কোম্পানি ভিত্তিক প্রস্তাব দিতে হবে

গ্যাসের দাম বৃদ্ধির গণশুনানি স্থগিত

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

walton

গ্যাসের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব নিয়ে ১০ডিসেম্বর নির্ধারিত গণশুনানি স্থগিত করা হয়েছে। পেট্রোবাংলা নয় বিতরণ কোম্পানিগুলোকে পৃথক প্রস্তাব দিতে নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন(বিইআরসি)।

ঢাকা: গ্যাসের দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব নিয়ে ১০ডিসেম্বর নির্ধারিত গণশুনানি স্থগিত করা হয়েছে। পেট্রোবাংলা নয় বিতরণ কোম্পানিগুলোকে পৃথক প্রস্তাব দিতে নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন(বিইআরসি)।

পৃথক প্রস্তাব হাতে পেলে পরবর্তী গণশুনানি হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিইআরসি) ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান প্রকৌশলী ইমদাদুল হক।

বিইআরসি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আরও জানান, “আইনানুযায়ী পেট্রোবাংলার প্রস্তাব বিবেচনা করার সুযোগ নেই।সে কারণে পেট্রোবাংলাকে বলা হয়েছে গ্যাসের বিরতণ কোম্পানিগুলোকে পৃথকভাবে দাম বাড়ার প্রস্তাব দেওয়ার জন্য পেট্রোবাংলাকে চিঠি দেওয়ার বিষয়ে কমিশন সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আগামীকাল (মঙ্গলবার) পেট্রোবাংলার হাতে চিঠি পৌছবে বলেও আশা প্রকাশ করেন বিইআরসি ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান।

গণশুনানি স্থগিত প্রসঙ্গে বলেন বিইআরসির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বলেন, “আইন রয়েছে তারিখ বিলম্ব করা যেতে পারে। কমিশন সে সিদ্ধান্তই নিয়েছে। কোম্পানি ভিত্তিক প্রস্তাব পেলে তখন নতুন তারিখ নির্ধারণ করা হবে।”

উল্লেখ্য, পেট্রোবাংলা ২০ মে আবাসিক ছাড়া  গ্যাসের ৭ ধরনের ব্যবহারকারীদের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দেয়। খাতগুলো হচ্ছে, বিদ্যুৎ ও সার উৎপাদন, ক্যাপটিভ পাওয়ার, শিল্প, চা-বাগান, বাণিজ্যিক ও সিএনজি। এর মধ্যে সর্বোচ্চ ১০২ দশমিক ৯৪ শতাংশ দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করা হয়েছে ক্যাপটিভ পাওয়ার খাতে। সে মোতাবেক ৮ নভেম্বর উন্মুক্ত সভায় ১০ ডিসেম্বর গণশুনানির দিন নির্ধারণ করা হয়।

পেট্রোবাংলার প্রস্তাবে বিদ্যুৎ উৎপাদন খাতে বর্তমান মূল্য (প্রতি হাজার ঘনফুট) ৭৯ দশমিক ৮২ টাকা থেকে ৫ দশমিক ২৪ শতাংশ বাড়িয়ে ৮৪ টাকা, সার উৎপাদন খাতে ৭২ দশমিক ৯২ টাকা থেকে ৯ দশমিক ৭১ শতাংশ বাড়িয়ে ৮০ টাকা, ক্যাপটিভ পাওয়ারে ১১৮ দশমিক ২৬ টাকা থেকে ১০২ দশমিক ৯৪ শতাংশ বাড়িয়ে ২৪০ টাকা নির্ধারণের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া শিল্পে ১৬৫ দশমিক ৯১ টাকা থেকে ৩২ দশমিক ৬০ শতাংশ বাড়িয়ে ২০ টাকা, চা বাগান খাতে ১৬৫ দশমিক ৯১ থেকে ২০ দশমিক ৫৫ শতাংশ বাড়িয়ে ২০০ টাকা, বাণিজ্যিক খাতে ২৬৮ দশমিক ০৯  থেকে ৩০ দশমিক ৫৫ শতাংশ বাড়িয়ে ৩৫০ টাকা ও রূপান্তরিত প্রাকৃতিক গ্যাস (সিএনজি) ৬৫১ দশমিক ২৯ টাকা থেকে ৩৩ দশমিক ৩৩ শতাংশ বাড়িয়ে ১১৩২ দশমিক ৬৭ টাকা নির্ধারণের প্রস্তাব করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, এর আগে সর্বশেষ ২০০৯ সালে বিইআরসি সব ধরনের গ্যাসের মূল্য ১১ দশমিক ২২ শতাংশ বাড়িয়েছিল। এছাড়া গত বছরে দু’দফায় সিএনজির দাম বাড়িয়ে প্রতি ঘনমিটার ৩০ টাকা করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০০০২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৪, ২০১২
ইএস/সম্পাদনা: শাফিক নেওয়াজ সোহান, নিউজরুম এডিটর

লেবার পার্টির শ্যাডো কেবিনেটে টিউলিপ
ফায়ার সার্ভিসের ল্যান্ড ফোন বিকল
মিরপুর ও নারায়ণগঞ্জে করোনা পরিস্থিতি ভয়ংকর
ঢাকার বাইরে করোনা রোগী বেড়েছে
এটিএম বুথগুলোর সামনে ‘সামাজিক দূরত্ব’ মানা হচ্ছে না!


ফেনীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে একজনের মৃত্যু
বগুড়ায় হতদরিদ্রদের ৫০ বস্তা চালসহ কৃষক লীগ নেতা আটক
সাহায্যের জন্য নগদ অর্থ সংগ্রহ করবেন না: মুখ্যমন্ত্রী
সিলেটে প্রবাস ফেরত যুবককে কুপিয়ে খুন
নারায়ণগঞ্জে বিভিন্ন বাসার ছাদে সারারাত জামাতে নামাজ আদায়