হত্যা মামলায় খুলনায় ৩ জনের যাবজ্জীবন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

প্রতীকী ছবি

walton

খুলনা: যশোরের একটি হত্যা মামলায় তিনজনের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন খুলনার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল।

php glass

যশোর জেলা সদরের ইছাপুর গ্রামের নববধূ পারভীন আক্তারকে ধর্ষণে বাধা দেওয়ায় শাশুড়ি লিপি বেগমকে (৫০) হত্যার দায়ে আসামিদের এ দণ্ডাদেশ দেন ট্রাইব্যুনালের বিচারক এম এ রব হাওলাদার।

বুধবার (৬ মার্চ) দুপুরে রায় ঘোষণার সময় আসামিরা আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালত একইসঙ্গে প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে অর্থদণ্ড  অনাদায়ে আরও এক বছর করে কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন-যশোর জেলা সদরের ইছাপুর গ্রামর মুনছুর আলীর ছেলে সাইদুল ইসলাম (২৬), আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে মো. জাহিদ (২৬) ও শহীদ মোল্লার ছেলে মো. কুদ্দুস (২৬)।

আদালতের উচ্চমান বেঞ্চ সহকারী ফকির মো. জাহিদুল ইসলাম নথীর বরাত দিয়ে জানান, ২০১৩ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি রাত ৮টার দিকে যশোর জেলা সদরের ইছাপুর গ্রামের রাজমিস্ত্রী লিটনের নববধূ পারভীন আক্তারকে ধর্ষণ করতে যায় আসামিরা। এসময় লিটনের মা লিপি বেগম তাদের বাধা দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে আসামিরা ধারালা দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে লিপি বেগমকে।  

এ ঘটনায় নিহতের ছেলে লিটন সাইদুল ও জাহিদের নাম উল্লেখসহ আরও অজ্ঞাত দুইজনকে আসামি করে হত্যা মামলা করেন। ২০১৫ সালর ২৭ মে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা যশোর কোতায়ালী থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মাসুম বিল্লাহ আদালতে সাইদুল, জাহিদ ও কুদ্দুসকে অভিযুক্ত এবং সাইফুল ইসলামকে বাদ দিয়ে তিনজনের বিরুদ্ধ আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। 

পরে বাদী ওই চার্জশিটের বিরুদ্ধে আদালতে নারাজী দেন। আদালত নারাজী গ্রহণ করে মামলাটি পুনরায় তদন্তের জন্য পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগে (সিআইডি) পাঠান। পরে সিআইডি পরিদর্শক হারুন-অর-রশিদ আবারও সাইদুল, জাহিদ ও কুদ্দুসকে অভিযুক্ত এবং সাইফুল ইসলামকে বাদ দিয়ে তিনজনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন।

রাষ্ট্রপক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন পিপি অ্যাডভোকেট এনামুল হক ও এপিপি অ্যাডভোকেট শাকরিন সুলতানা।

বাংলাদেশ সময়: ১৫২৬ ঘণ্টা, মার্চ ০৬, ২০১৯
এমআরএম/আরআর

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: আদালত কারাদণ্ড
ভারতের সঙ্গে বিদ্যমান সম্পর্ক অব্যাহত থাকবে
মোদীকে অভিনন্দন জানালেন যুবলীগ চেয়ারম্যান
বিজেপির বিজয়ে বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্ক আরো সুদৃঢ় হবে:এরশাদ
কমলাপুর রেলস্টেশনে আগুন, প্রাথমিক অবস্থাতেই নিয়ন্ত্রণ
ধানের দাম অস্বাভাবিকভাবে কমে যাওয়ায় সরকার উদ্বিগ্ন


ইফতার করা হলো না দম্পতির
না’গঞ্জে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় প্রাণ গেলো কিশোরের
সিইপিজেডে ফ্যাক্টরির আগুন নিয়ন্ত্রণে
ধারাবাহিকতা ধরে রাখাই লক্ষ্য মাশরাফির
১২ ঘণ্টা পর সচল সিলেট-তামাবিল সড়ক