সম্পন্ন হলো পিক্সমামার ‘নারীর চোখে বাংলাদেশ’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সম্পন্ন হলো পিক্সমামার ‘নারীর চোখে বাংলাদেশ’। ছবি: বাংলানিউজ

walton

ঢাকা:  দেশের ডিজিটাল কনটেন্ট মার্কেটপ্লেস পিক্সমামার উদ্যোগে বাংলাদেশে নারী ফটোগ্রাফারদের নিয়ে আয়োজিত আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা সম্পন্ন হয়েছে।

php glass

নয়জন নারী আলোকচিত্রীকে পুরস্কার ও সম্মাননা দেওয়ার মাধ্যমে সম্পন্ন হয় ‘নারীর চোখে বাংলাদেশ’ শীর্ষক এই ফটো প্রতিযোগিতা।

মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) রাজধানীর গুলশানে মোবাইল ফোন অপারেটর রবির কর্পোরেট কার্যালয়ে এই প্রতিযোগিতার সমাপনী পর্ব অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক ।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন একুশে পদক বিজয়ী দেশের প্রথম নারী ফটোগ্রাফার সাইদা খানম।

এছাড়াও রবি ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মাহতাব উদ্দিন আহমেদ, পিকমামার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমানসহ উভয় প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন ।

প্রতিযোগিতায় দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে প্রায় দু’শ জনেরও বেশি  বেশি নারী ফটোগ্রাফার ১০ হাজারের বেশি ফটো জমা দেন। মোট দু’টি ধাপে প্রতিযোগিতাটি অনুষ্ঠিত হয়। প্রথম ধাপে পিক্সমামার ডিজিটাল প্লাটফর্মে নারীদের ফটোআপলোডের সংখ্যার ওপর ভিত্তি করে তিনজন বিজয়ী নির্বাচন করা হয়।

দ্বিতীয় ধাপে বিচারকরা উন্মুক্ত ভোটের জন্য ৫০টি ছবি মনোনীত করেন। এগুলোর মধ্যে সর্বোচ্চ ভোট পাওয়া ছয়টি ছবি প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয়।

এ প্রতিযোগিতায় সর্বোচ্চ ফটো আপলোড করে প্রাইজমানি হিসেবে ২৫ হাজার টাকা জিতেছেন ফারহানা আক্তার। এই ক্যাটাগরিতে দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারী যথাক্রমে অনিন্দিতা রায় ও মুন্নী আকন্দ পেয়েছেন ১৫ হাজার ও ১০ হাজার টাকা।

উন্মুক্ত ভোটের মাধ্যমে বিজয়ী হয়েছেন নওরিন আনসারি, রাফিয়া রিতু, নাফিয়া আনজুম, শামা আনিকা, আফরিন মাহী ও সাদিয়া আক্তার উমামা।

বিজয়ী প্রতিটি ছবি তিন হাজার টাকা করে কিনে নেয় পিক্সমামা। পুরস্কারের পাশাপাশি বিজয়ীদের ক্রেস্ট, সার্টিফিকেট ও টি-শার্ট উপহার দেওয়া হয়।

পুরস্কার দেওয়ার আগে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে ও সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য তুলে ধরায় রবি অসামান্য ভূমিকা রেখে চলেছে। ‘নারীর চোখে বাংলাদেশ’র মতো আয়োজন দেশের নারী আলোকচিত্রীদের উদ্যোক্তা হিসেবে প্রতিষ্ঠা পাওয়ার ক্ষেত্রে সহায়ক ভূমিকা রাখবে।

আর মাহতাব উদ্দিন আহমেদ বলেন, ‘নারীর চোখে বাংলাদেশ’ প্রতিযোগিতায়  ২ শ’ নারী ফটোগ্রাফার অংশ নিয়েছেন জানতে পেরে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত হয়েছি। আমি মনে করি এ উদ্যোগ দেশের ডিজিটাল অগ্রযাত্রায় বিশেষ ভূমিকা রাখবে।

এর আগে অতিথিদের সঙ্গে নিয়ে পিক্সমামার অ্যান্ড্রোয়েড ভিত্তিক মোবাইল অ্যাপ’র উদ্বোধন করেন প্রতিমন্ত্রী পলক। একইসঙ্গে প্রতিযোগিতার আয়োজকদের পক্ষ থেকে সাইদা খানমকে আজীবন সম্মাননা দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২৩ ঘণ্টা, এপ্রিল ৩০,২০১৯
এসএইচএস/এএটি

গুলিস্তানে ছিনতাইকারী চক্রের ৫ সদস্য আটক
ঈদের পোশাকের টাকা না দেয়ায় ছেলের হাতে প্রাণ গেলো মায়ের
‘ওয়ার্ল্ড প্রেস ফ্রিডম ডে ২০১৯’ উদযাপন
ককটেল বিস্ফোরণে নারী পুলিশ সদস্যসহ আহত ২
মিরপুরে সিঁড়ির ফাঁক দিয়ে পড়ে নারীর মৃত্যু


সৈয়দ আশরাফ ছিলেন তেজোদীপ্ত ও সাহসী: কৃষিমন্ত্রী
কাজী শুভ’র ‘ভুলিয়া না যাইও’
মোদীকে ইমরানের ফোন, একসঙ্গে কাজ করার আহ্বান
পুণ্যময় রমজানে রিজিকে লাগে বরকতের ছোঁয়া
বিএনপির সিদ্ধান্তের কোনো ঠিক নেই: নাসিম