ঢাকা, শুক্রবার, ৩ আশ্বিন ১৪২৭, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ২৯ মহররম ১৪৪২

আগরতলা

ত্রিপুরায় তুঁত চাষের পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৪৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০১৭
ত্রিপুরায় তুঁত চাষের পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে ত্রিপুরায় তুঁত চাষের পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে

আগরতলা: ত্রিপুরায় তুঁত চাষের পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে। গোমতী জেলায় তুঁত চাষ প্রকল্পে চলতি অর্থবছরে এখন পর্যন্ত ছয়শ’৩১ জন ব্যক্তিকে দুইশো ৮৮ দশমিক পাঁচ একর জমিতে তুঁত বাগান করতে দেয়া হয়েছে। এতে ব্যয় ধরা হয়েছে ৬৪ লাখ ৯৯ হাজার ৫শ’ ১০ রুপি।

রাজ্যের হস্ততাঁত, হস্তকারু ও রেশম শিল্প দফতর থেকে এ সব তথ্য জানানো হয়েছে।

গোমতী জেলায় তুঁত চাষে পাঁচ হাজার ৪৭ দশমিক ৭শ’ কেজি কোকুন উৎপাদিত হয়।

এর মধ্যে ‘এ’ গ্রেডের তিন হাজার ৪৫ দশমিক ৮শ’ কেজি, ‘বি’ গ্রেডের এক হাজার ২শ’ ৩০ দশমিক ১৫ কেজি এবং ‘সি’ গ্রেডের ৭শ’ ৭১ দশমিক ৭৫ কেজি কোকুন হয়। এর বাজার মূল্য ১১ লাখ ৬২ হাজার একশ’ ৬১ রুপি। ত্রিপুরায় তুঁত চাষের পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে তুঁত বাগান পরিচর্যা ও দক্ষতা বাড়ানোর জন্য সম্প্রতি জেলার ২০ জন চাষিকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে রাজ্যের ধলাই জেলার হস্ততাঁত, হস্তকারু ও রেশম শিল্প দফতরের উদ্যোগে এমজিএন রেগা প্রকল্পের মাধ্যমে ডুম্বুরনগর ব্লকের লক্ষ্মীপুর গ্রামের ১০ জন, রইস্যাবাড়ী ব্লকের পূর্ব পোতাছড়া গ্রামের ১০ জনকে এক একর জমিতে তুঁত বাগান করতে দেওয়া হয়। এতে ব্যয় হয়েছে ২ লাখ ৮২ হাজার একশো’ ৪০ রুপি।

এছাড়া জেলার ডুম্বুরনগর ব্লকের লক্ষ্মীপুর ও নারায়ণপুর গ্রামের ৪০ জন তুঁত চাষিকে ২০ একর পুরাতন বাগান সংস্কার করে দেওয়া হয়েছে। এর জন্য এমজিএন রেগা প্রকল্পে ৫ লাখ ৬৯ হাজার ৯শ’২০ রুপি খরচ হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৪ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০১৭
এসসিএন/এএটি/আরআই

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa