ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২২ জিলহজ ১৪৪১

প্রবাসে বাংলাদেশ

বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ করলেই পদে পদে বিপদ- হার্ভার্ডে শওকত মাহমুদ

সাবেদ সাথী, নিউইংল্যান্ড থেকে | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২৫৫ ঘণ্টা, মে ১৪, ২০১২
বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ করলেই পদে পদে বিপদ- হার্ভার্ডে শওকত মাহমুদ

বর্তমান সরকারের আমলে সাংবাদিকদের কোনই স্বাধীনতা নেই। বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করলেই বিপদ আসছে পদে পদে।

সাংবাদিক ও বুদ্ধিজীবীদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। শুধু লেখার স্বাধীনতাই নয়, দেশে সাংবাদিকদের সামাজিক নিরাপত্তা দিতেও ব্যর্থ হয়েছে এই সরকার। ফলে প্রতিনিয়তই সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যাচ্ছে সাংবাদিকরা। গত রোববার বোস্টনের হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সেমিনারে প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য প্রদানকালে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা ও বিশিষ্ট সাংবাদিক শওকত মাহমুদ এসব কথা বলেন।

হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে মেডিকেল স্কুলের ব্রে লেকচার রুমে বাংলাদেশ সেন্টার ফর ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ আয়োজিত ‘রোল অব জার্নালিজম: চ্যালেঞ্জ টু ফস্টারিং ডেমোক্রেসি ইন বাংলাদেশ’ শীর্ষক এক সেমিনার সাংবাদিক শওকত মাহমুদ আরও বলেন, সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনীর খুনীদের এখন পর্যন্ত গ্রেফতার করা হয়নি। সরকার প্রকৃত খুনিদের আড়াল করার জন্য ষড়যন্ত্র করছে। শুধু প্রধানমন্ত্রীর ছেলের একটি সংবাদ লেখার কারণে মাহমুদুর রহমানকে জেলে যেতে হয়েছে। তার ওপর শারীরিক নির্যাতন করা হয়েছে। বন্ধ করে দেয়া হয়েছিন আমার দেশ পত্রিকা। সাম্প্রতি বিএনপির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ইলিয়াস আলীসহ গত কয়েক বছরে ২৬ জন মানুষ গুম হয়েছে যার সঠিক কোনো তদন্ত হয়নি। গুম হওয়া অধিকাংশ মানুষের লাশ পর্যন্ত খুঁজে পাওয়া যায়নি। এ ব্যাপারে সরকারের তেমন কোনো জোরালো ভুমিকা লক্ষ্য করা যাচ্ছে না।

তিনি দেশের সামগ্রিক পরিস্থিতির বিষয়ে বলেন, মানুষ ঘরে থাকলে খুন আর বাইরে গেলে গুম হচ্ছে। ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে মরছে সাংবাদিকরা। একারণেই নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাহজাহান খানের পদত্যাগ করা উচিত। কারণ তিনি যে হারে শ্রমিকদের জন্য সাফাই গেয়ে যাচ্ছেন তাতে ভবিষ্যতে আর কোনোদিন সড়ক নিরাপদ হবে না। নৌ পরিবহন মন্ত্রী বলেছিলেন, গরু-ছাগল চিনতে পারলেই ড্রাইভিং লাইসেন্স পেতে পারেন একজন ড্রাইভার। এসব কথা বলে তিনি পরিবহন শ্রমিকদের উস্কানি দিয়ে যাচ্ছেন, ফলে গত কয়েক মাসে অসংখ্য সাংবাদিক অদক্ষ ড্রাইভারদের গড়ির চাকায় পিষ্ট হয়ে মারা গেছেন।

এ প্রসঙ্গে তিনি মিশুক মুনির, তারেক মাসুদ এবং সম্প্রতি বিভাস চন্দ্র সাহা ও শহিদুজ্জামান টিটু্সহ সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত সকল সাংবাদিকের কথা উল্লেখ করেন। ড. কাজী ফরহাদ জালালের সভাপতিত্বে এবং হার্ভার্ড মেডিকেল স্কুলের সহযোগী প্রভাষক মোহাম্মদ ওয়ারার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ওই সেমিনারে শুভেচ্ছা বক্তব্য প্রদান করেন ড. মজিবুর রহমান।                                                  

প্রধান বক্তার বক্তব্য শেষে প্রশ্ন-উত্তর পর্বে দেশের নানা বিষয় নিয়ে প্রশ্ন করেন যথাক্রমে- মোজাম্মেল হোসাইনী, মাহবুবুর রহমান অপু, কাজী নুরুজ্জামান, সোহরাব খান, ড. আহসান, মমিনুল ইসলাম, আব্দুল হাকিম, প্রকৌশলী নকিব উদ্দিন, জাহাঙ্গীর আলম, শহিদুল ইসলাম প্রিন্স, বদরে আলম, মোয়াজ্জেম হোসেন কাজী, রোকেয়া জামান, মোহাম্মদ নাসিম ও সাংবাদিক সাবেদ সাথী প্রমুখ।

সাবেদ সাথী: যুক্তরাষ্ট্রস্থ বার্তা সংস্থা বাংলা প্রেস সম্পাদক

বাংলাদেশ সময় :  ১২৪৪ ঘণ্টা, ১৪ মে, ২০১২

সম্পাদনা : আহ্সান কবীর, ‍‌আউটপুট এডিটর
[email protected]

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa