ঢাকা, শুক্রবার, ৮ মাঘ ১৪২৭, ২২ জানুয়ারি ২০২১, ০৮ জমাদিউস সানি ১৪৪২

ভারত

সীমান্তে কাঁটাতার ও জমি নিয়ে কাজ করবে বিজিবি-বিএসএফ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৭, ২০২০
সীমান্তে কাঁটাতার ও জমি নিয়ে কাজ করবে বিজিবি-বিএসএফ

আগরতলা (ত্রিপুরা):ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তের যে সব জায়গায় এখনো কাঁটাতারের বেড়া নির্মাণ হয়নি সেখানে দ্রুত বেড়া নির্মাণ ও যে সব জায়গায় জমি সংক্রান্ত বিষয়ে উভয় দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর মধ্যে বোঝাপড়ার অভাব রয়েছে সেগুলি আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করতে বিজিবি-বিএসএফ কাজ করবে বলে জানিয়েছেন বিএসএফ ত্রিপুরা ফ্রন্টিয়ারের আইজি সুশান্ত কুমার নাথ।

শুক্রবার (২৭ নভেম্বর)ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ ও বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিবির তিন দিনব্যাপী রিজিওনাল কমান্ডার পর্যায়ের বৈঠকের শেষ দিনে তিনি একথা জানান।



আগরতলার শালবাগানে বিএসএফ ত্রিপুরা ফ্রন্টিয়ার্সের অফিসে  বৈঠক শেষে উভয় দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী যৌথ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।

সংবাদ সম্মেলনে আইজি সুশান্ত কুমার নাথ বলেন, সীমান্ত সংক্রান্ত উন্নয়নের কাজ বিএসএফ ও ভারতের সাধারণ প্রশাসন মিলে করবে। এই কাজে সহযোগিতা করবে বিজিবি। বিএসএফ ও বিজিবির মধ্যে খুব ভালো এবং বিশ্বাসের সম্পর্ক রয়েছে। এই সম্পর্ককে এগিয়ে নিয়ে আগামী দিনেও উভয় দেশের বাহিনী নিজ নিজ দেশের সীমান্তকে সুরক্ষিত রাখবে এবং আন্তঃদেশীয় সীমান্ত সংক্রান্ত অপরাধ দমনে সফল হবে।

অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর জেনারেল ও বিজিবির রিজিওনাল কমান্ডার খন্দকার ফরিদ হোসেন বলেন,বিএসএফ ও বিজিবি উভয় দেশের সীমান্তের আইনশৃঙ্খলা ও শান্তি রক্ষার জন্য যথেষ্ট গুরুত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছে। উভয় দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী সীমান্তকে সুনিশ্চিত নিরাপত্তা দেওয়ার জন্য সহযোগিতা ও বন্ধুত্বপূর্ণ মনোভাব নিয়ে কাজ করছে। সীমান্ত সংক্রান্ত কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয় গভীরভাবে পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে উভয় দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী যৌথভাবে এসব সমস্যার সমাধানে কার্যকরী পদক্ষেপ নেবে।  
পাশাপাশি তিনি বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে ভারতীয় সেনাবাহিনীর অবদানের কথা বিশেষভাবে উল্লেখ করেন।

সংবাদ সম্মেলন শেষে বিজিবির অফিসাররা আখাউড়া সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে ফিরে যান।

বাংলাদেশ সময়: ১৬০২ ঘণ্টা,নভেম্বর ২৭, ২০২০
এসসিএন/এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa