মিরসরাইয়ে নলকূপের পাইপ দিয়ে নির্গত হচ্ছে গ্যাস

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলায় আবারও নলকূপের পাইপে প্রাকৃতিক গ্যাসের সন্ধান মিলেছে। উপজেলার ইছাখালী ইউনিয়নের সাধুর চরের একটি খামার বাড়িতে স্থাপিত নলকূপের পাইপ দিয়ে কয়েকদিন ধরে অনবরত গ্যাস বের হচ্ছে।

মিরসরাই (চট্টগ্রাম): চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলায় আবারও নলকূপের পাইপে প্রাকৃতিক গ্যাসের সন্ধান মিলেছে। উপজেলার ইছাখালী ইউনিয়নের সাধুর চরের একটি খামার বাড়িতে স্থাপিত নলকূপের পাইপ দিয়ে কয়েকদিন ধরে অনবরত গ্যাস বের হচ্ছে।

গত কয়েক বছর ধরে মিরসরাইয়ের বিভিন্নস্থানে গ্যাসের উদগিরণ দেখা গেলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এ ব্যাপারে কোনো উদ্যোগ গ্রহণ করেনি।

ইছাখালী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও নির্মাণাধীন ‘স্মরণিকা কৃষি খামার লিমিটেডের প্রকল্প পরিচালক মো. ইউসুফ বাংলানিউজকে জানান, বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে পূর্ব ইছাখালী মৌজার সাধুর বাজার চরে পাঁচ একর জায়গার ওপর স্মরণিকা কৃষি খামার লিমিটেডের প্রকল্প গড়ে তোলা হচ্ছে।

১৪ ডিসেম্বর খামার বাড়িতে নলকূপের মিস্ত্রিরা পাইপের ৭২ ফুট পর্যন্ত বোরিং (মাটিতে পুতে) করে একটি নলকূপ বসায়। নলকূপ থেকে বৈদ্যুতিক মোটর দিয়ে প্রকল্প এলাকায় পানি নেওয়ার চেষ্টা করে দেখা যায় পানি উঠছে না। পরদিন পাইপের মুখ দিয়ে বুদবুদ উঠতে দেখে সন্দেহ হলে দিয়াশলাই কাঠি জ্বালালে আগুন ধরে ওঠে।

জানা গেছে, চলতি বছরের ৫ জুন উপজেলার মায়ানী ইউনিয়নের মধ্যম মায়ানী  গ্রামের আব্দুল হাকিমের বাড়িতে স্থাপিত একটি নলকূপের একপাশ দিয়ে বুদবুদ করে গ্যাস বের হতে ও অন্য পাশ দিয়ে পানি বের হতে দেখা গেছে।

এর আগেও উপজেলার খইয়াছরা ইউনিয়নের পশ্চিম পোলমোগরা গ্রামের জহুরুল আমিনের বাড়ির ভূট্টো ড্রাইভারের একটি নলকূপে, সাহেরখালী ইউনিয়নের গ্রামীণ ব্যাংকের পাশের একটি জমিতে, মাস্তাননগর শহীদ মেম্বার বাড়ির নলকূপে, হাইতকান্দি বাপনা পুকুর এলাকার আবুল হোসেন মিয়ার বাড়ির নলকূপ দিয়ে গ্যাস বের হতে দেখা গেছে।

মিরসরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহম্মদ আশরাফ হোসেন ইছাখালী ইউনিয়নের সাধুর চরের নলকূপ দিয়ে গ্যাস বের হওয়ার বিষয়টি সরেজমিনে পরিদর্শন করে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে জানাবেন বলে বাংলানিউজকে জানিয়েছেন ।

গত কয়েক বছর ধরে উপজেলার বিভিন্নস্থানে নলকূপ দিয়ে গ্যাস বের হওয়ার ঘটনায় মিরসরাইয়ে প্রাকৃতিক গ্যাসের অনুসন্ধান চালানো প্রয়োজন বলে মনে করছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মুহম্মদ আশরাফ হোসেন।

এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে বাপেক্সের জিএম প্রশাসন (জেনারেল ম্যানেজার) সাইফুজ্জামান বাংলানিউজকে জানান, মিরসারইয়ের বিভিন্নস্থানে নলকূপ দিয়ে গ্যাস বের হওয়ার ব্যাপারে তিনি ও তাদের প্রতিষ্ঠান কিছুই জানেন না। তবে, বিষয়টি পেট্রোবাংলা কর্তৃপক্ষ তাদের অবহিত করলে তারা প্রতিনিধি দল পাঠিয়ে অনুসন্ধান করবেন ।

পেট্রোবাংলার সাবেক পরিচালক (মাইনিং) মকবুল ই ইলাহী চৌধুরী বাংলানিউজকে জানান, জীবাশ্ম থেকে গ্যাসের সৃষ্টি হয়। সে কারণে বিভিন্ন এলাকায় ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র গ্যাসের মজুদ রয়েছে। যেগুলোকে পকেট গ্যাস বলা হয়।  এসব পকেট গ্যাস থেকে গ্যাস উত্তোলন লাভজনক নয়।

তবে, মিরসরাইয়ে যদি এভাবে ম‍াঝে মাঝেই নলকূপের নল দিয়ে  গ্যাস ওঠে তাহলে সেখানে তা খতিয়ে দেখা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ০৪১৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৪, ২০১২
 সম্পাদনা: মীর সানজিদা আলম ও প্রভাষ চৌধুরী, নিউজরুম এডিটর

করোনা সন্দেহে মাদারীপুরে কলেজছাত্র আইসলেশনে
২০ হাজার পরিবারকে চাল-ডাল দেবেন মেয়র লিটন
করোনা আক্রান্ত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার চিঠি
প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে ১০ কোটি টাকা দিচ্ছে বসুন্ধরা গ্রুপ
উল্লাপাড়ায় ৩০ গণপরিবহনকে জরিমানা


গরীব-অসহায়দের বাড়িতে খাদ্য পৌঁছে দিলেন মন্ত্রী শ ম রেজাউল
ডিএনসিসির পরিচ্ছন্নতা-মশক নিধনকর্মীদের গ্লাভস-জুতা বিতরণ
সিলেটে রাস্তার পাশে পড়ে থাকা বিদেশি নাগরিক আইসোলেশনে
বশেফমুবিপ্রবিতে প্রস্তুত হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ 
নওগাঁয় মেয়েকে হত্যার অভিযোগে মা আটক