ঢাকা, রবিবার, ৩ মাঘ ১৪২৭, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

আইন ও আদালত

স্কুলছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণ মামলায় যুবকের যাবজ্জীবন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭০৪ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৫, ২০২০
স্কুলছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণ মামলায় যুবকের যাবজ্জীবন

গাইবান্ধা: গাইবান্ধায় স্কুলছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণ মামলায় মারুফুল ইসলাম (৩২) নামে এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও তিন মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

বুধবার (২৫ নভেম্বর) বিকেলে পৌনে ৩টার দিকে জেলা জজকোর্টের নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক কাজী মুরাদে মওলা এ আদেশ দেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত মারুফুল সদর উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের মৃত বজলুর রহমানের ছেলে।

মামলার এজাহারে জানা যায়, ২০১৩ সালের ২ জানুয়ারি গাইবান্ধা সরকারি বালিকা বিদ্যালয়ের গেটের সামন থেকে নবম শ্রেণির ওই ছাত্রীকে অপহরণ করেন মারুফুল। পরে ওই শিক্ষার্থীকে টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে নিয়ে ঘরে আটকে একাধিকবার ধর্ষণ করেন। এ ঘটনার ওই ছাত্রীর বাবা বাদি সদর থানায় হয়ে অপহরণ ও ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন। পরে পুলিশ মির্জাপুরে অভিযান চালিয়ে মারুফুলকে গ্রেফতার ও নির্যাতিত ওই স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করে।  

আদালতের স্পেশাল পাবলিক প্রসিউকিটর (এপিপি) মহিবুল হক সরকার মোহন বাংলানিউজকে জানান, মামলার দীর্ঘ শুনানি ও সাক্ষীদের সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে আদালত যাবজ্জীবন কারাদণ্ডসহ জরিমানা করেন। এসময় আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। পরে তাকে গাইবান্ধা জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।  

বাদি পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট জাঙ্গাহীর হোসেন বাংলানিউজকে জানান, এ মামলায় মারুফুল হাইকোর্ট থেকে অন্তবর্তীকালীন জামিনে ছিলেন। রায়ের দিন দুপুরে আদালতে হাজির হলে আদালত তাকে দোষী সাব্যস্ত করে এ রায় দেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৫৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৫, ২০২০
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa