পর্যটন মেলার শেষ দিনে ভ্রমণ পিপাসুদের ঢল

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মেলায় ভ্রমণ পিপাসুদের ঢল। ছবি: বাংলানিউজ

walton

ঢাকা: আন্তর্জাতিক পর্যটন মেলা ও নভোএয়ার ঢাকা ট্রাভেল মার্টের শেষ দিনে ভ্রমণ পিপাসুদের ঢল নেমেছে। পর্যটকদের আকৃষ্ট করতে নানা লোভনীয় অফার দিচ্ছে দেশ-বিদেশের অংশগ্রহণকারী ট্যুরস প্রতিষ্ঠান।

php glass

শনিবার (২৩ মার্চ) রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে এ মেলায় গিয়ে দেখা যায়, হলিডে ও খেলার প্যাকেজেই বুকিং বেশি দিচ্ছেন ভ্রমণে আগ্রহী নানা বয়সী লোকজন।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে মানুষের অর্থনৈতিক সক্ষমতা বাড়ায় বিদেশে ভ্রমণকারীদের সংখ্যা দ্রুত হারে বাড়ছে। এছাড়াও বিদেশে চিকিৎসা নিতে বাংলাদেশি মানুষের সংখ্যাও বাড়ছে। ফলে ট্যুরিজমকে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে।

মেলায় বিদেশে চিকিৎসার জন্য এশিয়ান মেডিকেল সাপোর্ট ও লাইফ অ্যান্ড হেলথসহ বেশকিছু প্রতিষ্ঠান অংশ নিয়েছে। 

লাইফ অ্যান্ড হেলথ কেয়ারের এক্সিকিউটিভ তানজিয়া শারমিন বলেন, আমরা ব্যাংকক হসপিটালে চিকিৎসার জন্য সবধরনের সাপোর্ট দিয়ে থাকি। মেলায় অনেককে চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় সহায়তা দিয়েছি।

হেল্পলাইন ট্যুরসের পূজা বলেন, ক্রিকেট ওয়াল্ডকাপসহ খেলা দেখার প্যাকেজে অনেকে বুকিং দিয়েছেন। মেলায় ভালো সাড়া পাওয়া গেছে।

মেলায় আসা দর্শনার্থী শারমিন জাহান বলেন, আমি থাইল্যান্ড ভ্রমণের জন্য তিনটি টিকেট কিনেছি। গ্রীষ্মের ছুটিতে মা ও ভাইকে নিয়ে ঘুরতে যাবো।

বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত মাজহারুল হক বলেন, আমি কুয়ালালামপুরের হলিডে প্যাকেজে বুকিং দিয়েছি। এপ্রিলেই ঘুরতে যাবো।

জান্নাতুল কাওনাইন নামের এক বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী বলেন, আমরা বন্ধুমহল মিলে দার্জিলিংয়ের প্যাকেজ কিনেছি। আসলে আমাদের ঘুরতে খুব ভালো লাগে, সেই জায়গা থেকেই মূলত দেশেও ঘুরে বেড়াই।

এমাজিং থাইল্যান্ড স্টলের এক্সিকিউটিভ জামিল ফজল বলেন, থ্যাইল্যান্ড অনিন্দ্য সুন্দর দেশ। আমরা থাই ভ্রমণে প্যাকেজ করে থাকি।

তিন দিনব্যাপী আন্তর্জাতিক এ পর্যটন মেলায় বাংলাদেশ, নেপাল, থাইল্যান্ড, ইন্দোনেশিয়া ও মালয়েশিয়ার জাতীয় পর্যটন সংস্থা সমূহসহ ৪১টি ট্যুর ও ট্রাভেলস সংস্থা সাতটি প্যাভিলিয়ন ও ৭০টি স্টলে মেলায় অংশ নিয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২১ মার্চ) থেকে শুরু হওয়া এ মেলা শনিবার রাত ৮টা পর্যন্ত দর্শকদের জন্য খোলা থাকবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৫ ঘণ্টা, মার্চ ২৩, ২০১৯
টিএম/আরবি/

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন: পর্যটন পর্যটক
প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে নিরপেক্ষ ছিল পুলিশ-প্রশাসন
‘যুব সমাজকে জনসম্পদে রূপান্তর করাই বড় চ্যালেঞ্জ’
শ্রীলঙ্কায় শেখ সেলিমের মেয়ে জামাই আহত, নাতি নিখোঁজ 
ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাণ্ডজ্ঞান!
ওয়ার্নার-বেয়ারস্টোর ব্যাটে জয় পেল হায়দ্রাবাদ


নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যার প্রতিবাদে মানববন্ধন
এসআই আমির হামজার বিরুদ্ধে অভিযোগের প্রমাণ পেল কমিটি
নদীর একইঞ্চি জমিও দখল করতে দেওয়া হবে না
যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় নিরাপত্তা বাহিনী সজাগ
সন্ত্রাসীদের ধর্ম নেই, সবাইকে সোচ্চার হতে হবে