php glass

ঠাকুরগাঁওয়ে পাঁচ নদীর পানি বৃদ্ধি, নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

টানা বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা ঢলের পানিতে ঠাকুরগাঁওয়ের টাঙ্গন, সেনুয়া, শুক, নাগর ও কুলিক নদীর পানি বেড়েছে। এতে শহরের কলেজপাড়া নয়াবস্তি ও খালপাড়ার শতাধিক মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন।

ঠাকুরগাঁও: টানা বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা ঢলের পানিতে ঠাকুরগাঁওয়ের টাঙ্গন, সেনুয়া, শুক, নাগর ও কুলিক নদীর পানি বেড়েছে। এতে শহরের কলেজপাড়া নয়াবস্তি ও খালপাড়ার শতাধিক মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছেন।

কলেজপাড়া নয়া বস্তির পানিবন্দি চান মিয়া জানান, বর্ষণে টাঙ্গন নদীতে পানি বেড়ে যাওয়ায় বস্তির মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। এ ব্যাপরে স্থায়ী সমাধানের দাবি জানালেও কোনো লাভ হয়নি।

পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, জেলার প্রধান নদী টাঙ্গনে ৫৯ দশমিক ৩০০ সেন্টিমিটার পানি প্রবাহিত হচ্ছে।

এদিকে টানা বর্ষণে ঠাকুরগাও সদর, বালিয়াডাঙ্গী ও রানীশংকৈল উপজেলার কয়েকশ হেক্টর আমন তে পানির নিচে তলিয়ে গেছে।

সদর উপজেলার ফকদন পুর গ্রামের কৃষক আলাউদ্দিন জানান, অতিবর্ষণে ১২ বিঘা আমন তে তলিয়ে গেছে। বৃষ্টি আরো হলে ফসল নষ্ট হয়ে যাবে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় সদরে ৬৬ মিলিমিটার, বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায় ৮২ মিলিমিটার ও রানীশংকৈলে ২৬ মিলিমিটার  বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক দলিল উদ্দিন জানান, বর্ষণে বেশ কিছু আমন তে তলিয়ে গেছে। তবে দু’এক দিনের মধ্যে পানি সরে গেলে তি হবে না। আর বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকলে সেেেত্র নিম্নাঞ্চলের ফসল নষ্ট হতে পারে।

জেলা প্রশাসক শহিদুজ্জামান জানান, ঠাকুরগাঁও উচু এলাকা। পানি সরে যেতে দু’একদিন সময় লাগবে। তখন পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে। ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা করে ত্রাণ সহায়তা দেওয়ার হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৪২ ঘণ্টা, আগস্ট ১৭, ২০১০

মহানবী (সা.)-এর প্রিয় ফল জায়তুন
হুমায়ূন আহমেদ স্মরণে শিল্পকলার মঞ্চে ‘দেবী’
প্রবাসে এনআইডি: দুবাইয়ে কার্যক্রম শুরু ১৮ নভেম্বর
বুড়িচংয়ে ইলিশবোঝাই ট্রাক খাদে পড়ে নিহত ২
সাড়ে ৫শ’ যাত্রী নিয়ে কালীগঞ্জের চরে আটকা লঞ্চ 


অরগ্যানিক পদ্ধতিতে চাষে গুরুত্ব দিচ্ছে ত্রিপুরা সরকার
বাহুবলে দুইজনকে কুপিয়ে মালামাল লুট, অস্ত্রসহ ডাকাত আটক
একা বেড়ে ওঠা বাচ্চাদের ওজন বেশি হয়!
আশুগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত
সাংবাদিক পরিচয়েও রক্ষা পেলেন না মাদকবিক্রেতা