চলতি বছরেই প্রতিটি ইউনিয়নে ইন্টারনেট সেবা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আলোচনা সভায় অতিথিরা

ময়মনসিংহ: বাংলাদেশের প্রতিটি ইউনিয়নে চলতি বছরেই ফাইবার অপটিক্যাল ক্যাবলের মাধ্যমে ইন্টারনেট সেবা দেওয়া হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

তিনি বলেন, কৃষিনির্ভর বাংলাদেশ এখন ডিজিটাল বাংলাদেশে পরিণত হয়েছে। বাংলাদেশের প্রতিটি গ্রামে ইন্টারনেট সুবিধা বাড়াতে দেশের প্রতিটি ইউনিয়নে ফাইবার অপটিক্যাল ক্যাবল স্থাপন করা হচ্ছে। চলতি বছরেই এই প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হবে। 

শনিবার (৭ জুলাই) দুপুরে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের এক যুগ পূর্তি উৎসব উপলক্ষে ‘গাহি সাম্যের গান’ মঞ্চে এক আলোচনা সভায় তিনি একথা বলেন।

আগামী এক বছরের মধ্যে দেশের প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন করার পরিকল্পনার কথা জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়কে কেবল বিশ্ববিদ্যালয় হলে চলবে না, এটিকে ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয় হতে হবে। এই বিশ্ববিদ্যালয়ে বিশ্বের এক নম্বর হাই প্রোফাইল রোবোটিক কম্পিউটার ল্যাব স্থাপন করা হবে।

আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড.এ.এইচ.এম.মোস্তাফিজুর রহমান। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন-নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবদুস সামাদ, দুর্নীতি দমন কমিশনের সচিব শামসুল আরেফিন, প্রখ্যাত চলচ্চিত্র ও টেলিভিশন ব্যক্তিত্ব মাহমুদ সাজ্জাদ, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রধান তদন্ত কর্মকর্তা আবদুল হান্নান খান, বাংলাদেশ চিনি ও খাদ্য শিল্প কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান এ কে এম দেলোয়ার হোসেন, আন্তর্জাতিক নজরুল চর্চা কেন্দ্রের মহাসচিব রাশেদুল হাসান শেলী, ময়মনসিংহের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) এ কে এম গালিব খান। 

আলোচনা সভায় ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন ট্রেজারার অধ্যাপক এম জালাল উদ্দিন। স্বাগত বক্তব্য দেন-রেজিস্টার (ভারপ্রাপ্ত) ড. মো. হুমায়ুন কবীর। 

আলোচনা সভায় গেস্ট অব অনার হিসেবে বক্তব্য দেন-জাতীয় অধ্যাপক ইমেরিটাস প্রফেসর ড. রফিকুল ইসলাম। তিনি বলেন, কবি নজরুলের জীবনী এখনও বিকৃতভাবে প্রকাশিত হচ্ছে। আমাদের কাজ হলো নজরুলের বস্তুনিষ্ঠ জীবনী প্রকাশ করা। 

কবি নজরুলের কোনো একটি গান বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীত হিসেবে নির্ধারণ করার জন্য তিনি উপাচার্যের প্রতি আহ্বান জানান। 

এর আগে মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার ও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এইচ এম মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন ভবনের সামনে থেকে এক শোভাযাত্রা বের করে বিশ্ববিদ্যালয়ের গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করা হয়। 

শোভাযাত্রায় বৃহত্তর ময়মনসিংহ সাংস্কৃতিক ফোরামসহ অতিথি, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শিক্ষার্থীরা অংশ নেন। পরে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। 

প্রসঙ্গত, ২০০৬ সালের ৯ মে জাতীয় সংসদে ‘জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয় আইন’ পাস হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেটের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এই দিনটিই বিশ্ববিদ্যালয় দিবস হিসেবে পালন করা হয়। 

গত ৯ মে রবীন্দ্র জয়ন্তী ও নজরুল জয়ন্তী পালিত হওয়ায় ওই সময় সংক্ষিপ্ত আকারে উদযাপিত হওয়ায় আবারও এক যুগ পূর্তি উদযাপন করা হয়। 

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫৯ ঘণ্টা, জুলাই ০৭, ২০১৮ 
এমএএএম/আরআর

ভিয়েতনাম মিশনে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন 
ময়মনসিংহে ডিবির সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদকবিক্রেতা নিহত
চকবাজারে এখনও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের সতর্ক অবস্থান
টিভি ব্যক্তিত্ব স্টিভ আরউইনের জন্ম
চকবাজার ট্র্যাজিডি তদন্তে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কমিটি


চকবাজার ট্র্যাজিডিতে যুক্তরাষ্ট্রের শোক       
ফেরত এলো ভারতে পাচার ২৭ নারী-শিশু
চকবাজারের অগ্নিকাণ্ডে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনের শোক
অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেন ড. কামাল
পুরান ঢাকায় হয় কারখানা থাকবে নয় বাড়িঘর