বিস্কুট কিনে দেওয়ার কথা বলে শিশু ধর্ষণ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: প্রতীকী

walton

নেত্রকোণা: বিস্কুট কিনে দেওয়ার কথা বলে রাতের আঁধারে জঙ্গলে নিয়ে গিয়ে চার বছরের এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ধর্ষণকারী সাহেব আলীকে আটক করে উত্তমমধ্যম দিয়ে পুলিশের হাতে তুলে দেয় স্থানীয়রা।

php glass

মঙ্গলবার (১৯ মার্চ) দিনগত রাতে নেত্রকোণার সদর উপজেলার দক্ষিণ বিশিউড়া ইউনিয়নের বাশাটি গ্রামে বর্বরোচিত এ ঘটনা ঘটে। ধর্ষণকারী সাহেব জেলা শহরের ইসলামপুর এলাকার মৃত ইজ্জত আলীর ছেলে। 

শিশুটির শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে বুধবার (২০ মার্চ) বিকেলে নেত্রকোণা আধুনিক সদর হাসপাতাল থেকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নেত্রকোণা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বোরহান উদ্দিন খান বাংলানিউজকে বলেন, শিশুটি তার মায়ের সঙ্গে বাশাটি গ্রামে নানা বাড়িতে থাকে। ঘটনার দিন রাতে সাহেব ওই বাড়িতে বেড়াতে যায়। শিশুটিকে বিস্কুট কিনে দিবে বলে বাড়ির বাইরে নিয়ে যায়। পরে বিস্কুট কিনতে না গিয়ে গ্রামের একটি জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে সাহেব আলী।

পরে শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় বাড়িতে রেখে আত্মগোপনে চলে যায় ধর্ষণকারী। তাৎক্ষণিক গ্রামবাসী তাকে চাপান গ্রাম থেকে আটক করে উত্তমমধ্যম দিয়ে পুলিশে হাতে তুলে দেয়। 

শিশু ধর্ষণের ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান পুলিশের এ কর্মকর্তা।

বাংলাদেশ সময়: ২১৩২ ঘণ্টা, মার্চ ২০, ২০১৯
জিপি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: ধর্ষণ
পরিবারের মধ্যমনি ছিলো ‘নুসরাত’
 প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞ নুসরাতের বাবা
হিলি স্থলবন্দরে আমদানি-রপ্তানি বন্ধ
রমজানে পণ্যমূল্য সহনীয় রাখার নির্দেশ বাণিজ্যমন্ত্রীর
গোবিন্দগঞ্জে বাল্যবিয়ের দায়ে কাজীর কারাদণ্ড


বিএনপির নির্বাচিতদের শপথ নেওয়ার আহবান ডেপুটি স্পিকারের
চকরিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় উন্নয়নকর্মী নিহত
সোহেল হত্যা মামলার আসামি জাবেদ ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত
ময়মনসিংহে প্রাইভেটকার চোরসহ আটক ৯
নবাবগঞ্জে ইছামতি নদী থেকে এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার