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গত ১৫ মে (বুধবার) রেলভবনে সংবাদ সম্মেলন শেষে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান রেলপথমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন।

তিনি জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজেই নতুন এ ট্রেনের নামকরণ করেছেন 'পঞ্চগড় এক্সপ্রেস'। এ ট্রেনের ভাড়া ধরা হয়েছে শোভন চেয়ার ৫৫০ টাকা, এসি চেয়ার ১ হাজার ৩৫ টাকা ও এসি কেবিন ১ হাজার ২৬০ টাকা।

নতুন এ ট্রেনটি ঢাকা থেকে বিরতিহীনভাবে পার্বতীপুর স্টেশনে গিয়ে থামবে পরে শেষ স্টেশন হিসেবে পঞ্চগড়ে গিয়ে পৌঁছাবে। যাত্রা বিরতির স্টেশনগুলো হলো পার্বতীপুর, দিনাজপুর ও ঠাকুরগাঁও।

ঈদের আগে একটি বিরতিহীন ট্রেন পাওয়ার খবরে বেশ উচ্ছ্বসিত উত্তরের জনপদের মানুষসহ পঞ্চগড় জেলার মানুষ। ফলে তারা আশা করছেন, নতুন এ ট্রেন কিছুটা হলেও উত্তরের জনপদের যাতায়াতে রেলপথে স্বস্তি আনবে।  

এর আগে গত ২৮ এপ্রিল (রোববার) বিকেলে রাজধানীর কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে ‘রেলসেবা অ্যাপস’ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে নতুন এই নন-স্টপ (বিরতিহীন) ট্রেন চালুর তথ্যটি জানান রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন। এ কারণে বিরতিহীন ট্রেনের অপেক্ষায় সময় পার করছে দেশের সর্ব উত্তরের প্রান্তিক জেলা পঞ্চগড়ের বাসিন্দারা।

সামাজিক সংগঠনের সদস্য রাব্বি ইমন ও রনি বাংলানিউজকে বলেন, দীর্ঘদিন লড়াইয়ের পর আমাদের প্রাণের দাবি পঞ্চগড় টু ঢাকা দু'টি আন্তঃনগর ট্রেন চালু হয়েছে। এবার চালু হচ্ছে নন-স্টপ (বিরতিহীন) ট্রেন। এতে করে আগের তুলনায় পঞ্চগড়বাসীর ট্রেনে ভ্রমণ অনেক সুবিধা হবে। সড়ক পথের চেয়ে অনেকটা সুবিধা হবে রেলপথে।

পঞ্চগড় রেল স্টেশনের স্টেশন মাস্টার মোশাররফ হোসেন বাংলানিউজকে জানান, ঢাকা থেকে পঞ্চগড় পর্যন্ত যে নন-স্টপ (বিরতিহীন) ট্রেনটি চালু হচ্ছে তার নাম পঞ্চগড় এক্সপ্রেস। 

জানা যায়, ৯৮২ কোটি টাকা ব্যয়ে রেল মন্ত্রণালয়ের আওতায় পার্বতীপুর থেকে ঠাকুরগাঁও হয়ে পঞ্চগড় পর্যন্ত ১৫০ কিলোমিটারের এ রেললাইনের নির্মাণ কাজ শুরু হয় ২০১০ সালে। ওই বছরের ৩১ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ রেললাইনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করে কাজের সূচনা করেন।

রেললাইনের কাজ শেষ হয় ২০১৬ সালে। ২০১৭ সালের ১৭ জুন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক দিনাজপুর পর্যন্ত একটি ইন্টারসিটি শাটল ট্রেন উদ্বোধন করেন। পরে এ নিয়ে স্থানীয় সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনগুলো আন্দোলন শুরু করে। তারা সরাসরি ঢাকা-পঞ্চগড় ট্রেন চলাচলের দাবি করে। গত বছরের ২৯ মার্চ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঠাকুরগাঁওয়ের এক জনসভায় ভিডিও কনফারেন্সে এ দাবি সম্বলিত ব্যানার দেখতে পেয়ে তার বক্তব্যে বলেন, ব্যানার নামিয়ে ফেলুন পঞ্চগড়ে ট্রেন যাবে। প্রধানমন্ত্রীর সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের ফলে সব শ্রেণি-পেশার মানুষ আনন্দিত।

বাংলাদেশ সময়: ১২৪৭ ঘণ্টা, মে ১৭, ২০১৯
আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: রেলপথ মন্ত্রণালয় ট্রেন সার্ভিস
পরোয়ানা থাকলে ডিআইজি মিজান গ্রেফতার হবেন
আগারগাঁওয়ে ডিএনসিসির উচ্ছেদ অভিযান
ইডিইউর সঙ্গে সম্পর্কে আগ্রহী মালয়েশিয়ার ইউটিপি
সুস্থ আছেন লারা
রাজধানীতে ২ দিনব্যাপী পরিচ্ছন্ন প্রযুক্তি মেলা শুরু


মাদকবিরোধী অভিযানের সুফল পাচ্ছে বাংলাদেশ-ত্রিপুরা
নোমানের দুর্নীতি মামলা ৩ মাসের মধ্যে নিষ্পত্তির নির্দেশ
তিন মন্ত্রণালয় ও বিভাগে নতুন সচিব
পোর্ট কানেকটিং রোডের কার্পেটিং কাজ উদ্বোধন
শ্রমিক রপ্তানি: ১০ এজেন্সির জোট নিয়ে তদন্তে কমিটি