খিলগাঁওয়ে বাশার হত্যার অন্যতম হোতা আটক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি প্রতীকী

walton

ঢাকা: রাজধানীর খিলগাঁও এলাকাধীন গাড়ান এলাকায় আবুল বাশার তালুকদার (৩২) নামে এক ব্যক্তিকে কুপিয়ে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় অন্যতম হোতাকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নে (র‌্যাব-৩)।

শফিকুল ইসলাম শফিক (২৫) নামে আটক হওয়া এই ব্যক্তি হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার এজাহারভুক্ত আসামি।

বৃহস্পতিবার (১৪ মে) দিনগত রাতে খিলগাঁও রেলগেট এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সিনিয়র সহকারী পরিচালক এএসপি সুজয় সরকার জানান, বুধবার (১৩ মে) রাতে আবুল বাশার তালুকদারকে কুপিয়ে খুন করে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় নিহতের ভাই উজ্জ্বল তালুকদার বাদী হয়ে খিলগাঁও থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

চাঞ্চল্যকর এ ঘটনায় গোয়েন্দা নজরদারির ভিত্তিতে এজাহারনামীয় আসামি শফিকুল ইসলাম শফিককে আটক করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞরাসাবাদে শফিক হত্যাকাণ্ডে নিজের সম্পৃক্ততা স্বীকার করেছেন। তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত রক্তমাখা একটি রামদা উদ্ধার করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আটক শফিককে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব জানায়, খিলগাঁও এবং রামপুরা এলাকায় অবৈধ ইট, বালুর ব্যবসা এবং মাদকের ব্যবসার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে ওই এলাকার বিভিন্ন সন্ত্রাসী গ্রুপের মধ্যে দ্বন্দ্ব ছিলো। নিহত আবুল বাশার তালুকদার খিলগাঁও ও রামপুরা থানা এলাকায় ইট ও বালু সরবরাহের ঠিকাদারি করতেন।

ইট, বালুর ব্যবসার নিয়ন্ত্রণকে কেন্দ্র করে সাইফুল গ্রুপের সঙ্গে দ্বন্দ্বে জড়িয়ে পড়েন আবুল বাশার গ্রুপ। এরই পরিপ্রেক্ষিত এই হত্যাকাণ্ড ঘটে।

এ ঘটনার সঙ্গে সম্পৃক্ত অন্যান্য আসামিদের গ্রেফতারে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান এএসপি সুজয় সরকার।

বাংলাদেশ সময়: ০৬২৭ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০২০
পিএম/এএটি

মাদারীপুরে দুই গৃহবধুর মরদেহ উদ্ধার
রাতের আঁধারে বাড়ি বাড়ি খাবার নিয়ে সাংবাদিক ইদ্রিস
বগুড়ায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে যুবককে পিটিয়ে হত্যা
একা প্লেনে করে মায়ের কাছে ফিরলো পাঁচ বছরের বিহান
২০০ এতিম শিশুদের নিয়ে ঈদ উদযাপন


নজরুলজয়ন্তীতে ছায়ানটের নিবেদন
মঈনুল আহসান সাবেরের জন্ম
ইতিহাসের এই দিনে

মঈনুল আহসান সাবেরের জন্ম

চট্টগ্রামে ঈদের দিন করোনায় আক্রান্ত ১৭৯ জন
গান-আড্ডায় করোনা রোগীদের ঈদ উদযাপন ফিল্ড হাসপাতালে
প্লেন চালুর শুরুতেই ধাক্কা ভারতে, একের পর এক ফ্লাইট বাতিল