ঢাকা, শনিবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

জাতীয়

৬৪ হাজার রোগীর জন্য ১ জন অকুপেশনাল থেরাপিস্ট

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১, ২০২০
৬৪ হাজার রোগীর জন্য ১ জন অকুপেশনাল থেরাপিস্ট ৬৪ হাজার রোগীর জন্য ১ জন অকুপেশনাল থেরাপিস্ট

ঢাকা: বাংলাদেশে দুই কোটির বেশি মানুষ বিভিন্ন ধরণের প্রতিবন্ধীতার শিকার। এই বিশাল জনগোষ্ঠীর চিকিৎসা ও পুনর্বাসনে অকুপেশনাল থেরাপিস্ট আছেন মাত্র ২৪৬ জন।

প্রতি ৬৪ হাজার রোগীর জন্য ১ জন চিকিৎসক। যা চাহিদার তুলনায় খুবই অপ্রতুল। এজন্য থেরাপিস্টদের জন্য পর্যাপ্ত পদ সৃষ্টি এবং উচ্চশিক্ষার ব্যবস্থা করা দরকার।

শনিবার (৩১ অক্টোবর) বিশ্ব অকুপেশনাল থেরাপি দিবস ২০২০ উপলক্ষে একটি বেসরকারি টেলিভিশন ভবনে আয়োজিত এক গোল টেবিল বৈঠকে বক্তারা একথা বলেন।  

পুনবার্সন স্বাস্থ্য সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ‘বেলা হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফাউন্ডেশন’ এর আয়োজনে গোল টেবিল বৈঠকে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খান খসরু, বিশেষ অতিথি ছিলেন নিউরোডেভলপমেন্টাল ডিজ্যাঅ্যাবিলিটি প্রটেকশনাল ট্রাস্টের (এনডিডি ট্রাস্ট) চেয়ারপারসন, অধ্যাপক ডা. মো. গোলাম রব্বানী।  

প্রধান অতিথির বক্তব্যে সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রতিবন্ধীতা অসুস্থতা নয়। তারাও সমাজের মুল ধারার মানুষ। তারা যেন সমাজের উন্নয়নে ভূমিকা রাখতে পারে তার জন্য সরকার কাজ করে যাচ্ছে। দেশের ১০ শতাংশ মানুষ কোন না কোন ভাবে প্রতিবন্ধিতার শিকার। এসব প্রতিবন্ধীদের উন্নয়নে দেশের ১০৯টি উপজেলায় প্রতিবন্ধী উন্নয়ন ফাউন্ডেশন প্রকল্প পরিচালনা করা হচ্ছে যা পরবর্তীতে দেশের সব উপজেলায় চালু করা হবে।  

সিআরপির প্রতিষ্ঠাতা ও সম্বনয়কারী ড. ভেলরি এন টেইলের সভাপতিত্বে ও বাংলাদেশ রিহ্যাবিলিটেশন কাউন্সিলের নিবার্হী সদস্য ডা. শামীম আহাম্মদের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে বিশ্ব অকুপেশনাল থেরাপির প্রতিপাদ্য বিষয় নিয়ে তথ্যমূলক প্রেজেনটেশন উপস্থাপন করেন সিআরপির সহযোগী অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান ডা. মো. জুলকার নায়েন (ওটি), আয়োজনকারী সংস্থা বেলা হেলথ অ্যান্ড এডুকেশন ফাউন্ডেশনের নির্বাহি পরিচালক ডা. রোকসানা আক্তার (পিটি), বক্তব্য রাখেন সিআরপির নিবার্হী পরিচালক, মো. শফিক উল ইসলাম, বাংলাদেশ হেলথ প্রফেশনস ইনস্টিটিউটের (বিএইচপিআই) অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মো. ওমর আলী সরকার, জাতীয় প্রতিবন্ধী উন্নয়ন ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উপ-পরিচালক (পরিকল্পনা) রাজীব হাসান।  

অনলাইনে অংশ নেন জাপানের টোকিও মেট্রোপলিটন বিশ্ববিদ্যালয়ের অকুপেশনাল থেরাপি বিভাগের প্রফেসর ড. পিটার বোন্তে, অস্ট্রেলিয়ার মিডওয়ের্স্টান বিশ্ববিদ্যালয়ের অকুপেশনাল থেরাপি বিভাগের প্রফেসর ড. মার্ক কোভিক, কানাডার অকুপেশনাল থেরাপিস্ট সুপারভাইজার মো. এহসানুল আম্বিয়া প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ০১৪৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ০১, ২০২০
এমআইএস/এমআরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa