ভাষাণটেকে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

রাজধানীর কাফরুলের ভাষাণটেক এলাকায় শুক্রবার দিবাগত রাতে র‌্যাবের সঙ্গ কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক যুবক নিহত হয়েছে। এ সময় গুলিভর্তি একটি অস্ত্রও উদ্ধার করে র‌্যাব।

ঢাকা: রাজধানীর কাফরুলের ভাষাণটেক এলাকায় শুক্রবার দিবাগত রাতে র‌্যাবের সঙ্গ কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক যুবক নিহত হয়েছে। এ সময় গুলিভর্তি একটি অস্ত্রও উদ্ধার করে র‌্যাব।

নিহতের নাম শহীদ ওরফে নাটু শহীদ (২৮)। তার  বাবার নাম সিরাজ ভাণ্ডারি। শহীদ ১নং ভাসানটেক বস্তিতে থাকতেন। র‌্যাবের দাবি, নাটু শহীদ কাফরুল থানার তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী।

র‌্যাব সূত্রে জানা যায়, নাটু শহীদ তার সাত-আটজন সহযোগীসহ পশ্চিম ভাসানটেক বালুরমাঠ এলাকায় জড়ো হয়েছে- এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৪’র একটি দল শুক্রবার দিবাগত রাত আড়াইটার দিকে সেখানে রওয়ানা হয়।

রাত পৌনে তিনটার দিকে ওই স্থানে পৌঁছলে সন্ত্রাসীরা র‌্যাবকে ল করে গুলি ছোড়ে। র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালালে এক ব্যক্তি গুলিবিদ্ধ অবস্থায় লুটিয়ে পড়ে এবং অন্যরা পালিয়ে যায়।

কাফরুল থানার কর্তব্যরত কর্মকর্তা সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মো. হাসান বাংলানিউজকে জানান, রাত তিনটার দিকে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে গুলিবিদ্ধ যুবককে নাটু শহীদ বলে শনাক্ত করে।

আশঙ্কাজনক অবস্থায় শহীদকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

র‌্যাব-৪ এর সিনিয়র সহাকারী পরিচালক নূরুল আমিন বাংলানিউজকে বলেন, নাটু শহীদ শীর্ষ সন্ত্রাসী ইব্রাহীমের ঘনিষ্ঠ সহযোগী। সে কাফরুল থানায় একটি জোড়া খুনের আসামি।

এছাড়াও শহীদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের একাধিক মামলা রয়েছে।

উল্লেখ্য, এ নিয়ে চলতি ফেব্রুয়ারি মাসে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হওয়ার এটি তৃতীয় ঘটনা। গত জানুয়ারি মাসে পুলিশ ও র‌্যাবের সঙ্গে বিচার বহির্ভূত এ রকম নিহত হওয়ার সংখ্যা ছিল পাঁচজন।

বাংলাদেশ সময়: ১১০৬ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০১১

যৌন হয়রানির অভিযোগে কলেজশিক্ষক বরখাস্ত
নীলফামারীতে ফের মৃদু শৈত্যপ্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত
কৃষি জমির মাটি যাচ্ছে ইটভাটায়, ফসল-সড়কের ক্ষতি
ঈশ্বরগঞ্জে ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত
রাজধানীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক ব্যক্তি নিহত


কেরানীগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৪
আক্কেলপুরে ট্রেনের ধাক্কায় ব্যবসায়ী নিহত
না’গঞ্জে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে জখম
যশোরে গৃহবধূ ধর্ষণে সেই এসআইয়ের সম্পৃক্ততা পায়নি পিবিআই
‘এক মৃত ব্যক্তির অঙ্গদানে বাঁচতে পারেন আটজন’