রাজধানীর আলোচিত অপরাধ

গোয়েন্দা পুলিশের ভূমিকায় প্রশ্নবিদ্ধ থানা পুলিশের তদন্ত

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

রাজধানীতে সংঘটিত চাঞ্চল্যকর হত্যাকাণ্ডসহ বিভিন্ন অপরাধের সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তারে গোয়েন্দা পুলিশের সাফল্যর কাছে প্রশ্নবিদ্ধ হতে চলেছে থানাপুলিশের ভূমিকা।

ঢাকা: রাজধানীতে সংঘটিত চাঞ্চল্যকর হত্যাকাণ্ডসহ বিভিন্ন অপরাধের সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তারে গোয়েন্দা পুলিশের সাফল্যর কাছে প্রশ্নবিদ্ধ হতে চলেছে থানাপুলিশের ভূমিকা।

প্রতিটি আলোচিত অপরাধের ছায়া তদন্ত করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। মূল তদন্তের দায়িত্ব থাকে সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশের হাতে।

সাম্প্রতিক সময়ে ঘটে যাওয়া নানা অপরাধের ছায়া তদন্তে অনেক সফলতা দেখিয়েছে ডিবি। ছায়া তদন্তকারীরাই ধরেছে ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্ত আসামিদের, তারাই উদঘাটন করেছে নেপথ্যের রহস্য। কিন্তু ওই সব মামলার মূল দায়িত্ব পালনকারী থানাপুলিশ প্রায় ঘটনাতেই পুরো ব্যর্থতার ছাপ রেখেছেন।

মামলার তদন্তকারী ও তত্ত্বাবধায়ক পুলিশ কর্মকর্তার দক্ষতা, নিরপেক্ষতা, আন্তরিকতা নিয়ে নানা প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। প্রশ্ন উঠেছে খোদ পুলিশ প্রশাসনের মধ্যেই। প্রশ্ন উঠেছে থানা-পুলিশের ভাবমূর্তি নিয়েও।

থানাপুলিশের এমন নীরব ভূমিকায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অপরাধের শিকার হওয়া মানুষজন। এরই পরিপ্রেক্ষিতে তারা থানা পুলিশের বিরুদ্ধে বিভিন্ন ধরনের অভিযোগও তুলেছেন সরাসরি।

নতুন বছরের শুরুতে রাজধানীতে বেশ কয়েকটি চাঞ্চল্যকর ঘটনা সংগঠিত হয়েছে। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে ৯ জানুয়ারি সন্ত্রাসীদের হাতে শেরেবাংলানগর থানার ফার্মগেট সংলগ্ন ইন্দিরা রোডের বাড়িতে এক খ্রিস্টান পরিবারের মা ও ছেলে খুন, ১০ জানুয়ারি মতিঝিল বাণিজ্যিক এলাকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে ৩২ নম্বর ওয়ার্ড যুবদলের আহবায়ক শহীদ হোসেন মোল্লা খুন, ১৪ জানুয়ারি ৪১ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফজলুল হককে গুলি করে হত্যার ঘটনা।

এছাড়া শেরেবাংলানগর থানার পশ্চিম শেওড়াপাড়ার একটি তালাবদ্ধ ফ্যাট থেকে উদ্ধার করা হয় রমনা মসজিদের ইমাম মাওলানা ইসহাকের গলিত মৃতদেহ। দুর্বৃত্তরা ঘর ভাড়া নিয়ে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে অত্যন্ত নৃশংস কায়দায় তাকে হত্যা করে।

আলোচিত এসব ঘটনার পর সংশ্লিষ্ট থানাপুলিশ ছিল অনেকটাই নির্লিপ্ত। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ঘটনাস্থল পরিদর্শন, লাশ উদ্ধারপূর্বক ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো আর থানায় অপমৃত্যু মামলা রুজু করার মধ্যেই সীমাবদ্ধ ছিল থানা পুলিশের ভূমিকা। কর্মদক্ষতা, প্রশিক্ষণ শিক্ষাকে কাজে লাগিয়ে তদন্ত ক্ষেত্রে একধাপও এগোতে দেখা যায়নি থানা পুলিশ কর্মকর্তাদের।

থানাগুলোতে তদন্তের দায়িত্বে নতুন নিয়োগ দেওয়া ইন্সপেক্টরাও বিশেষ কোনো ভূমিকা রাখতে পারছেন না বলে পুলিশের একাধিক সূত্রে জানা গেছে। এছাড়া মামলার বাদিকে বিভিন্ন ধরনের হুমকির একগাদা অভিযোগ রয়েছে থানা পুলিশের প্রতি।

৪১ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফজলুল হক হত্যাকাণ্ডের পর এর তদন্ত নিয়ে থানা পুলিশ যখন অন্ধকারে হাবুডুবু খাচ্ছিল, ঠিক তখনই ডিবি (উত্তর) সদস্যরা ওই ঘটনায় জড়িত ৩ জনকে গ্রেপ্তার করে থানায় সোপর্দ্দ করে। ২২ জানুয়ারি রমনা মসজিদের ইমামের তিন খুনিকেও গ্রেপ্তার করে ডিবি (দক্ষিণ)।

২৩ জানুয়ারি ইন্দিরা রোড়ে মা ব্রিজানিয়া রোজারিও এবং ছেলে ভ্যালেন্টাইন ওরফে মিল্টন রোজারিও’র চাঞ্চল্যকর হত্যার সঙ্গে জড়িত তিন ঘাতককে গ্রেপ্তার করে ডিবি (উত্তর)। ২৪ জানুয়ারি ডিবি (দক্ষিণ) ৩২ নম্বর ওয়ার্ড যুবদলের আহবায়ক শহীদ হোসেন মোল্লা হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত দুইজনকে গ্রেপ্তার করে সাংবাদিকদের সামনে হাজির করে।

এর আগে বনানীতে জোড়া খুনের ঘাতকদেরও গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা বিভাগ।

এ ব্যাপারে ডিবি (দক্ষিণ) উপকমিশনার মো. মনিরুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, ‘আমাদের কাজ প্রত্যেকটি ঘটনার ছায়া তদন্ত করা। এ ব্যাপারে থানার সঙ্গে আমাদের তদন্তের কোনো সম্পর্ক নেই।’ তবে অপরাধী ধরতে থানা পুলিশের ব্যর্থতার বিষয়ে তিনি কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

থানা পুলিশ আর গোয়েন্দা পুলিশের সাফল্যকে আলাদা করে দেখতে রাজি নন তেজগাঁও জোনের উপ-কমিশনার সেলিম মো. জাহাঙ্গীর। বাংলানিউজকে তিনি বলেন, ‘ডিবি আর থানা আলাদা নয়। তবে আসামি ধরার জন্য ডিবি যতটুকু কনসেনট্রেট (মনযোগ) করতে পারে থানাপুলিশ ততটুকু পারে না।’

এর কারণ হিসেবে তিনি তদন্ত কর্মকর্তাদের তদন্তের বাইরে আরও নানামুখী কাজের ব্যস্ততাকে দায়ী করেন।

অন্যদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক পুলিশ কর্মকর্তা জানান, যে কোনো অপরাধের ব্যাপারে থানা-পুলিশের তদন্তকে ‘উপর মহল’ ও ‘অর্থ’—এ দুয়ের মাধ্যমে সহজে প্রভাবিত করার সুযোগ থাকে। এ কারণেও অনেক আসামিকে ধরা সম্ভব হয় না।
তবে মামলাগুলোর প্রথম ধাপে গোয়েন্দা পুলিশের ভূমিকা ভাল দেখালেও তাদের কাছে তদন্তাধীন মামলাগুলো ঝুলে থাকে।

বাংলাদেশ সময়: ১২৫১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৭, ২০১১

বিএনপির ভোট করার অভ্যাস নেই: আইনমন্ত্রী 
পিকআপভ্যানের মুরগির খাঁচা থেকে গাঁজা জব্দ, আটক ৩
ক্যারিয়ারের শেষ টেস্ট খেলতে নেমে শাস্তি পেলেন ফিল্যান্ডার
‘নির্দেশ মানতে গিয়ে মার খেতে হয়েছে’
সিলেটে বাসচাপায় বৃদ্ধ নিহত


ওয়ারীতে শ্রমিকদল নেতা গুলিবিদ্ধ
মুক্তিযোদ্ধা হোসেন আলী হত্যা মামলায় ৩ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ
‘করোনা ভাইরাস রোধে প্রবেশদ্বারে স্ক্যানার বসানো হয়েছে’
‘ধর্ম ব্যবহার করে কেউ যেনো সাম্প্রদায়িকতা না ছড়ায়’
সেরা স্টল বিভাগে পুরস্কার পেল গ্রীন ডেল্টা