কাচের মধ্যে পানি, পানির মধ্যে ফুল

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

স্বচ্ছ কাচের পাত্রে স্বচ্ছ পানি, তার মধ্যে ডুব দিয়ে থাকা রঙবেরঙের তাজা ফুল সৌন্দর্য বিলিয়ে যাচ্ছে, এমন দৃশ্য সহসা আপনার চোখে পড়বে না।

স্বচ্ছ কাচের পাত্রে স্বচ্ছ পানি, তার মধ্যে ডুব দিয়ে থাকা রঙবেরঙের তাজা ফুল সৌন্দর্য বিলিয়ে যাচ্ছে, এমন দৃশ্য সহসা আপনার চোখে পড়বে না। কারণ আমাদের দেশে ফুল সাজানোর এ পদ্ধতি এখনও জনপ্রিয়তা পায়নি। তাছাড়া পানির মধ্যে ফুল সাজিয়ে কয়েক দিন ধরে রাখা যায় তা হয়তো অনেকেই এখনো বিশ্বাস করেন না। আপনিও ভাবতে পারেন পানির মধ্যে ফুল ডুবিয়ে রাখলে তো পচে যাবে। কিন্তু বিষয়টি একেবারেই সে রকম নয়। পানির মধ্যেও ফুল সাজিয়ে কয়েকদিন সংরক্ষণ করা যায়। আর এভাবে ফুল সাজিয়ে রাখলে তা আপনার ঘরে এনে দেবে আলাদা এক সৌন্দর্যের আবহ। এনে দেবে আভিজাত্য আর রুচির ছোঁয়া। মোমের আলোর সঙ্গে এভাবে সাজানো ফুলের পাত্র রাতে ঘরে ফুটিয়ে তুলবে অন্যরকম এক পরিবেশ, যা আপনি কল্পনাও করতে পারবেন না। বিশ্বাস না হলে একবার চেষ্টা করে দেখুন বিফলে যাবেন না।

এজন্য কারো কাছে আপনাকে এ বিষয়ে শেখার জন্য যেতে হবে না। আপনি বাসায় বসেই এটা করতে পারবেন। শুধু দরকার শৈল্পিক মানসিকতা আর সুন্দর রুচিবোধ। আলাদা কোনো খরচাপাতিরও ব্যাপার নেই। ইচ্ছা থাকলে আজই কাজে লেগে যেতে পারেন।

প্রথমেই আপনাকে যে বিষয়গুলো ভাবতে হবে তা হলো পাত্র নির্বাচন। ভেতরে ফুল রাখলে নান্দনিকতা ফুটে ওঠে এমন পাত্র নির্বাচন করতে হবে। সাধারণত গ্লাসের মতো গোলাকার বা চৌকোনা লম্বা পাত্র হলে ভালো হয়। মোটা পাপড়িওয়ালা ফুল হলে ভালো হয়। যেমন অর্কিড বা টিউলিপ। তাছাড়া অন্য যে কোনো ফুল নির্বাচন করা যেতে পারে। 

ছোট-বড় আকারের কয়েকটি গোলাকার বা চৌকোনা পাত্র নির্বাচন করুন। সবগুলোতেই একই ধরনের ফুল ব্যবহার করতে পারেন। অথবা ভিন্ন ধরনেরও হতে পারে। তবে রঙের দিকে অবশ্যই দৃষ্টি রাখতে হবে এবং তা অবশ্যই আপনার রুচি অনুযায়ী। আকর্ষণ বাড়ানোর জন্য পাত্রের তলায় নুড়ি, পাথরের টুকরো, পুঁথি, মার্বেল অথবা ক্রিস্টাল ব্যবহার করতে পারেন। ফুল স্থাপনের পর আপনি ইচ্ছ করলে রোমান্টিক পরিবেশের জন্য এর ওপর রঙিন মোমবাতিও ভাসিয়ে রাখতে পারেন।
এখন চলুন কীভাবে কাজটি করতে হবে তা বুঝে নেওয়া যাক :

১.    পাত্র নিন। নুড়ি, পাথর, মার্বেল, পুঁথি অথবা আপনার ইচ্ছামতো ছোট ছোট জিনিস পাত্রের তলায় রাখুন। রঙের ব্যাপারটি আপনাকেই নির্বাচন করতে হবে।

২.    প্রত্যেক পাত্রের জন্য দুটি অথবা তিনটি ফুল নির্বাচন করুন। পাত্রের উচ্চতা অনুযায়ী কেটে নিন। ফুলগুলো যদি একই শাখায় পরপর সাজানো থাকে তাহলে ভালো হয়। না হলে আলাদা করে কেটে নেওয়া ফুলগুলো রাবার ব্যান্ড অথবা সুতা দিয়ে বেঁধে নিন।   

৩.    ফুলগুলো যাতে ভেসে না ওঠে তার জন্য একটু ভারি কোনোকিছু ফুলের গোড়ার দিকে বেঁধে দিন। 

৪.    নিশ্চিত হয়ে নিন বেঁধে দেওয়া ভারি জিনিস ছুটে গিয়ে ফুলগুলো পানিতে ভেসে উঠবে কি-না। ফুলগুলো পাত্রের মধ্যে সাবধানে রাখুন।

৫.    এরপর আস্তে আস্তে পাত্রগুলো ডিসটিলড ওয়াটার দিয়ে পূর্ণ করুন। কানায় কানায় পূর্ণ না করে একটু খালি রাখুন।
       ব্যস হয়ে গেল। এর ওপর ইচ্ছা করলে আপনি রঙিন মোমবাতি ভাসিয়ে রাখতে পারেন।

এভাবে সাজানো পাত্রগুলো এখন ইচ্ছামতো ঘরের যে কোনো জায়গায় রাখতে পারেন। রাখতে পারেন খাবার টেবিলে, চায়ের টেবিলে, ড্রয়িং রুমে কিংবা আপনার রুচি আর বাসার পরিবেশ অনুযায়ী যেখানে খুশি। মৃদু আলোর মাঝে এই ফুলের পাত্রের চারপাশ দিয়ে ছোট ছোট মোম জ্বালিয়ে রাখুন, অদ্ভুত সুন্দর লাগবে। ঘরে  আসবে রোমান্টিক আবহ।

বাংলাদেশ স্থানীয় সময় ১১৪৫, অক্টোবর ২৬, ২০১০

কবি জীবনানন্দ দাশের জন্ম
ইতিহাসের এই দিনে

কবি জীবনানন্দ দাশের জন্ম

বেনাপোলে ১৪টি স্বর্ণের বারসহ পাচারকারী আটক
সেনা জওয়ানদের ওপর হামলার প্রতিবাদে পথে নামলো রাজ্যবাসী
‘একুশে ফেব্রুয়ারি জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করেছে’
চট্টগ্রামে গ্যাসের প্রধান লাইন কাটা, সরবরাহ বন্ধ


‘ব্যবসায়ীদের দাবি-দাওয়া পূরণের সময় এসেছে’
কাশ্মীর হামলা নিয়ে মন্তব্য: কপিলের শো থেকে বাদ সিধু
পুঠিয়ায় ফেনসিডিলসহ মাদকবিক্রেতা আটক
জমজমাট বইমেলা, ধারা অব্যাহত থাকার আশা প্রকাশকদের
বরিশালে চারুকলার আয়োজনে দেয়াল চিত্রাঙ্কন