তিনটি ভাষায় ‘লালটিপ’ ছবির ডাবিং শুরু

19 | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

বাংলাদেশ ও ফ্রান্সের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ছবি ‘লাল টিপ’ ছবির ডাবিং শুরু হয়েছে।  বেইলি রোডের একটি স্টুডিওতে ২ জুলাই থেকে শুরু হওয়া এই ডাবিংয়ে অংশ নিয়েছেন ছবির প্রধান দুটি চরিত্রের অভিনয়শিল্পী ইমন ও কুসুম। স্বপন আহমেদ পরিচালিত এ ছবিটির ডাবিং হচ্ছে বাংলা, ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চ ভাষায়।

php glass

বাংলাদেশ ও ফ্রান্সের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ছবি ‘লাল টিপ’ ছবির ডাবিং শুরু হয়েছে।  বেইলি রোডের একটি স্টুডিওতে ২ জুলাই থেকে শুরু হওয়া এই ডাবিংয়ে অংশ নিয়েছেন ছবির প্রধান দুটি চরিত্রের অভিনয়শিল্পী ইমন ও কুসুম। স্বপন আহমেদ পরিচালিত এ ছবিটির ডাবিং হচ্ছে বাংলা, ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চ ভাষায়।

ইমন-কুসুম জুটি বেঁধে এর আগে ‘গহীনে শব্দ’ নামের একটি ছবিতে কাজ করেছিলেন। এটি এই জুটির দ্বিতীয় ছবি। বাংলাদেশে ছবিটি প্রযোজনা করছে ইমপ্রেস টেলিফিল্ম। এতে আরো অভিনয় করছেন এ টি এম শামসুজ্জামান, সোহেল খান, শহীদুল আলম সাচ্চু, মিশু, কোনালসহ অনেকেই। ‘লাল টিপ’ ছবির পরিচালক স্বপন আহমেদ বাংলানিউজকে জানালেন, মে মাসে শেষ হয়েছে ছবিটির শুটিং। বর্তমানে চলছে ছবিটির ডাবিংয়ের কাজ। আগস্ট মাসে ছবিটি যাবে এডিটিং টেবিলে। আশা করছি, এ বছরের শেষ নাগাদ ছবিটি মুক্তি দেওয়া যাবে।


‘লাল টিপ’ ছবির শুটিং হয়েছে ফ্রান্স, থাইল্যান্ড ও বাংলাদেশের বিভিন্ন লোকেশনে। এতে দেখা যাবে, একটি মেয়ে ফ্রান্সে জন্ম নেয়। সেখানকার সংস্কৃতিতেই বড় হয়ে উঠে। ইউএনডিপির একটি প্রকল্পে যোগ দেয় বাংলাদেশের এক তরুণ। মেয়েটির সঙ্গে তার পরিচয় হয়। এরপর ছবির গল্প নাটকীয় টানাপোড়েনের মধ্য দিয়ে এগিয়ে যায়। একসময় আলাদা হয়ে যায় দুজন। শেষ পর্যন্ত তাদের আর দেখা হবে কি না, কেউ কারও খোঁজ পাবে কি না, এই নিয়ে এগিয়ে চলে কাহিনী।

ছবির ডাবিংয়ে অংশ নেওয়ার একফাঁকে ইমন বাংলানিউজকে বললেন, এ ছবিটিকে আমি বাংলাদেশের দিনবদলে চলচ্চিত্র বলে মনে করি। এটি পুরোপুরি একটি বাণিজ্যিক চলচ্চিত্র। গতানুগতিক কোনো গল্পের ছবি নয়। ছবিটির মাধ্যমে আমাদের বাঙালি সমাজ ও সংস্কৃতির একটা আবহ ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।। ছবির গল্প, ক্যামেরার কাজ, পরিচালনা,  লোকেশন সবকিছুতেই দর্শক পাবেন নতুনত্ব ।

‘লাল টিপ’ ছবিটি নিয়ে ভীষণ আশাবাদী। তিনি বললেন, এত দিন যে ছবিগুলোতে কাজ করেছি, সেগুলো যেকোনো কারণেই হোক, বড় রকমের আলোচনায় আসেনি। কিন্তু ‘লাল টিপ’ হবে আমার টার্নিং পয়েন্ট। শুধু আমার-ই নয়। আমি মনে করি, এটি বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের মোড় ঘুড়িয়ে দেওয়ার মতো একটি ছবি।

বাংলাদেশ সময় ১৯৩০, জুলাই ০৩, ২০১১

জলবায়ু পরিবর্তনের ঝুঁকি মূল্যায়নে কর্মশালা 
কা‌লিয়াকৈরে ট্রাকের ধাক্কায় যুবক নিহত
হবিগঞ্জে চা শ্রমিকদের কর্মবিরতি
জাউ ভাত খেয়ে বেঁচে আছেন খালেদা জিয়া: রিজভী
জকোভিচকে হারিয়ে ইতালিয়ান মাস্টার্স জিতলেন নাদাল 


পাঁচ নদীর দখল-দূষণ রোধে মাস্টারপ্ল্যান হচ্ছে
শেখ হাসিনাকে বরণ করতে অপেক্ষা করছে জাপান: রাষ্ট্রদূত
শ্রীমঙ্গলে চা মৌসুমের প্রথম নিলাম 
চার সংবাদমাধ্যমে জেলা পর্যায়ে সাংবাদিকতার সুযোগ
দেড়কেজি মুরগির দামে এক কেজি ফুলকপি