ঢাকা, বুধবার, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১৫ রবিউস সানি ১৪৪২

আগরতলা

‘জৈব কৃষি জমির সনদ পাবে ত্রিপুরার আরও ১৫ হাজার হেক্টর জমি’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫৩ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৮, ২০২০
‘জৈব কৃষি জমির সনদ পাবে ত্রিপুরার আরও ১৫ হাজার হেক্টর জমি’ ...

আগরতলা (ত্রিপুরা): ভারত সরকারের রসায়ন ও সার গবেষণা মন্ত্রণালয় খুব দ্রুত নতুন করে ১৫ হাজার হেক্টর জমিকে জৈব কৃষি জমি হিসেবে সনদ দেবে বলে জানান মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব।

বুধবার (২৮ অক্টোবর) আগরতলার প্রজ্ঞা ভবনে প্রাণিসম্পদ বিকাশ দপ্তরের উদ্যোগে গো-প্রজনন সংক্রান্ত নতুন একটি প্রকল্প চালু করা হয়েছে।

 

এই প্রকল্পের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব।  

অনুষ্ঠান শেষে তিনি সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে জানান, বর্তমানে ত্রিপুরা রাজ্যের দুই হাজার হেক্টর জমি জৈব কৃষি জমি হিসেবে ভারত সরকারের রসায়ন ও সার গবেষণা মন্ত্রণালয়ের সনদ পেয়েছে। খুব দ্রুত আরও ১৫ হাজার হেক্টর কৃষি জমি জৈব কৃষি জমির সনদ পাবে।  

‘আগে কোনো জমিকে জৈব কৃষি জমির সনদ পেতে হলে তিন বছর অপেক্ষা করতে হতো। বর্তমানে রসায়ন ও সার গবেষণা মন্ত্রণালয় জৈব জমির সনদ দেওয়ার ক্ষেত্রে নিয়মে কিছু পরিবর্তন এনেছে। ভারত সরকারের রসায়ন ও সার গবেষণা মন্ত্রণালয়ের তরফে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, ত্রিপুরার যেসব জমিতে কোনোদিন রাসায়নিক সার প্রয়োগ করা হয়নি এই জমিগুলোর মাটি পরীক্ষা করে সঙ্গে সঙ্গে জৈব কৃষি জমির সনদ দেওয়া হবে। ’

বাংলাদেশ সময়: ২১৫২ ঘণ্টা, অক্টোবর ২৮, ২০২০
এসসিএন/এইচএডি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa