শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে বাবার সঙ্গে স্মৃতিসৌধে 

সাগর ফরাজী, সাভার করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

বাবার সঙ্গে স্মুতিসৌধে লিজা। ছবি: বাংলানিউজ

walton

জাতীয় স্মৃতিসৌধ (সাভার) থেকে: মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে পোশাক শ্রমিক মারুফ হাসানের সঙ্গে এসেছে তার ছোটো মেয়ে লিজা(৬) । স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা জানাতে আসা হাজারো মানুষের সঙ্গে তারাও শ্রদ্ধা জানিয়েছে। 

php glass

মঙ্গলবার (২৬ মার্চ) ভোর ৫টা ৫৭ মিনিটে সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে প্রথমে শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন করেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরে ঢল নামে সাধারণ মানুষের। আর সেই ঢলে যোগ দিয়ে মাথায় ২৬ মার্চের ব্যান্ড ও হাতে দু’টি পতাকা নিয়ে বাবার সঙ্গে শহীদের শ্রদ্ধা জানাতে এসেছে লিজা আক্তার।

শিশুটির বাবার সঙ্গে কথা হলে তিনি জানান, তার বাড়ি গোপালগঞ্জের মুকশেদপুর থানার খানজাপুর গ্রামে। তিনি স্থানীয় একটি পোশাক কারখানায় কাজ করেন। পরিবার নিয়ে তিনি আশুলিয়ার কুরগাঁও এলাকায় থাকেন। 

লিজার সঙ্গে কথা বললে সে বলে, আমি বাবার কাছে শুনেছি যে এখানে অনেক মানুষ শুয়ে আছেন। যারা অনেকদিন আগে দেশ স্বাধীনের জন্য মারা গেছেন। তাদের জন্য আমি ও বাবা এখানে ফুল দিতে এসেছি।

প্রথম শ্রেণিতে পড়া এই শিশুটি আরও বলে, আমি বড় হয়ে পুলিশের একজন অফিসার হবো। আর দেশের জন্য কাজ করবো।

লিজার বাবা মারুফ হাসান বলেন, মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বাচ্চাদের জানানোর দ্বায়িত্ব আমাদেরই। তাই এখন সময় এসেছে তাদের ইতিহাস সর্ম্পকে জানানোর। 

তিনি আরও বলেন, আমি এর আগেও আমার পরিবার নিয়ে কয়েকবার স্মৃতিসৌধে এসেছি। কিন্তু এবার তাদের নিয়ে আসতে পারিনি। তাই শুধু আমি আর আমার মেয়েই চলে এসেছি৷ 

বাংলাদেশ সময়: ১০৫৩ ঘণ্টা, মার্চ ২৬, ২০১৯
আরএ

প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে নিরপেক্ষ ছিল পুলিশ-প্রশাসন
‘যুব সমাজকে জনসম্পদে রূপান্তর করাই বড় চ্যালেঞ্জ’
শ্রীলঙ্কায় শেখ সেলিমের মেয়ে জামাই আহত, নাতি নিখোঁজ 
ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাণ্ডজ্ঞান!
ওয়ার্নার-বেয়ারস্টোর ব্যাটে জয় পেল হায়দ্রাবাদ


নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যার প্রতিবাদে মানববন্ধন
এসআই আমির হামজার বিরুদ্ধে অভিযোগের প্রমাণ পেল কমিটি
নদীর একইঞ্চি জমিও দখল করতে দেওয়া হবে না
যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় নিরাপত্তা বাহিনী সজাগ
সন্ত্রাসীদের ধর্ম নেই, সবাইকে সোচ্চার হতে হবে