php glass

বাবাকে বাস থেকে ফেলে মেয়েকে হত্যা মামলা পিবিআইতে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন

walton

ঢাকা: আশুলিয়ায় বৃদ্ধ বাবাকে বাস থেকে ফেলে দিয়ে জরিনা নামে এক মেয়েকে হত্যার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনে (পিবিআই) স্থানান্তর করা হয়েছে।
 

রোববার (১১ নভেম্বর) বিকেলে বিষয়টি বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সদর দফতরের সহকারী মহাপরিদর্শক (এআইজি-মিডিয়া) সোহেল রানা।
 
তিনি জানান, ঘটনাটি গুরুত্ব দিয়ে পুলিশের বিভিন্ন ইউনিট কাজ শুরু শুরু করেছে। চাঞ্চল্যকর এই মামলাটির দায়িত্বভার এরইমধ্যে পুলিশের বিশেষায়িত ইউনিট পিবিআইকে দেওয়া হয়েছে। মামলার সব নথিপত্র তাদেরকে হস্তান্তর করা হয়েছে। জড়িতদের শনাক্ত করে আইনের আওতায় নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে।
 
এর আগে শনিবার (১০ নভেম্বর) রাতে আশুলিয়া থানা থেকে মামলাটি ঢাকা জেলা উত্তর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়।
 
শুক্রবার (০৯ নভেম্বর) দুপুরে জরিনা তার বাবাকে নিয়ে আশুলিয়ার গাজীরচট এলাকায় মেয়ের বাড়িতে বেড়াতে যান। পরে সেখান থেকে সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে বাবাকে সঙ্গে নিয়েই বাসে করে স্বামীর বাড়ি টাঙ্গাইলের উদ্দেশে রওনা দেন। এসময় বাসচালক, হেলপার ও সুপারভাইজারসহ কয়েকজনের সঙ্গে বাবা-মেয়ের বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে জরিনার বাবা আকবর আলী মণ্ডলকে মারধর করে চলন্ত বাস থেকে ব্রিজের নিচে ফেলে দেওয়া হয়। পরে জরিনাকে মারধর করে হত্যার পর মহাসড়কের পাশে মরাগঙ্গ এলাকায় মরদেহ ফেলে পালিয়ে যান চালক, হেলপার ও সুপারভাইজার।
 
এ ঘটনায় নিহত জরিনার মেয়ের জামাই নুর ইসলাম বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। যা ডিবি পুলিশ হয়ে পিবিআইতে হস্তান্তর করা হলো।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৭২৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১১, ২০১৮
পিএম/জেডএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: হত্যা পুলিশ
বিদেশি শিক্ষার্থী ভর্তিতে যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণের তাগিদ
কোটালীপাড়ায় ২ মোটরসাইকেলের সংঘর্ষে পুলিশসহ নিহত ২
কলকাতা থেকে প্রকাশ পাচ্ছে সুমন-বৃষ্টির দ্বৈতগান
একমির উদ্যোক্তা পরিচালক সিনহার শেয়ার কেনার ঘোষণা
অভিশংসন খড়গে ট্রাম্প  


অজয় রায়ের প্রতি সর্বস্তরের শ্রদ্ধা নিবেদন
প্রেস কাউন্সিল চেয়ারম্যানের চুক্তির মেয়াদ বাড়লো
‘জনপ্রিয় নেত্রী হওয়ায় খালেদাকে বন্দী রাখা হয়েছে’
নড়াইল মুক্ত দিবসে র‌্যালি-আলোচনা সভা
নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের আশঙ্কা