`ট্রাইব্যুনালের বিচার প্রক্রিয়া সবাইকে জানাতে হবে’

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

সফররত যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধাপরাধ বিষয়ক রাষ্ট্রদূত স্টিফেন জে. র‌্যাপ বলেছেন, বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের বিচার প্রক্রিয়ায় কী ঘটছে তা সবাইকে জানাতে হবে।

ঢাকা: সফররত যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধাপরাধ বিষয়ক রাষ্ট্রদূত স্টিফেন জে. র‌্যাপ বলেছেন, বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের বিচার প্রক্রিয়ায় কী ঘটছে তা সবাইকে জানাতে হবে।

সোমবার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে জে. র‌্যাপ দেশে চলমান  
আন্তর্জাতিক যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের বিচার প্রক্রিয়া সম্পর্কে এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, সাধারণ জনগণের পক্ষে এই আদালতের অধিবেশনে যোগ দেওয়া সম্ভব নয়। তাই বিচার প্রক্রিয়ার অধিবেশনসমূহ টেলিভিশন বা রেডিওতে সরাসরি সম্প্রচার করা হলে তা ভালো হতো। আর তা যদি সম্ভব না হয়, তবে নিরপেক্ষ পর্যবেক্ষকদেরকে এ বিচার প্রক্রিয়া অনুসরণ করার অনুমোদন দেওয়া উচিত। এতে করে তারা প্রাত্যহিক ও সাপ্তাহিক প্রতিবেদন তৈরি করতে পারেন। যা ইন্টারনেট ও অন্যান্য সংবাদ মাধ্যমে সহযোগিতায় সবার কাছে পৌঁছতে পারে।   

স্টিফেন বলেন, যারা এই নৃশংস অপরাধের শিকার হয়েছিলেন, তাদের কাছে এ বিচার প্রক্রিয়া অত্যন্ত গুরত্বপূর্ণ। এখানে যা ঘটবে, বিশ্বের সর্বত্র যারা এ ধরনের অপরাধের সঙ্গে জড়িত তাদের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ বার্তা পৌঁছে দেবে যে–এ ধরনের অপরাধের জন্য যারা দায়ী, একটি রাষ্ট্র ব্যবস্থার পক্ষে সম্ভব তাদেরও বিচারের ব্যবস্থা করা।

তিনি বলেন, আমি এখানে এসেছি কারণ যুক্তরাষ্ট্রের জনগণ এটা নিশ্চিত করতে চায় যে এই বিচার প্রক্রিয়াটি স্বচ্ছ ও নিশ্চিত হচ্ছে। এ ঐতিহাসিক বিচার প্রক্রিয়া ন্যায়বিচার অর্জনের জন্য এবং এই প্রক্রিয়ার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের সবার সঙ্গে আমরা কাজ করা অব্যাহত রাখবো।

ট্রাইব্যুনালের চেয়ারম্যান নিজামুল হকের বিরুদ্ধে অভিযুক্তদের অনাস্থার বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে আমি কোনও মন্তব্য করব না।’  

জে. র‌্যাপ বলেন, ১৯৭১ সালে কী ধরনের অপরাধ সংঘটিত হয়েছিল সে বিষয়ে আমার ধারণা রয়েছে। আমি জানি সে সময় হাজার হাজার ভুক্তভোগীকে হত্যা করা হয়েছে, ধর্ষণ করা হয়েছে। এ ধরনের অপরাধের ভুক্তভোগীদের বিচার পাওয়ার অধিকার রয়েছে এবং যারা এ ধরনের অপরাধের জন্য অভিযুক্ত হয়েছেন তাদেরও রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে আনা প্রমাণাদির যথার্থতা যাচাই করার এবং নিজেদের পক্ষে সাক্ষ্য-প্রমাণ হাজির করার।  

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০১১

Nagad
স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি বাম গণতান্ত্রিক জোটের
বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের কার্যকাল বাড়লো
নিউক্যাসলের জালে ‘হৃদয়হীন’ ম্যানসিটির গোল উৎসব
রিজেন্ট চেয়ারম্যান সাহেদের দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা
পশুরহাটে স্বাস্থ্যবিধি বড় চ্যালেঞ্জ: মেয়র নাছির


নভোএয়ার ‘স্মাইলস’র ৮ম বর্ষে টিকিটে ১০ শতাংশ ছাড়
রাত ৮টার পরে এফডিসিতে প্রবেশ করা যাবে না
এইচএসসিতে ভর্তি কার্যক্রম শুরু শিগগিরই: শিক্ষামন্ত্রী
রিজেন্টের চেয়ারম্যান সাহেদের ভায়রা র‌্যাব হেফাজতে
ঈশ্বরদীতে গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার