php glass

জাবিতে ছাত্রলীগের সংঘর্ষ: সন্ধ্যায় জরুরি সিন্ডিকেট বৈঠক

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের রক্তয়ী সংঘর্ষের পরিপ্রেক্ষিতে সন্ধ্যায় সিন্ডিকেটের জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছে।

সাভার: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের রক্তয়ী সংঘর্ষের পরিপ্রেক্ষিতে সন্ধ্যায় সিন্ডিকেটের জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছে।

হলে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সোমবার সকালের ওই সংঘর্ষে কমপক্ষে অর্ধশতাধিক ছাত্র আহত হন। এদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ দুইজনসহ এ পর্যন্ত ১৫ জনকে গুরুতর অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

উপাচার্য অধ্যাপক ডক্টর শরীফ এনামূল কবির বলেছেন, ‘শিক্ষার পরিবেশ রায় কঠোর পদপে গ্রহণে প্রশাসন  পেছপা হবে না। পরিস্থিতি পর্যালোচনায় সন্ধ্যায় সিন্ডিকেটের জরুরি বৈঠক ডাকা হয়েছে।’

ঢাকা জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোজাম্মেল হক বলেন, ‘জড়িতরা যে দলেরই হোক তাদের খুঁজে বের করা হবে। অবৈধ অস্ত্রের সন্ধানে শিগগির অভিযান চালানো হবে।’

সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে আল বেরুনী হলে এ সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়। পরে এর জের ধরে শহীদ সালাম বরকত ও আফম কামাল উদ্দিন হলে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে।

আল বেরুনী হলে ছাত্রলীগ নেতা এমিলের অনুসারীরা অপর পক্ষের নেতা সজীব ও তার অনুসারীদের ওপর হামলা চালিয়ে হল থেকে বের করে দেন। এতে গুরুতর আহত সজীবকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টারে নেওয়া হলে সেখানেও এমিলের অনুসারীরা রামদা নিয়ে সজীবকে দ্বিতীয় দফায় কোপায়।

এ খবর পেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শরীফ এনামূল কবির, প্রক্টরসহ ঊর্ধ্বতন শিকরা আহতদের দেখতে গেলে এমিলের অনুসারীরা তাদেরও ধাওয়া করে।

এর পরপরই ছাত্রলীগের দু’পক্ষের মধ্যে ফের সংঘর্ষ শুরু হয়।

প্রত্যক্ষদর্র্শীরা জানিয়েছেন, এসময় তারা অন্তত ১০ রাউন্ড গুলির শব্দ শুনেছেন। বিভিন্ন কে করা হয় ভাঙচুর। আত্মরক্ষার্থে হলের অনেক ছাত্র লাফিয়ে পড়ে আহত হন। পরে তাদের উদ্ধার করে মেডিকেল সেন্টারে নেওয়া হয়। গুরুতর আহতদের পাঠানো হয় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে।

বিশ্ববিদ্যালয় চিকিৎসা কেন্দ্রের প্রধান চিকিৎসক ডা. একেএম আব্দুল হান্নান বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম.বিডিকে বলেন, ‘আমরা প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে এ পর্যন্ত ১৫ জনকে ঢাকায় পাঠিয়েছি।’

চিকিৎসক ডা. শামছুর রহমান বলেন, ‘আহতদের অনেককেই সংজ্ঞাহীন অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।’ গুরুতর আহত কয়েকজন ছাত্রকে পরিবহন সংকটের কারণে ঢাকায় পাঠানো যাচ্ছিল না বলেও জানান তিনি।

আহতদের মধ্যে ১৪ জনের নাম জানা গেছে।

এরা হলেন,  জাহিদ, সজীব, জয়ন্ত, সোহেল, রিয়েল, আরিফ, সকাল, বিজয়, এমিল, নাহিদুল, শিমূল ও উজ্জ্বল।

ঘটনার পর বিশ্ববিদ্যালয়ে বিপুল সংখ্যক পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। ক্যাম্পাসের সার্বিক পরিস্থিতি থমথমে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৫ ঘণ্টা, জুলাই ০৫, ২০১০

বিষাক্ত তরল পানে ৩ মৃত্যুর ঘটনায় আটক ২
সড়ক অপসারণ ইউএনওর নেতৃত্বে
গাজীপুরে ডায়রিয়ার প্রকোপ, একজনের মৃত্যু 
এআরএফের সভাপতি আশরাফ আলী, সাধারণ সম্পাদক মাকসুদুল হাসান
বড় জয়ে মুশফিকদের শুভ সূচনা 


আত্মহত্যা করতে চেয়েছিলেন নেহা কাক্কর
দেশের অষ্টম শক্তিশালী ব্র্যান্ড স্বপ্ন
এবার শুরু হবে এক দফার আন্দোলন: মিনু
পরীক্ষামূলক চালু হলো ঢাকা-সিকিম বাস সার্ভিস
টেকনাফে পাল্টাপাল্টি ছুরিকাঘাতে জামাই-শাশুড়ি খুন